উইঘুর শিক্ষাবিদকে যাবজ্জীবন কারাদণ্ড দিলো চীন



আন্তর্জাতিক ডেস্ক বার্তা২৪.কম
বিশিষ্ট উইঘুর শিক্ষাবিদ রাহিল দাউত। ছবি : সংগৃহীত

বিশিষ্ট উইঘুর শিক্ষাবিদ রাহিল দাউত। ছবি : সংগৃহীত

  • Font increase
  • Font Decrease

রাষ্ট্রীয় নিরাপত্তা বিপন্ন করার দায়ে বিশিষ্ট উইঘুর শিক্ষাবিদ রাহিল দাউতকে যাবজ্জীবন কারাদণ্ড দিয়েছে চীন।

বিবিসি জানিয়েছে, যুক্তরাষ্ট্রভিত্তিক মানবাধিকার গ্রুপ ডুই হুয়া ফাউন্ডেশন অনুসারে, রাহিল দাউতের সাজা নিশ্চিত করা হয়েছে। তিনি ২০১৮ সালে ওই রায়ের বিরুদ্ধে আপিল করেছিলেন।

চলতি মাসে ৫৭ বছর বয়সি এই অধ্যাপকের আপিল আবেদন খারিজ করে আদালত।

প্রসঙ্গত, চীনের বিরুদ্ধে উইঘুর জনসংখ্যা এবং জিনজিয়াংয়ের অন্যান্য মুসলিম জাতিগোষ্ঠীর বিরুদ্ধে মানবতাবিরোধী অপরাধের অভিযোগ রয়েছে।

মানবাধিকার গোষ্ঠীগুলো বিশ্বাস করে যে, চীন গত কয়েক বছরে তাদের দশ লাখেরও বেশি উইঘুরকে আটক করেছে।

চীন এরই মধ্যে কয়েক হাজার মানুষকে নানা মেয়াদে কারাদণ্ড দিয়েছে।

ডুই হুয়া ফাউন্ডেশনের নির্বাহী পরিচালক জন কাম বলেছেন, প্রফেসর রাহিল দাউতের শাস্তি একটি নিষ্ঠুর ট্র্যাজেডি। এটি উইঘুর জনগণের জন্য একটি বড় ক্ষতি।

রাহিল দাউতের অবিলম্বে মুক্তি এবং তার পরিবারের কাছে নিরাপদে ফিরে আসার আহ্বান জানিয়েছেন জন কাম।

তার মেয়ে আকেদা পুলতি জানান, তিনি তার মাকে নিয়ে ভীষণ চিন্তিত।

ডুই হুয়া কর্তৃক প্রকাশিত এক বিবৃতিতে তিনি বলেছেন, ‘আমার নিরপরাধ মায়ের কারাগারে জীবন কাটানোর চিন্তা তার জন্য অসহনীয় যন্ত্রণা নিয়ে আসে। চীন, তোমার করুণা দেখাও এবং আমার নির্দোষ মাকে মুক্তি দাও।’

রাষ্ট্রীয় নিরাপত্তা বিপন্ন করার অপরাধে তাকে ২০১৭ সালে গ্রেপ্তারের পর ২০১৮ সালের ডিসেম্বরে জিনজিয়াংয়ের একটি আদালতে দাউতের গোপন বিচার সম্পন্ন করে।

চীন সরকারের একটি সূত্র ডুই হুয়াকে যাবজ্জীবন কারাদণ্ডের সাজা নিশ্চিত করেছে।

দাউত উইঘুর লোককাহিনী ও ঐতিহ্যের একজন বিশেষজ্ঞ এবং গ্রেপ্তারের আগে জিনজিয়াং ইউনিভার্সিটি কলেজ অফ হিউম্যানিটিজে শিক্ষকতা করছিলেন।

তিনি ২০০৭ সালে বিশ্ববিদ্যালয়ের জাতিগত সংখ্যালঘু গবেষণা কেন্দ্র প্রতিষ্ঠা করেন এবং জিনজিয়াংজুড়ে মাঠপর্যায়ে কাজ পরিচালনা করেন।

