‘না হাঁটতে পারা পর্যন্ত আইপিএল খেলে যাব’



স্পোর্টস ডেস্ক, বার্তা২৪.কম
ছবি- সংগৃহীত

ছবি- সংগৃহীত

  • Font increase
  • Font Decrease

বিশ্বকাপে দুর্দান্ত ফর্মে ছিলেন গ্লেন ম্যাক্সওয়েল, চোট নিয়েই করেছেন ডাবল সেঞ্চুরির বিশ্বরেকর্ড। এবার তিনি ঘোষণা দিলেন, যতক্ষণ পর্যন্ত তিনি হাঁটতে পারবেন , ততক্ষণ তিনি আইপিএলে দর্শকদের বিনোদন দিয়ে যাবেন।

ভারত থেকে দেশে ফেরার পর এক সপ্তাহ বিশ্রামের পর বৃহস্পতিবার রাতে ব্রিসবেনের বিপক্ষে বিগ ব্যাশ লিগের উদ্বোধনী ম্যাচে মেলবোর্ন স্টার্সের নেতৃত্ব দেবেন ম্যাক্সওয়েল।

আগামী বছর রয়্যাল চ্যালেঞ্জার্স বেঙ্গালুরুর হয়ে খেলতে যাবেন ম্যাক্সওয়েল। ৩৫ বছর বয়সী এই হার্ড-হিটার আশা করছেন, জুনে টি-টোয়েন্টি বিশ্বকাপের আগে যত বেশি অজিরা আইপিএলের অভিজ্ঞতা পাবেন, সেটা ততই বিশ্বকাপে কাজে লাগবে।

বুধবার মেলবোর্ন বিমানবন্দরে ম্যাক্সওয়েল বলেছেন, 'আইপিএল সম্ভবত আমার খেলা শেষ টুর্নামেন্ট হবে, কারণ আমি হাঁটতে না পারা পর্যন্ত আইপিএলে খেলব।‘

তিনি আরও বলেন, ‘পুরো ক্যারিয়ারে আইপিএল আমার জন্য সবচেয়ে কার্যকর ও ভালো হয়েছে। যাদের সঙ্গে আমার দেখা হয়েছে, যে কোচদের অধীনে আমি খেলেছি, যে সব আন্তর্জাতিক খেলোয়াড়ের সঙ্গে আমি কাঁধে কাঁধ মিলিইয়ে খেলেছি, সেই টুর্নামেন্টটি আমার পুরো ক্যারিয়ারের জন্য অনেক উপকারী হয়েছে।‘

বেঙ্গালুরুর সতীর্থদের নিয়ে তিনি বলেন, ‘আপনি দুই মাস ধরে এবি (ডি ভিলিয়ার্স) এবং বিরাট (কোহলি) এর সাথে কাঁধে কাঁধ মিলিয়েছেন, অন্যান্য খেলা দেখার সময় তাদের সাথে কথা বলছেন। এটি সবচেয়ে বড় শেখার অভিজ্ঞতা যা যেকোনো খেলোয়াড় চাইতে পারে।‘

ম্যাক্সওয়েল আশা করেন, আরও বেশকিছু অস্ট্রেলিয়ান খেলোয়াড় আইপিএলে খেলতে পারবে এবং ওয়েস্ট ইন্ডিজের মতো কন্ডিশনে তা কাজে লাগাতে পারবে।

   

টস জিতে বোলিংয়ে বরিশাল



স্পোর্টস ডেস্ক, বার্তা২৪.কম
ছবি- সংগৃহীত

ছবি- সংগৃহীত

  • Font increase
  • Font Decrease

ফাইনালে ওঠার লড়াইয়ে টস ভাগ্যটা সঙ্গে দিয়েছে তামিম ইকবালের দল ফরচুন বরিশালকে। টস জিতে তামিম ব্যাট করতে পাঠালেন সাকিব আল হাসানের দল রংপুর রাইডার্সকে।

