পটুয়াখালীতে বিপন্ন প্রজাতির ছোট খাটাশ উদ্ধার 



ডিস্ট্রিক্ট করেসপন্ডেট, বার্তা ২৪.কম, পটুয়াখালী
ছবি: সংগৃহীত

ছবি: সংগৃহীত

  • Font increase
  • Font Decrease

পটুয়াখালীর গলাচিপা থেকে বিপন্ন প্রাণী ছোট খাটাশ বা গন্ধগোকুল (Small Indian Civet) উদ্ধার করা হয়েছে। প্রাণীটিকে স্থানীয় প্রশাসন ও বন বিভাগের মাধ্যমে রাতে সংরক্ষিত বনে অবমুক্ত করা হবে।

এই প্রাণীকে বাংলাদেশের ২০১২ সালের বন্যপ্রাণী (সংরক্ষণ ও নিরাপত্তা) আইনের রক্ষিত বন্যপ্রাণীর তালিকার তফসিল-১ অনুযায়ী এ প্রজাতিটিকে সংরক্ষিত ঘোষণা করা হয়েছে।

শুক্রবার (৮ ডিসেম্বর) সকালে উপজেলার আমখোলা ইউনিয়নের বাশবুনিয়া গ্রামের ধান খেতে জালে পেঁচিয়ে পরলে স্থানীয়রা আটক করে খাঁচা বন্দী করে তাকে।

পরে সাবেক ইউপি সদস্য শাহ আলম স্থানীয় প্রাণী কল্যাণ সংগঠন এনিম্যাল লাভার পটুয়াখালীর সদস্যদের খবর দিলে সংগঠনটির সদস্যরা প্রাণীটিকে উদ্ধার করে হেফাজতে নেন। 

শুক্রবার প্রাণীটিকে গলাচিপা উপজেলা নির্বাহী অফিসারের (ইউএনও) বাংলোতে নিয়ে যাওয়া হয়। প্রাণীটা নিশাচর হওয়ায় রাতে বনে অবমুক্ত করা হবে। 

এনিম্যাল লাভার পটুয়াখালীর সদস্য মোঃ সাগর হাওলাদার সানি বলেন, এরা নিশাচর প্রকৃতির হওয়ার কারণে এদের দিনে সচরাচর দেখা যায়না এবং রাতে খাবারের খোঁজে বের হয়। খাবার হিসেবে এরা প্রায় সব ধরনের ফল, বিভিন্ন ছোট প্রাণী ও পতঙ্গ, তাল-খেজুরের রস খেয়ে থাকে।

এরা গাছে উঠতে পারলেও মাটিতেই শিকার ধরে। এরা ইঁদুর, কাঠবিড়ালী, ছোট পাখি, টিকটিকি, কীটপতঙ্গ ও সেগুলোর লার্ভা খেয়ে থাকে। গৃহস্থের হাঁস-মুরগি চুরি করে। আবাসভূমি ধ্বংস ও হাঁস-মুরগি বাঁচানোর জন্য ব্যাপক নিধনের জন্যই এরা বিপন্ন প্রাণী এখন।

   

ট্রাক-অটোরিকশা শ্রমিকদের হাতাহাতি, ঢাকা-সিলেট মহাসড়ক অবরোধ



স্টাফ করেসপন্ডেন্ট, বার্তা২৪.কম, সিলেট
ছবি: বার্তা২৪.কম

ছবি: বার্তা২৪.কম

  • Font increase
  • Font Decrease

সিলেটে ৫ দফা দাবিতে শ্রমিকদের পরিবহন ধর্মঘট চলছে। এরই মধ্যে সিএনজিচালিত অটোরিকশা  চালক ও পিকআপ ভ্যান চালকদের মধ্যে হাতাহাতি হয়েছে। এ ঘটনায় পিকআপ ভ্যান চালকরা ঢাকা-সিলেট মহাসড়ক অবরোধ করে বিক্ষোভ প্রদর্শন শুরু করেন।

বুধবার (২৮ ফেব্রুয়ারি) দুপুর আড়াইটা থেকে মহাসড়ক অবরোধ করে রাখেন পিকআপ ভ্যান শ্রমিকরা।

এসময় রোগীবাহী অ্যাম্বুলেন্সসহ আটকা পড়েন বিভিন্ন যানবাহনের যাত্রীরা।

;

