সেনেগালে নির্বাচন স্থগিতের ঘোষণায় বিরোধীদের বিক্ষোভ - গ্রেফতার



আন্তর্জাতিক ডেস্ক, বার্তা২৪.কম
ছবি: সংগৃহীত

ছবি: সংগৃহীত

  • Font increase
  • Font Decrease

সেনেগালে নির্বাচনী প্রক্রিয়া নিয়ে চলমান বিতর্কের মধ্যেই আসন্ন ২৫ ফেব্রুয়ারির প্রেসিডেন্ট নির্বাচন স্থগিত করেছেন রাষ্ট্রপতি ম্যাকি সল। বিরোধী সমর্থকরা সেনেগালে গণতন্ত্র রক্ষা এবং যথাসময়ে নির্বাচনের দাবিতে রাজধানী ডাকারে সমাবেশ করেন।

এই সমাবেশে ম্যাকি সলের সিদ্ধান্তের প্রতিবাদ করায় পুলিশ কাঁদুনে গ্যাস ছুঁড়ে এবং বহু নেতাকর্মী গ্রেফতার-আটকের ঘটনা ঘটে। গ্রেফতারকৃতদের মধ্যে ছিলেন সাবেক প্রধানমন্ত্রী আমিনাতা তোরে, সেইসাথে স্থগিত ভোটের অন্যতম প্রার্থী আন্তা বাবাকার এনগম।

সোমবার (৫ ফেব্রুয়ারি) কাতারভিত্তিক সংবাদমাধ্যম আল জাজিরার প্রতিবেদনে এই তথ্য জানানো হয়েছে।

প্রতিবেদনে বলা হয়, রাষ্ট্রপতি নির্বাচনের নেতৃস্থানীয় বিরোধী ব্যক্তিত্ব এবং প্রার্থীরা শনিবারের সেই ভোট বিলম্বিত করার ঘোষণা প্রত্যাখ্যান করেন এবং বিক্ষোভ সমাবেশ করেন। এ সময় বেসরকারি ও সরকারি সকল টেলিভিশন চ্যানেল ও সরাসরি সম্প্রচার মাধ্যমের সিগন্যাল কেটে দেওয়া হয়। নিউইয়র্ক ভিত্তিক অলাভজনক কমিটি টু প্রটেক্ট জার্নালিস্ট সোশ্যাল মিডিয়া প্ল্যাটফর্ম এক্স-এ একটি পোস্টে এই পদক্ষেপের নিন্দা করেছে। সাংবাদিকদের কোনো বাধা ছাড়াই কাজ করতে পারার নিশ্চিয়তা দেওয়ার জন্য সেনেগালি কর্তৃপক্ষকে অনুরোধ করেছে সংস্থাটি।

এর আগে শনিবার (৩ ফেব্রুয়ারি) জাতির উদ্দেশে দেওয়া এক টেলিভিশন ভাষণে সেনেগালে অনুষ্ঠিতব্য ২৫ ফেব্রুয়ারির প্রেসিডেন্ট নির্বাচন স্থগিত করেছেন দেশটির  বর্তমান প্রেসিডেন্ট মাকাই সল। তবে কত দিন নির্বাচন স্থগিত থাকবে, তা সুনির্দিষ্ট করে উল্লেখ করেননি তিনি।

কিছু বিরোধী দল ও নাগরিক সমাজের সংগঠনগুলো একে ‘ইনস্টিটিউশনাল ক্যু’ হিসেবে আখ্যা দিয়েছে। একটি বিরোধী জোট প্রেসিডেন্টের এই পদক্ষেপের বিরুদ্ধে আদালতে যাওয়ার ঘোষণাও দিয়েছিল।

উল্লেখ্য জানুয়ারিতে সেনেগালের সাংবিধানিক পরিষদ নির্বাচনী তালিকা থেকে কয়েক বিশিষ্ট প্রতিদ্বন্দ্বীকে বাদ দেওয়ার সিদ্ধান্ত নেয়। এতে নির্বাচনী প্রক্রিয়া নিয়ে অসন্তোষ তৈরি হয়। শুক্রবার বিরোধী দল সেনেগালিজ ডেমোক্রেটিক পার্টির (পিডিএস) পক্ষ থেকে নির্বাচন স্থগিতের আবেদন জানানো হয়। কারণ, ওই দলের প্রার্থী করিম ওয়াদেকেও নির্বাচনী তালিকা থেকে বাদ দেওয়া হয়েছে। সেনেগালের প্রেসিডেন্ট নির্বাচনের জন্য নতুন কোনো তারিখ ঘোষণা করেননি।