এই ম্যাচে দুই দল এসেছে পুরো বিপরীত ফর্ম নিয়ে। টানা দুই ম্যাচে হেরে আজ কোয়ালিফায়ার দুইয়ে এসেছে রংপুর। আর বরিশাল এসেছে টানা দুই ম্যাচ জিতে।

এমন এক ম্যাচে বরিশাল আস্থা রেখেছে তাদের উইনিং কম্বিনেশনের ওপর। এলিমিনেটরের দলটা নিয়েই আজ নেমেছে রংপুরের সামনে। 

বরিশাল একাদশ
তামিম ইকবাল, সৌম্য সরকার, কাইল মায়ার্স, ডেভিড মিলার, মুশফিকুর রহিম, মাহমুদউল্লাহ রিয়াদ, জেমস ফুলার, মেহেদি হাসান মিরাজ, মোহাম্মদ সাইফউদ্দিন, ওবেদ ম্যাককয়, তাইজুল ইসলাম।

রংপুর একাদশ
রনি তালুকদার, শামিম পাটোয়ারী, সাকিব আল হাসান, মেহেদি হাসান মিরাজ, জিমি নিশাম, নিকলাস পুরান, নুরুল হাসান বেয়ারস্টো, মোহাম্মদ নবী, আবু হায়দার রনি, হাসান মাহমুদ, ফজলহক ফারুকী

;

আইরিশ বোলারদের ‘টলারেন্সে’ ব্যর্থ আফগানরা



স্পোর্টস ডেস্ক বার্তা২৪.কম
ছবি: সংগৃহীত

ছবি: সংগৃহীত

  • Font increase
  • Font Decrease

আফগানিস্তান ও আয়ারল্যান্ডের মধ্যকার একমাত্র টেস্টটি শুরুর আগেই ঘটেছে মজার এক ঘটনা। পূর্বনির্ধারিত সূচি অনুযায়ী ম্যাচটি হওয়ার কথা ছিল নিরপক্ষে ভেন্যু আবুধাবির জায়েদ ক্রিকেট স্টেডিয়ামে। তবে ম্যাচ শুরুর একদম শেষ মুহূর্তে পাল্টে যায় ভেন্যু। আবুধাবি স্কুল স্পোর্টস চ্যাম্পিয়নশিপের কারণে ম্যাচটি শুরু হয়েছে নতুন এক মাঠে। যার নামটিও এই ঘটনার মতো মজার, ‘টলারেন্স ওভাল’। এবং এই টলারেন্স ওভালেই আইরিশ বোলারদের টলারেন্সে পুরোদস্তুর ব্যর্থ আফগান ব্যাটাররা। 

এতে টেস্টের প্রথম দিনে চা বিরতির আগে পেসারদের তোপে স্রেফ ১৫৫ রানেই থেমেছে আফগানিস্তানের প্রথম ইনিংস। সেখানে ফাইফার তুলে নিয়েছেন মার্ক অ্যাডায়ার। 

এর আগে টসে জিতে আগে ব্যাটিংয়ের সিদ্ধান্ত নেন আফগান অধিনায়ক হাশমতউল্লাহ শহীদি। সেখানে শুরুতেই ধাক্কা খায় তারা। সপ্তম ওভারে দলীয় ১১ রানের মাথায় জোড়া আঘাত হানেন অ্যাডায়ার। সেই চাপ সামলে উঠার পথে একের পর ব্যর্থ ব্যাটারদের মধ্যে কেবল ফিফটি পেরোনো ইনিংস খেলেন ওপেনার ইব্রাহিম জাদরান। ৫৩ রান করেন এই উইকেটরক্ষক ব্যাটার। 

এছাড়া শেষ পর্যন্ত লড়াই চালিয়ে যাওয়া করিম জানাতের ব্যাট থেকে আসে ৪১ রান। এদিকে অ্যাডায়ারের পাঁচ উইকেট বাদে দুটি করে উইকেট নেন ক্রিইগ ইয়ং ও কার্টিস ক্যামফার। 