তিনি হার্ভার্ড এবং কেমব্রিজসহ যুক্তরাষ্ট্র এবং যুক্তরাজ্যের বিশ্ববিদ্যালয়গুলোতেও বক্তৃতা করেছেন।

ডুই হুয়া জানিয়েছে, দাউত উইঘুর বুদ্ধিজীবীদের দীর্ঘ এবং ক্রমবর্ধমান তালিকার মধ্যে একজন ছিলেন, যারা ২০১৬ সাল থেকে আটক, গ্রেপ্তার হয়ে কারাগারে রয়েছেন।

জিনজিয়াংয়ে গণহত্যার জন্য চীনকে অভিযুক্ত করেছে এমন কয়েকটি দেশের মধ্যে যুক্তরাষ্ট্রও রয়েছে। শীর্ষস্থানীয় মানবাধিকার সংগঠন অ্যামনেস্টি এবং হিউম্যান রাইটস ওয়াচ চীনকে মানবতাবিরোধী অপরাধের জন্য অভিযুক্ত করেছে।

যদিও ওসব অভিযোগ বরাবরই অস্বীকার করেছে চীন।

চীনের পররাষ্ট্র মন্ত্রণালয়ের মুখপাত্র মাও নিং শুক্রবার এপিকে বলেছেন, দাউতের মামলার বিষয়ে তার কাছে কোনও তথ্য নেই।

ভারতের নতুন পররাষ্ট্রসচিব হলেন বিক্রম মিশ্রি



আন্তর্জাতিক ডেস্ক, বার্তা২৪.কম
ছবি: ভারতের নতুন পররাষ্ট্রসচি বিক্রম মিশ্রি

ছবি: ভারতের নতুন পররাষ্ট্রসচি বিক্রম মিশ্রি

  • Font increase
  • Font Decrease

ভারতের কেন্দ্রীয় সরকার নতুন পররাষ্ট্রসচিব হিসেবে বিক্রম মিশ্রিকে নিয়োগ দিয়েছে। চীনে নিযুক্ত সাবেক এই কূটনীতিককে সোমবার (১৬ জুলাই) ভারতের নতুন পররাষ্ট্রসচিব হিসেবে নিয়োগ দেওয়া হয়েছে।

ইন্ডিয়ান এক্সেপ্রেসের এক প্রতিবেদনে বলা হয়েছে, রোববার অবসরে যাওয়া পররাষ্ট্রসচিব বিনয় মোহন কোয়াত্রার স্থলাভিষিক্ত হিসেবে চীন বিশেষজ্ঞ হিসেবে পরিচিত দক্ষ কূটনীতিক বিক্রম মিশ্রি নিয়োগ পেয়েছেন।

আগামী ২০২৬ সালের জুলাইয়ের শেষ পর্যন্ত দুই বছরের মেয়াদের জন্য তাকে নতুন এই দায়িত্ব দেওয়া হয়েছে।

ভারতের ১৯৮৯ ব্যাচের ভারতীয় পররাষ্ট্র দপ্তরের কর্মকর্তা বিক্রম মিশ্রি। বিনয় মোহন কোয়াত্রার মেয়াদ শেষ হওয়ার পর ভারতের বিজেপি নেতৃত্বাধীন সরকারের কাছে বিক্রম মিশ্রির নাম সুপারিশ করেছিল দেশটির পররাষ্ট্র মন্ত্রণালয়। এরপর নিয়োগ কমিটি সেই সুপারিশ মেনে কোয়াত্রার উত্তরসূরি হিসাবে বিক্রমকে নিয়োগ দেয়।

রোববার ভারতের পররাষ্ট্রনীতি ও জাতীয় নিরাপত্তায় উল্লেখযোগ্য অবদানের জন্য কোয়াত্রাকে ধন্যবাদ জানিয়ে আনুষ্ঠানিকভাবে বিদায় জানান পররাষ্ট্রমন্ত্রী এস জয়শংকর। একই সঙ্গে সোমবার পররাষ্ট্রসচিবের কার্যালয়ে বিক্রম মিশ্রিকে অভিনন্দনও জানান তিনি।