কুষ্টিয়ায় ফেন্সিডিল ও অস্ত্রসহ নারী আটক    



স্টাফ করেসপন্ডেন্ট, বার্তা২৪.কম, কুষ্টিয়া
ছবি: বার্তা ২৪

ছবি: বার্তা ২৪

  • Font increase
  • Font Decrease

কুষ্টিয়ায় র‌্যাব-১২ এর অভিযানে ১ হাজার ৯৩৬ বোতল ফেন্সিডিল, একটি বিদেশি পিস্তল ও ৮ রাউন্ড গুলি এবং মাদক বিক্রির নগদ ৯৯ হাজার টাকাসহ শেফালী খাতুন (৫০) নামে একজন নারীকে আটক করেছে র‌্যাব-১২।

মঙ্গলবার (২৭ ফেব্রুয়ারি) দৌলতপুর উপজেলার চিলমারী ইউনিয়নের খাজিরাথাক গ্রামে অভিযান পরিচালনার সময়ে তাকে আটক করা হয়।

আটককৃত মাদক সম্রাজ্ঞী শেফালী খাতুন দৌলতপুর উপজেলার চিলমারী ইউনিয়নের খাজিরাথাক গ্রামের ওমর বেপারীর স্ত্রী। 


বুধবার (২৮ ফেব্রুয়ারি) দুপুরে সকালের দিকে কুষ্টিয়া র‌্যাপিড এ্যাকশন ব্যাটালিন-১২ কোম্পানী কমান্ডারের কার্যালয়ে সাংবাদিকদের সাথে বিশেষ প্রেস বিজ্ঞপ্তির মাধ্যমে এ তথ্য নিশ্চিত করেন কোম্পানী কমান্ডার এম আবুল হাশেম সবুজ।

এসময় তিনি বলেন, আটককৃত নারী দীর্ঘদিন যাবৎ পারিবারিকভাবে মাদক ব্যবসা করে আসছিলেন এবং মাদক ব্যবসার কাজে দেশীয় অস্ত্রের পাশাপাশি বিদেশি আগ্নেয়াস্ত্র ব্যবহার করছিলেন। ঐ নারী কুষ্টিয়া পাবনা এবং রাজশাহী জেলার বিভিন্ন থানায় অভিনব কায়দায় মাদক বিক্রি করে আসছিলেন।

;

রাজধানীতে চার হাসপাতালে দালালচক্রের ৪২ জন গ্রেফতার



স্টাফ করেসপন্ডেন্ট, বার্তা২৪.কম
ছবি: বার্তা ২৪.কম

ছবি: বার্তা ২৪.কম

  • Font increase
  • Font Decrease

রাজধানীর সরকাারি হাসপাতাল কেন্দ্রীক গড়ে ওঠা দালালচক্র নির্মূলের অভিযানে নেমেছে র‍‍্যাপিড অ্যাকশন ব্যাটালিয়ন (র‍‍্যাব)। বুধবার (২৮ ফেব্রুয়ারি) সকাল থেকে রাজধানীর শেরে বাংলা নগর থানা এলাকায় ৪টি হাসপাতালে শুরু হওয়া অভিযানে নারী ও পুরুষ মিলিয়ে মোট ৪২ জন দালালকে গ্রেফতার করেছে র‍্যাব।

অভিযান শেষে শহীদ সোহরাওয়ার্দী মেডিকেল কলেজ হাসপাতালে এক ব্রিফিংয়ে র‌্যাব-২ এর উপ-অধিনায়ক মেজর মোহাম্মদ নাজমুল্লাহেল ওয়াদুদ এ তথ্য জানান।

নাজমুল্লাহেল ওয়াদুদ বলেন, র‍্যাব দেশজুড়ে অনিয়ম রোধে কাজ করে যাচ্ছে। তার ধারাবাহিকতায় শহীদ সোহরাওয়ার্দী হাসপাতাল, হৃদরোগ হাসপাতাল, পঙ্গু হাসপাতাল ও শিশু হাসপাতালে র‍্যাব ২ এর পক্ষ থেকে অভিযান চালানো হয়। অভিযানের মূল্য উদ্দেশ্য দালাল নির্মূল করা।

তিনি বলেন, দালাল চক্রের মাধ্যমে দেশের বিভিন্ন জায়গা থেকে আগত হাসপাতালে রোগীদের হয়রানি করা হয়। আমরা জানতে পেরেছি রোগীরা যখন হাসপাতালে প্রবেশ করেন তখন দালালরা তাদের টার্গেট করেন এবং পিছু নেন। রোগীদের বোঝানো হয় যে এখানে ভালো ডাক্তার নেই, চিকিৎসা নেই। এসব বলে তাদেরকে বাইরের প্রাইভেট হাসপাতালে নিয়ে যাওয়া হয়।