সংক্ষিপ্ত স্কোর:

আফগানিস্তান ১ম ইনিংস: ১৫৫ (ইব্রাহিম ৫৩, জানাত ৪১*; অ্যাডায়ার ৫/৩৯, ক্যাম্ফার ২/১৩)

 

;

ইংলিশ ক্রিকেটারদের সংগঠনের নতুন সভাপতি মরগান 



স্পোর্টস ডেস্ক বার্তা২৪.কম
ছবি: সংগৃহীত

ছবি: সংগৃহীত

  • Font increase
  • Font Decrease

 

ক্রিকেটের উত্থান তাদের দেশেই। তবে বিশ্ব মঞ্চের শিরোপা হয়েছিল না জেতা। সেই খরাই কেটেছিল ইয়ন মরগানের হাতে। ২০১৯ সালে নিউজিল্যান্ডের বিপক্ষে সেই নাটকীয় ফাইনাল ম্যাচে জিতে ওয়ানডে বিশ্বকাপে প্রথমবারের মতো শিরোপা উঁচিয়ে ধরেছিল ইংল্যান্ড, তাও আবার নিজেদের মাঠেই। এমন কীর্তিতে অধিনায়ক হিসেবে মরগান স্মরণীয় থাকবেন তা কার্যত বলাই যায়। 

২০২২ সালে আন্তর্জাতিক ক্রিকেটকে বিদায় জানালেও ক্রিকেটের সঙ্গেও বেশ ভালোভাবেই যুক্ত আছেন মরগান। অবসরের পর থেকে আছেন ধারাভাষ্যকর এবং ক্রিকেট বিশ্লেষক হিসেবে। এবার ক্রিকেটেরই নতুন এক দায়িত্ব দেখা মিলবে সাবেক এই তারকা ক্রিকেটারকে। 

প্রফেশনাল ক্রিকেটার্স অ্যাসোসিয়েশনের (পিসিএ) সভাপতির দায়িত্ব নিতে চলেছেন মরগান। ক্রিকেটারদের সংগঠনটির দশম সভাপতি হিসেবে দায়িত্ব নেবেন তিনি। পিসিএ-এর বর্তমান সভাপতি  শার্লট এডওয়ার্ডস। তারই স্থলাভিষিক্ত হবেন ৩৭ বছর বয়সী সাবেক এই ইংলিশ তারকা। 

নতুন দায়িত্ব পেয়ে বেশ উচ্ছ্বসিত মরগান। এ নিয়ে তিনি বলেন, ‘ গত ১৯ বছর ধরে পিসিএর সদস্য থাকার পর এমন মর্যাদাপূর্ণ সুযোগ পাওয়ায় আমি কৃতজ্ঞ ও সম্মানিত বোধ করছি। ক্রিকেট বর্তমানে একটি পরিবর্তনশীল অবস্থার মধ্যে দিয়ে যাচ্ছে। এমন সময়ে পিসিএর ভূমিকা আরও গুরুত্বপূর্ণ।’

গুরুত্বপূর্ণ এই দায়িত্বে এই প্রতিষ্ঠানের সঙ্গে কাজ করার জন্য মুখিয়ে আছেন মরগান। জানান, অবসরের পরও এবার খেলাকে আবারও কিছু ফিরিয়ে দেওয়ার সুযোগ থাকছে।  

পিসিএ সংগঠনটি মূলত ইংলিশ সাবেক ও বর্তমান ক্রিকেটারদের। যা প্রতিষ্ঠিত হয়েছিল ১৯৬৭ সালে। 

১৬ বছরের আন্তর্জাতিক ক্যারিয়ারে ১৬টি টেস্ট, ২৪৮টি ওয়ানডে এবং ১১৫টি টি-টোয়েন্টি খেলেছেন মরগান। সেখানে সব মিলিয়ে করেছেন মোট ১০ হাজার ৮৫৯ রান।

;