এর আগে, ২০১৯ থেকে ২০২১ সাল পর্যন্ত চীনে ভারতের রাষ্ট্রদূত হিসেবে নিযুক্ত ছিলেন বিক্রম মিশ্রি। ফলে বেইজিংয়ের অভ্যন্তরীণ রাজনীতি, কূটনীতিসহ বিভিন্ন বিষয় তার নখদর্পণে। ২০২০ সালের ১৫ জুন গালওয়ান উপত্যকায় ভারত ও চীনের সামরিক বাহিনীর সদস্যদের মাঝে প্রাণঘাতী সংঘাত হয়। রক্তক্ষয়ী সেই সংঘর্ষে ভারতীয় ২০ সৈন্যের প্রাণহানি ঘিরে দুই দেশের সম্পর্কে ব্যাপক উত্তেজনা তৈরি হয়। সেসময় উত্তেজনা হ্রাসে দিল্লি ও বেইজিংকে আলোচনার টেবিলে বসানোর ক্ষেত্রে গুরুত্বপূর্ণ ভূমিকা পালন করেছিলেন বিক্রম মিশ্রি।

২০২২ সালের ১ জানুয়ারি চীন বিশেষজ্ঞ বিক্রমকে ভারতের উপ-জাতীয় নিরাপত্তা উপদেষ্টার সহকারী হিসেবে নিয়োগ দেওয়া হয়। গত ১৪ জুলাই পর্যন্ত এই পদে দায়িত্ব পালন করেন তিনি। কর্মজীবনে আরও নানা গুরুত্বপূর্ণ পদে দেখা গেছে বিক্রমকে। ১৯৯৭ সালে তৎকালীন প্রধানমন্ত্রী ইন্দর কুমার গুজরাল, ২০১২ সালে মনমোহন সিং ও ২০১৪ সালে নরেন্দ্র মোদির ব্যক্তিগত সচিব হিসেবেও কাজ করেন তিনি।

২০১৪ থেকে ২০১৬ সাল পর্যন্ত স্পেন ও ২০১৬ থেকে ২০১৮ সাল পর্যন্ত মিয়ানমারে ভারতের রাষ্ট্রদূত হিসেবে দায়িত্ব পালন করেন বিক্রম মিশ্রি। এছাড়াও পাকিস্তান, যুক্তরাষ্ট্র, জার্মানি, বেলজিয়াম ও শ্রীলঙ্কায় ভারতের হয়ে বিশেষ প্রোজেক্টেও কাজ করেছেন ৫৯ বছর বয়সী অভিজ্ঞ এই কূটনীতিক।

;

পিটিআই-কে নিষিদ্ধের পথ খুঁজছে সরকার: পাকিস্তানের তথ্যমন্ত্রী



আন্তর্জাতিক ডেস্ক, বার্তা২৪.কম
ছবি: সংগৃহীত, পিটিআই দলের প্রধান ও পাকিস্তানের সাবেক প্রধানমন্ত্রী ইমরান খান

ছবি: সংগৃহীত, পিটিআই দলের প্রধান ও পাকিস্তানের সাবেক প্রধানমন্ত্রী ইমরান খান

  • Font increase
  • Font Decrease

সাবেক প্রধানমন্ত্রী ইমরান খানের দল পাকিস্তান তেহরিক-ই-ইনসাফ (পিটিআই)-কে নিষিদ্ধ করার পথ খুঁজছে সরকার বলে মন্তব্য করেছেন পাকিস্তানের তথ্যমন্ত্রী আতাউল্লাহ তারার।

সোমবার (১৫ জুলাই) মন্ত্রীর বরাত দিয়ে টিআরটি ইন্টারন্যাশনাল এ বিষয়ে একটি খবর প্রকাশ করে।

তিনটি মামলার মধ্যে দুটি মামলার রায়ে পাকিস্তানের সাবেক প্রধানমন্ত্রী ইমরান খান কারাগারে সাজা ভোগ করছেন। আরেকটি মামলার রায় স্থগিত রয়েছে।