এর আগে সেনেগালে কখনও প্রেসিডেন্ট নির্বাচন স্থগিত করার ঘটনা ঘটেনি। ডাকারের চিখ আন্তা দিওপ বিশ্ববিদ্যালয়ের আইন বিভাগের অধ্যাপক নোডিয়াক ফল বলেন, আগামী ২ এপ্রিল প্রেসিডেন্ট মাকাই সলের মেয়াদ শেষ হতে যাচ্ছে। তবে সংবিধান অনুযায়ী, নির্বাচন না হওয়া পর্যন্ত তাকেই প্রেসিডেন্টের দায়িত্ব পালন করতে হবে।

বিরোধী দলের প্রার্থী খলিফা সল বলেছেন, ২ এপ্রিলের পর তিনি আর মাকাই সলকে প্রেসিডেন্ট হিসেবে মেনে নেবেন না। একে প্রাতিষ্ঠানিক ক্যু আখ্যা দিয়ে তিনি বলেছেন, এ ব্যাপারে আদালতের শরণাপন্ন হবেন। এক সংবাদ সম্মেলনে খলিফা সল বলেন, ‘আমাদের দেশ ও গণতন্ত্রের জন্য আজ আমাদের বেদনা ও দুঃখ হচ্ছে।’

   

রণতরী বিক্রান্তের জন্য ২৬টি রাফায়েল কিনবে ভারত



আন্তর্জাতিক ডেস্ক বার্তা২৪.কম
ছবি : সংগৃহীত

ছবি : সংগৃহীত

  • Font increase
  • Font Decrease

ভারতের প্রথম বিমানবাহী রণতরী আইএনএস বিক্রান্তের জন্য ২৬টি রাফায়েল যুদ্ধবিমান কেনার জন্য চলতি সপ্তাহেই ফ্রান্সের সঙ্গে বাণিজ্যিক আলোচনা শুরু করতে যাচ্ছে নয়াদিল্লি।

হিন্দুস্তান টাইমস জানিয়েছে, ২৬টি রাফায়েল কেনার জন্য প্রায় ৫০ হাজার কোটি রুপির চুক্তি হতে পারে বলে মনে ধারণা করা হচ্ছে।

নাম প্রকাশে অনিচ্ছুক এক সামরিক কর্মকর্তা এ বিষয়ে জানিয়েছেন, ফ্রান্সের একটি প্রতিনিধি দল ভারতে আসবে আগামী ৩০ মে। সেদিন থেকেই এই যুদ্ধবিমান কেনার জন্য দুই পক্ষের মধ্যে আলোচনা শুরু হবে বলে আশা করা হচ্ছে।

এর আগে ২০২৩ সালের জুলাই মাসে ভারতের প্রতিরক্ষামন্ত্রী রাজনাথ সিংয়ের নেতৃত্বে ভারতের প্রতিরক্ষা অধিগ্রহণ কাউন্সিল ভারতীয় নৌবাহিনীর জন্য ২৬টি রাফায়েল এম যুদ্ধবিমান কেনার প্রস্তাব অনুমোদন করেছিল এবং ভারতের টেন্ডারে গত ডিসেম্বরে সাড়া দিয়েছিল ফ্রান্স।

অন্যদিকে ফ্রান্সের কাছ থেকে রাফায়েল কেনার পাশাপাশি ফ্রান্স সরকারের কাছ থেকে অস্ত্র, সিমুলেটর, খুচরো যন্ত্রপাতি, সংশ্লিষ্ট আনুষঙ্গিক সরঞ্জাম, ক্রু প্রশিক্ষণ এবং ভারতীয় নৌবাহিনীর জন্য লজিস্টিক সাপোর্ট কেনার চুক্তিও হবে বলে জানা গেছে।

এর আগে প্রতিরক্ষা মন্ত্রণালয়ের পক্ষ থেকে জানানো হয়েছিল, যতক্ষণ না ভারত নিজস্ব টুইন ইঞ্জিন ডেক-বেসড ফাইটার তৈরি করছে, ততক্ষণ পর্যন্ত নৌবাহিনীর প্রয়োজন মেটাতে অন্তর্বর্তীকালীন ব্যবস্থা হিসাবে রাফায়েল এম আমদানি করা হবে।

এদিকে ভারতে তৈরি প্রথম টুইন-ইঞ্জিন ডেক-বেসড ফাইটারের প্রোটোটাইপটি ২০২৬ সালের মধ্যে আকাশে উড়তে পারবে বলে আশা করা হচ্ছে। এই মুহূর্তে ভারতীয় বিমান বাহিনীর কাছে রয়েছে ৩৬টি অত্যাধুনিক রাফায়েল। ২০১৬ সালেই ফ্রান্স সরকারের সঙ্গে রাফায়েল চুক্তি করেছিল ভারত সরকার।