চেলসি মালিকদের ধৈর্য ধরতে বললেন পচেত্তিনো



স্পোর্টস ডেস্ক বার্তা২৪.কম
ছবি: সংগৃহীত

ছবি: সংগৃহীত

  • Font increase
  • Font Decrease

২০২১-২২ মৌসুমে ইংলিশ প্রিমিয়ার লিগের তালিকায় তিনে থেকে মৌসুম শেষ করেছিল চেলসি। তবে গত মৌসুমসহ চলতি মৌসুমে যেন পুরোদস্তুর ছন্নছাড়া লন্ডনের এই ক্লাবটি। গত মৌসুম শেষে লিগ টেবিলে চেলসির অবস্থান ছিল ১২তম এবারও অনেকটা একই পথেই হাটছে তারা। মৌসুমে এই পর্যায়ে ১১তম অবস্থানে মরিসিও পচেত্তিনোর দল।

এদিকে লিগে চলমান ব্যর্থতা ছাড়াও লিগ কাপেও শিরোপা হাতছাড়া করে চেলসি। কারাবাও কাপ না পরিচিত টুর্নামেন্টটির ফাইনালে গত রোববার লিভারপুলের কাছে ১-০ গোলে হারে তারা। এতে কোচ পচেত্তিনোর ওপর চাপটা যে অনেকটাই বেড়েছে তা সহসাই বলায় যায়। কেননা সবশেষ অবস্থার বিচারে কোচ ভালো পারফর্ম না করলেই তাকে দ্রুত ছাঁটাইয়ের নজিরে যেন সবার ওপরে লন্ডনের এই ক্লাবটি। 

গত ২ বছরে মোট চারটি কোচ পাল্টেছে চেলসি। গত বছরের মে মাসের শেষের দিকে দুই মাস দায়িত্ব পালনের পর ছাঁটাই হন ক্লাবের ঘরের ছেলে ফ্রাঙ্ক ল্যাম্পার্ড। এরপরে ১ জুলাই দায়িত্বে আসেন আর্জেন্টাইন কোচ পচেত্তিনো। তবে কি চলমান ব্যর্থতার জের ধরে আবারও কোচ বদলের পথে হাঁটছে চেলসি? এমন কিছু তৈরি হওয়ার আগেই যেন নড়েচড়ে বসলেন পচেত্তিনো। জানালেন, ক্লাব সফলতা ফিরিয়ে আনতে প্রয়োজন সময়। এবং তার জন্য মালিকদের ধৈর্য ধরতেও বললেন তিনি।  

এসব নিয়ে এক সংবাদ সম্মেলনে সাংবাদিকদের সঙ্গে আলাপকালে পচেত্তিনো বলেন, ‘গত আট মাসে ক্লাব কর্মীদের সঙ্গে ভালো একটি বন্ধন তৈরি হয়েছে। যখন খেলোয়াড়রা আমরা যেভাবে কাজ করছি তাতে বিশ্বাস রাখে, তখন কিছুটা সময় লাগেই।’

মালিকদের ধৈর্য ধরা প্রসঙ্গে তিনি আরও বলেন, ’ম্যাচ জেতার জন্য আমাদের সময় এবং ধৈর্য দুটিই প্রয়োজন। এবং সেটি চালিয়ে যাওয়ার সম্ভাবনা তৈরি করে সুযোগ দেওয়ার জন্য প্রয়োজন মালিকদের  ধৈর্য।’

যদিও মালিকপক্ষ থেকে সেই সুযোগ পাওয়ার সম্ভাবনা অনুভব করছেন বলেও জানান পচেত্তিনো। এবং এবারের সিদ্ধান্ত ক্লাব তাড়াহুড়ো করবে না বলেও আশ্বাস রাখছেন তিনি। 

এফএ কাপের পঞ্চম রাউন্ডের ম্যাচে দ্বিতীয়সারির ক্লাব লিডস ইউনাইটেডের বিপক্ষে আজ (বুধবার) মাঠে নামবে চেলসি।

;