তথ্যমন্ত্রী আতাউল্লাহ তারার বলেন, পাকিস্তানের সাবেক প্রধানমন্ত্রী জেলে সাজাভোগকারী ইমরান খানের দল পিটিআইকে নিষিদ্ধের পথ খোঁজা হচ্ছে। তবে তা নির্ভর করছে, রাজনৈতিক অবস্থা কী দাঁড়ায়, তার ওপর।

পাকিস্তানের রাজধানী ইসলামাবাদে সোমবার এক সংবাদ সম্মেলনে তথ্যমন্ত্রী আতাউল্লাহ তারার বলেন, সংসদে অনুমোদন হলেই সরকার সুপ্রিমকোর্টের দারস্থ হবে আইনগতভাবে।

রাজনৈতিক দলকে নিষিদ্ধ করতে হলে এই আইনি বাধ্যবাধকতা আছে বলে মন্তব্য করেন তিনি।

তারার বলেন, পাকিস্তান ও পিটিআই একসঙ্গে উন্নতি করতে পারে না। সাম্প্রতিক প্রমাণাদি সেটিই প্রমাণ করেছে। এ কারণে সরকার পিটিআইকে নিষিদ্ধ করতে চায়। এ বিষয়ে শিগগিরই উদ্যোগ নেওয়া হবে।

তিনি আরো উল্লেখ করে বলেন, ২০২৩ সালের মে মাসে পিটিআই পাকিস্তানের সেনাবাহিনীকে হস্তক্ষেপের আহ্বান জানিয়েছিল। ইমরান খান দুর্নীতির মামলায় গ্রেফতার হয়েছেন।

;

সোমালিয়ায় গাড়িবোমা হামলায় নিহত ৯



আন্তর্জাতিক ডেস্ক, বার্তা২৪.কম
ছবি: সংগৃহীত,  সোমালিয়ায় রোববার রাতে গাড়িবোমা হামলার ঘটনা ঘটে

ছবি: সংগৃহীত, সোমালিয়ায় রোববার রাতে গাড়িবোমা হামলার ঘটনা ঘটে

  • Font increase
  • Font Decrease

আফ্রিকার দেশ সোমালিয়ার রাজধানী মোগাদিসুতে এক গাড়িবোমা হামলায় ৯ জন নিহত হয়েছেন। এ ছাড়া এ ঘটনায় আহত হয়েছেন আরো ২০ জন।

হতাহতরা এ সময় টেলিভিশনের পর্দায় ইউরো-২০২৪ ফুটবল দেখছিলেন।

স্থানীয় সময় রোববার (১৪ জুলাই) রাতে ইউরো-২০২৪ ফুটবল খেলার সময় একটি ক্যাফেটরিয়ার সামনে এ গাড়িবোমা হামলার ঘটনা ঘটে। আল-কায়েদার সঙ্গে সম্পর্কযুক্ত আল-শাবাব এ হামলার দায় স্বীকার করেছে।

সোমবার (১৬ জুলাই) কাতারভিত্তিক টেলিভিশন চ্যানেল আলজাজিরা এ খবর জানায়। খবরে বলা হয়, আল-শাবাবের সঙ্গে যুক্ত একটি রেডিওর খবরে এ হামলার দায় স্বীকার করে গোষ্ঠীটি।

ঘটনার সময় এ ক্যাফেটোরিয়ায় নিরাপত্তা বাহিনী ও সরকারি কর্মচারীরা টেলিভিশনের পর্দায় ফুটবেলা খেলা দেখছিলেন।

সোমালিয়ার জাতীয় নিরাপত্তা বাহিনীর এক কর্মকর্তা মোহাম্মদ ইউনুস জানিয়েছেন, গাড়িবোমা হামলার ঘটনায় মোট ৯ জন নিহত হয়েছেন। যদিও এর আগে রোববার রাতের শেষদিকে কর্তৃপক্ষ ৫ জনের নিহতের কথা জানিয়েছিল।

মোহাম্মদ ইউনুস আরো জানান, হামলার পর অনেকেই মই বেয়ে এবং কেউ কেউ ক্যাফেটোরিয়ার পেছন থেকে লাফিয়ে পড়ে পালিয়ে যান। ফলে আরো প্রাণহানির হাত থেকে রক্ষা পায়।