উল্লেখ্য, মোদির শাসনামলের প্রথম পাঁচ বছরে রাফায়েল নিয়ে প্রচুর বিতর্ক হয়েছে। কংগ্রেসের দাবি ছিল, ভারত সরকার অনেক বেশি টাকা দিচ্ছে এই ফাইটার জেটের জন্য। তারা অনেক কমে এই চুক্তি করে ফেলেছিল বলে দাবি কংগ্রেসের।

অন্যদিকে, বিজেপির পালটা দাবি ছিল কংগ্রেস কখনও এই চুক্তি সংক্রান্ত পাকা কথা বলেনি।

;

বিশ্বে প্রথম কাঠের স্যাটেলাইট তৈরি করলো জাপান



ziaulziaa
ছবি : সংগৃহীত

ছবি : সংগৃহীত

  • Font increase
  • Font Decrease

বিশ্বের প্রথম কাঠের স্যাটেলাইট তৈরি করেছেন জাপানি গবেষকরা। তারা বলেছেন, তাদের এই কাঠের স্যাটেলাইট আগামী সেপ্টেম্বরে স্পেসএক্স থেকে উৎক্ষেপণ করা হবে।

রয়টার্স জানিয়েছে, কিয়োটো ইউনিভার্সিটি এবং লগিং কোম্পানি সুমিটোমো ফরেস্ট্রির বিজ্ঞানীদের দ্বারা তৈরি পরীক্ষামূলক এই স্যাটেলাইটটির প্রতিটি পাশের দৈর্ঘ্য মাত্র ১০ সেন্টিমিটার।

নির্মাতারা আশা করছেন যে, যখন ডিভাইসটি বায়ুমন্ডলে পুনরায় প্রবেশ করবে তখন কাঠের উপাদান সম্পূর্ণরূপে পুড়ে যাবে। এর ফলে স্যাটেলাইটটি পৃথিবীতে ফিরে আসার সময় ধাতব কণা তৈরি হওয়া এড়াতে পারবে।

এই ধাতব কণাগুলো পরিবেশ এবং টেলিযোগাযোগের ওপর নেতিবাচক প্রভাব ফেলে থাকে।

কিয়োটো ইউনিভার্সিটির একজন মহাকাশচারী এবং বিশেষ অধ্যাপক তাকাও দোই এক সংবাদ সম্মেলনে বলেন, ‘ধাতু দিয়ে তৈরি নয় এমন স্যাটেলাইটকে মূলধারায় নিয়ে আসা উচিত।’

নির্মাতারা আগামী সপ্তাহে ম্যাগনোলিয়া কাঠ থেকে তৈরি লিগনোস্যাট নামের স্যাটেলাইটটি মহাকাশ সংস্থা জেএএক্সএ-এর কাছে হস্তান্তর করার পরিকল্পনা করছেন।

তারা বলেছেন, এটি সেপ্টেম্বরে কেনেডি স্পেস সেন্টার থেকে একটি স্পেসএক্স রকেটে মহাকাশে পাঠানো হবে। সেখানে আন্তর্জাতিক মহাকাশ স্টেশনের (আইএসএস) মাধ্যমে স্যাটেলাইটটির শক্তি এবং স্থায়িত্ব পরীক্ষা করা হবে।

সুমিতোমো ফরেস্ট্রির একজন মুখপাত্র বুধবার (২৯ মে) এএফপিকে বলেন, ‘স্যাটেলাইট থেকে গবেষকদের কাছে ডাটা পাঠানো হবে।’

;

কংগ্রেসের সঙ্গে চিরস্থায়ী জোট করিনি : কেজরিওয়াল



আন্তর্জাতিক ডেস্ক বার্তা২৪.কম
ছবি : সংগৃহীত

ছবি : সংগৃহীত

  • Font increase
  • Font Decrease

কংগ্রেসের সঙ্গে আম আদমি পার্টির (আপ) সমঝোতা কোনও স্থায়ী বিষয় নয় বলে মন্তব্য করেছেন দিল্লির মুখ্যমন্ত্রী অরবিন্দ কেজরিওয়াল।

এনডিটিভি জানিয়েছে, একটি সংবাদমাধ্যমকে দেওয়া সাক্ষাৎকারে আপ প্রধান বলেন, ‘আমাদের প্রধান লক্ষ্য এবারের লোকসভা নির্বাচনে বিজেপিকে হারানো। বিজেপির স্বৈরাচারী, জুলুমবাজির শাসনের অবসান ঘটানো। তাই আমরা কংগ্রেসের সঙ্গে সমঝোতা করেছি।’

এরপরই লোকসভা নির্বাচনের পরে দুই দলের সম্পর্ক নতুন মোড় নিতে পারে বলে এর পরে ইঙ্গিত দেন তিনি।