তিনি আরো বলেন, এছাড়া রোগীরা যখন ডাক্তার দেখিয়ে চেম্বার থেকে বের হন, তখন এই দালালরা জোর করে প্রেসক্রিপশনটা নিয়ে তার ছবি তোলেন। এসবের ভিডিও ফুটেজ আমরা সংগ্রহ করেছি। দালালরা দেখে যে ডাক্তাররা তাদের টার্গেট দেয়া ওষুধ লিখেছেন কিনা। তারা রোগীদের বাইরে যেসব ডাক্তারদের কাছে নিয়ে যায়, তাতে বিভিন্ন সময়ে ভুল চিকিৎসার ফলে মৃত্যুর মতো ঘটনাও ঘটে। আমরা চাই প্রাইভেট হাসপাতালের এসব দৌরাত্ম বন্ধ হোক এবং সরকারি হাসপাতালের যে এজেন্ডা তা বাস্তবায়ন হোক।

মেজর বলেন, আমরা অভিযান চালিয়ে হৃদরোগ হাসপাতাল থেকে ১২ জন, সোহরাওয়ার্দী হাসপাতাল থেকে ১৮ জন, শিশু হাসপাতাল থেকে ৪ জন ও পঙ্গু হাসপাতাল থেকে ৫ জন দালালকে আটক করেছি। যাদেরকে ইতিমধ্যে বিভিন্ন মেয়াদে সাজা দেয়া হয়েছে। গ্রেফতারকৃতদের সর্বোচ্চ এক মাসের জেল ও সর্বোচ্চ ৫ হাজার টাকা পর্যন্ত জরিমানার আওতায় আনা হয়েছে।

;

সুন্দর সমাজ গড়তে ইসলামিক দলের ঐক্যের বিকল্প নেই: মাইজভান্ডারী



স্টাফ করেসপন্ডেন্ট, বার্তা২৪.কম, কুষ্টিয়া
সুন্দর সমাজ গড়তে ইসলামিক দলের ঐক্যের কোন বিকল্প নাই

সুন্দর সমাজ গড়তে ইসলামিক দলের ঐক্যের কোন বিকল্প নাই

  • Font increase
  • Font Decrease

সুন্দর সমাজ, শান্তি, সুশাসন ও ক্ষমতার ভারসাম্য বজায় রাখার জন্য দেশে সব ইসলামিক দলের ঐক্যের কোনো বিকল্প নেই বলে জানিয়েছেন বাংলাদেশ তরীকত ফেডারেশনের চেয়ারম্যান সৈয়দ নজিবুল বশর মাইজভান্ডারী।

মঙ্গলবার (২৭ ফেব্রুয়ারি) রাতে কুষ্টিয়ার দৌলতপুর উপজেলার বাহিরমাদী রাহমানিয়া দরবার শরিফে আয়োজিত তরীকত সম্মেলনে প্রধান অথিতির বক্তব্যে তিনি এসব বলেন।

তিনি বলেন, বিগত দিনে আমাদেরও ভুল হয়েছে৷ তাই প্রয়োজনে আলোচনা করে, সব ভুল বোঝাবুঝির অবসান ঘটিয়ে, কোরআন সুন্নাহর ভিত্তিতে ঐক্য করতে হবে। তরীকত ফেডারেশন দিনে দিনে আরও শক্তিশালী হচ্ছে এবং আগের মতো সামনেও রাজনীতিতে বড় ভূমিকা পালন করবে। আজকের এই বিশাল জনসভা তার একটি ছোট উদাহরণ।

তিনি আরও বলেন, তরীকত ফেডারেশন ইসলামিক ঐক্যের জন্য কাজ করে যাচ্ছে, এইটাই সময়ের দাবি।

তরীকত সম্মেলনে সভাপতিত্ব করেন বাংলাদেশ তরীকত ফেডারেশন রাজশাহী বিভাগীয় সাংগঠনিক সম্পাদক ও রাহমানিয়া দরবারের প্রতিষ্ঠাতা হাফেজ মৌলানা মোখলেসুর রহমান বাঙালি।

আরও উপস্থিত ছিলেন বাংলাদেশ তরীকত ফেডারেশনের মুখপাত্র ও যুগ্ম মহাসচিব মোহাম্মদ আলী ফারুকী, বাঘা পৌরসভার মেয়র আক্কাস আলী, তরীকত ফেডারেশন কুষ্টিয়া জেলা কমিটির সভাপতি আমিরুল ইসলাম বাবলু, কুষ্টিয়া সরকারি কলেজের প্রভাষক শাহরিয়ার হোসেন সাজুসহ এলাকার মুক্তিযোদ্ধা ও আলেম-উলামা বৃন্দ।

;