হামলার পর পরই গাড়ি থেকে ব্যাপক আগুনের স্ফূলিঙ্গ ছুটতে দেখা যায়।

;

হামলার পরও রিপাবলিকান সম্মেলনে যাচ্ছেন ট্রাম্প



আন্তর্জাতিক ডেস্ক, বার্তা২৪.কম
ছবি: সংগৃহীত

ছবি: সংগৃহীত

  • Font increase
  • Font Decrease

নির্বাচনি প্রচারণা সভায় গুলিতে আহত হওয়া সত্ত্বেও দলের জাতীয় সম্মেলনে অংশ নেবেন সাবেক মার্কিন প্রেসিডেন্ট ডোনাল্ড ট্রাম্প। দলটির এবারের জাতীয় কনভেনশন আয়োজন করা হয়েছে দেশটির মধ্য-পশ্চিম অঞ্চলের অঙ্গরাজ্য উইসকনসিনের সবচেয়ে বড় শহর মিলওয়াওকিতে।

সোমবার (১৫ জুলাই) বিবিসির এক প্রতিবেদনে এ তথ্য প্রকাশিত হয়।

প্রতিবেদনে বলা হয়, শনিবার পেনসিলভানিয়ায় নির্বাচনি সভায় বক্তব্য দেওয়ার সময় গুলিবিদ্ধ হন ট্রাম্প। এ সময় তাকে দ্রুত ঘটনাস্থল থেকে সরিয়ে নেওয়া হয়। এদিকে যুক্তরাষ্ট্রের উইসকনসিনের মিলওয়াকিতে ১৫ থেকে ১৮ জুলাই রিপাবলিকান জাতীয় সম্মেলনের আয়োজন করা হয়েছে। গুরুতর আহত হলেও এ সম্মেলনে যোগ দেবেন ট্রাম্প। ইতিমধ্যেই উইসকনসিনে পৌঁছেছেন তিনি। ধারণা করা হচ্ছে, এ সময় ট্রাম্পকে আনুষ্ঠানিকভাবে ৫ নভেম্বরের নির্বাচনের জন্য দলের প্রেসিডেন্ট প্রার্থী হিসাবে ঘোষণা করা হবে। 

এদিকে যুক্তরাষ্ট্রে এখন রোববার মধ্যরাত। আগামীকাল সোমবার স্থানীয় সময় বেলা ১১টায় (বাংলাদেশ সময় রাত ১০টা) তিন দিনব্যাপী এই কনভেনশন শুরু হবে। শেষ হবে আগামী ১৮ জুলাই সন্ধ্যায়। কনভেনশনটি মূলত ফিসার ফোরামে অনুষ্ঠিত হবে, যা উইসকনসিন সেন্টার ডিস্ট্রিক্টে অনুষ্ঠিত অতিরিক্ত ইভেন্টের সাথে চলবে। এরমধ্যে রয়েছে- বেয়ার্ড সেন্টার, মিলার হাই লাইফ থিয়েটার এবং ইউনিভার্সিটি অব উইসকনসিন-মিলওয়াকির (ইউডব্লিউএম) প্যান্থার এলাকা।

এরই মধ্যে স্থানীয় বাসিন্দাদের বাইরে রিপাবলিকান ডেলিগেট, গণমাধ্যমকর্মী, আইন-শৃঙ্খলা রক্ষাকারী বাহিনীর সদস্য এবং দর্শক-ভ্রমণকারী মিলে অন্তত ৫০ হাজার মানুষের সমাগম ঘটেছে শহরটিতে।

লেক মিশিগানের নীল জলরাশি আর অসংখ্য ছোট-বড় পাহাড়-টিলার এই নান্দনিক শহর ইতিমধ্যেই অতিথিদের বরণ করতে সর্বাত্মক প্রস্তুত বলে জানিয়েছেন শহরের ডেমোক্র্যাট মেয়র ক্যাভালিয়ার জনসন।

কনভেনশন সামনে রেখে নিরাপত্তার চাদরে ঢেকে ফেলা হয়েছে মিলওয়াকি।

;