তিনি বলেন, ‘আমরা কংগ্রেসের সঙ্গে চিরস্থায়ী গাঁটছড়া বাঁধিনি।’ তবে লোকসভা নির্বাচনে বিজেপি বিরোধী জোট ‘ইন্ডিয়া’ জয়ী হবে দাবি করে ইন্ডিয়া টুডে-কে দেওয়া সাক্ষাৎকারে কেজরিওয়াল বলেন, ‘আগামী ৪ জুন বড় চমক অপেক্ষা করছে।’

লোকসভা নির্বাচনে বিজেপির পরাজয়ের দাবি করলেও বিরোধী জোটের সরকারের স্বরূপ সম্পর্কে কোনও মন্তব্য করেননি আপ প্রধান।

প্রসঙ্গত, লোকসভা নির্বাচনে বিজেপি শাসিত গুজরাট, গোয়া, হরিয়ানা এবং আপ শাসিত দিল্লিতে কংগ্রেসের সঙ্গে আসন সমঝোতা করেছে আম আদমি পার্টি। চণ্ডীগড়েও এই দুই দল লড়ছে একসঙ্গে।

কিন্তু, আপ শাসিত আরেক রাজ্য পাঞ্জাবে এই দুই দল পরস্পরের প্রতিদ্বন্দ্বী। এ প্রসঙ্গে কেজরিওয়াল জানান, রাজ্যভিত্তিক রাজনৈতিক পরিস্থিতি বিশ্লেষণ করেই তারা এই পদক্ষেপ নিয়েছেন। তিনি বলেন, ‘পঞ্জাবে বিজেপির কোনও অস্তিত্বই নেই।’

লোকসভা নির্বাচনে বিজেপি জয়ী হলে নরেন্দ্র মোদি-অমিত শাহ জুটি উত্তর প্রদেশের মুখ্যমন্ত্রী যোগী আদিত্যনাথের রাজনৈতিক ভবিষ্যতের উপর আঘাত হানবে বলেও দাবি করেন তিনি।

;

সাবেক দেহরক্ষীকে স্টেট কাউন্সিলের প্রধান হিসাবে নিয়োগ দিলেন পুতিন



আন্তর্জাতিক ডেস্ক বার্তা২৪.কম
ছবি : সংগৃহীত

ছবি : সংগৃহীত

  • Font increase
  • Font Decrease

আলেক্সি ডিউমিন নামের এক সহযোগী এবং সাবেক দেহরক্ষীকে রাশিয়ার স্টেট কাউন্সিলের সেক্রেটারি (প্রধান) হিসাবে নিযুক্ত করেছেন দেশটির প্রেসিডেন্ট ভ্লাদিমির পুতিন।

রয়টার্সকে বুধবার (২৯ মে) এ খবর নিশ্চিত করে ক্রেমলিন জানিয়েছে, স্টেট কাউন্সিল হলো রাশিয়ার রাষ্ট্রপ্রধানের একটি উপদেষ্টা সংস্থা।

চলতি বছরের শুরুতে আরও ছয় বছরের মেয়াদের জন্য পুনর্নির্বাচিত হওয়ার পরে ডিউমিনকে প্রতিরক্ষা শিল্পে সহকারী বিশেষজ্ঞ বানিয়েছিলেন পুতিন।

ক্রেমলিনের ওয়েবসাইটে বুধবার সকালে পুতিনের স্বাক্ষরিত একটি ডিক্রি থেকে আলেক্সি ডিউমিনের নতুন এই পদে নিয়োগের কথা জানা যায়।

ক্রেমলিনের সাবেক উপদেষ্টা সের্গেই মার্কভ চলতি মাসের শুরুতে বলেছিলেন যে, অনেক রাশিয়ার বিশ্বাস করেন যে, ডিউমিনকে তার উত্তরসূরি হিসাবে দেখেন পুতিন।

৭১ বছর বয়সি পুতিন নতুন করে ছয় বছরের মেয়াদ শুরু করছেন এবং তিনি ভবিষ্যতে কাকে তার স্থলাভিষিক্ত করতে পারেন সে সম্পর্কে কোনও নির্ভরযোগ্য তথ্য কারো কাছেই নেই।

তবে, এক্ষেত্রে অনেকের মধ্যে ডিউমিনের নাম দীর্ঘদিন ধরেই মস্কোর রাজনৈতিক অভিজাতদের মধ্যে গুঞ্জনের বিষয়।

রাশিয়ার তুলা অঞ্চলের আঞ্চলিক গভর্নর হিসেবে দায়িত্ব পালন করার পর চলতি মাসের শুরুর দিকে ৫১ বছর বয়সি ডিউমিনকে ক্রেমলিনে নিয়ে আসা হয়।

ডিউমিন ১৯৯৫ সালে রাশিয়ার ফেডারেল গার্ডস সার্ভিসে (এফএসও) প্রবেশ করেন। তিনি জিআরইউ (রাশিয়ান মিলিটারি ইন্টেলিজেন্স) এর উপপ্রধান হিসেবেও কাজ করেছেন।

;