ভারতে ট্রেন দুর্ঘটনায় নিহত বেড়ে ২০৭, আহত ৯০০



আন্তর্জাতিক ডেস্ক, বার্তা২৪.কম, ঢাকা
ছবি: সংগৃহীত

ছবি: সংগৃহীত

  • Font increase
  • Font Decrease

ভারতের পূর্বাঞ্চলীয় ওডিশা রাজ্যে ভয়াবহ ট্রেন দুর্ঘটনায় নিহত বেড়ে ২০৭ জনে দাঁড়িয়েছে। এঘটনায় আহত হয়েছেন ৯০০ জনের বেশি। নিহতের সংখ্যা আরও বাড়তে পারে।

ভারতীয় সংবাদমাধ্যম দ্য হিন্দুর প্রতিবেদনে বলা হয়, শুক্রবার (২ জুন) ওডিশার বালেশ্বরের বাহানাগা বাজার স্টেশনের কাছে দুর্ঘটনার কবলে পড়ে করমণ্ডল এক্সপ্রেস। পশ্চিমবঙ্গের শালিমার থেকে চেন্নাই যাচ্ছিল করমণ্ডল এক্সপ্রেস। পথে ওডিশার বাহানাগা বাজার এলাকা অতিক্রম করার সময় একটি মালবাহী ট্রেনকে পেছন থেকে ধাক্কা দেয় যাত্রীবাহী ট্রেনটি। এতে ৩টি বগি বাদে করমণ্ডল এক্সপ্রেসের সব বগি লাইনচ্যুত হয়।

স্থানীয় সময় সন্ধ্যা সাড়ে ছটায় এই ঘটনার পর উদ্ধার তৎপরতা শুরু হতে পেরিয়ে যায় প্রায় ঘণ্টাখানেক। এতে হতাহতের ঘটনা আরও বাড়ে।

ওডিশার মুখ্য সচিব প্রদীপ জেনা বলেছেন, ঘটনাস্থল বালেশ্বরে ২০০টিরও বেশি অ্যাম্বুলেন্স পাঠানো হয়েছে।

এই শতাব্দীতে এটি ভারতের সবচেয়ে ভয়াবহ ট্রেন দুর্ঘটনা। কর্মকর্তারা বলছেন, মৃতের সংখ্যা আরও বাড়তে পারে বলে আশঙ্কা করা হচ্ছে।

ওড়িশা রাজ্যের বিভিন্ন হাসপাতালে এখনও পর্যন্ত গুরুতর আহত ২০০ জনকে চিকিৎসার জন্য নিয়ে যাওয়া হয়েছে। ‌ লাইনচ্যুত হয়ে যাওয়া ১৫টি বগির মধ্যে এখনও তিনটি এসি কামরা থেকে হতাহতদের উদ্ধার করা সম্ভব হয়নি।

এদিকে ওডিশার ত্রাণবিষয়ক বিশেষ কমিশনার সত্যব্রত সাহু জানিয়েছেন, এখন পর্যন্ত ৪৭ জনকে বালেশ্বর মেডিকেল কলেজ হাসপাতালে ভর্তি করা হয়েছে। আরও ১৩২ জনকে আশপাশের হাসপাতালে ভর্তি করা হয়েছে বলে জানিয়েছেন ওডিশার মুখ্য সচিব প্রদীপ জেনা।

ভয়াবহ ট্রেন দুর্ঘটনার খবরে দুঃখ প্রকাশ করে ভারতের প্রধানমন্ত্রী নরেন্দ্র মোদি টুইটবার্তায় বলেন, ওডিশায় ট্রেন দুর্ঘটনায় আমি মর্মাহত। এই দুঃসময়ে শোকসন্তপ্ত পরিবারের প্রতি সমবেদনা জানাই। আহত ব্যক্তিরা দ্রুত সুস্থ হয়ে উঠুক।

দুর্ঘটনায় নিহতদের প্রত্যেকের পরিবারকে ২ লাখ রুপি দেওয়া হবে বলে ঘোষণা দিয়েছেন মোদি। এ ছাড়া আহতদের ৫০ হাজার রুপি করে সহায়তা দেওয়া হবে।

ভারতের নতুন পররাষ্ট্রসচিব হলেন বিক্রম মিশ্রি



আন্তর্জাতিক ডেস্ক, বার্তা২৪.কম
ছবি: ভারতের নতুন পররাষ্ট্রসচি বিক্রম মিশ্রি

ছবি: ভারতের নতুন পররাষ্ট্রসচি বিক্রম মিশ্রি

  • Font increase
  • Font Decrease

ভারতের কেন্দ্রীয় সরকার নতুন পররাষ্ট্রসচিব হিসেবে বিক্রম মিশ্রিকে নিয়োগ দিয়েছে। চীনে নিযুক্ত সাবেক এই কূটনীতিককে সোমবার (১৬ জুলাই) ভারতের নতুন পররাষ্ট্রসচিব হিসেবে নিয়োগ দেওয়া হয়েছে।

ইন্ডিয়ান এক্সেপ্রেসের এক প্রতিবেদনে বলা হয়েছে, রোববার অবসরে যাওয়া পররাষ্ট্রসচিব বিনয় মোহন কোয়াত্রার স্থলাভিষিক্ত হিসেবে চীন বিশেষজ্ঞ হিসেবে পরিচিত দক্ষ কূটনীতিক বিক্রম মিশ্রি নিয়োগ পেয়েছেন।

আগামী ২০২৬ সালের জুলাইয়ের শেষ পর্যন্ত দুই বছরের মেয়াদের জন্য তাকে নতুন এই দায়িত্ব দেওয়া হয়েছে।

ভারতের ১৯৮৯ ব্যাচের ভারতীয় পররাষ্ট্র দপ্তরের কর্মকর্তা বিক্রম মিশ্রি। বিনয় মোহন কোয়াত্রার মেয়াদ শেষ হওয়ার পর ভারতের বিজেপি নেতৃত্বাধীন সরকারের কাছে বিক্রম মিশ্রির নাম সুপারিশ করেছিল দেশটির পররাষ্ট্র মন্ত্রণালয়। এরপর নিয়োগ কমিটি সেই সুপারিশ মেনে কোয়াত্রার উত্তরসূরি হিসাবে বিক্রমকে নিয়োগ দেয়।

রোববার ভারতের পররাষ্ট্রনীতি ও জাতীয় নিরাপত্তায় উল্লেখযোগ্য অবদানের জন্য কোয়াত্রাকে ধন্যবাদ জানিয়ে আনুষ্ঠানিকভাবে বিদায় জানান পররাষ্ট্রমন্ত্রী এস জয়শংকর। একই সঙ্গে সোমবার পররাষ্ট্রসচিবের কার্যালয়ে বিক্রম মিশ্রিকে অভিনন্দনও জানান তিনি।

এর আগে, ২০১৯ থেকে ২০২১ সাল পর্যন্ত চীনে ভারতের রাষ্ট্রদূত হিসেবে নিযুক্ত ছিলেন বিক্রম মিশ্রি। ফলে বেইজিংয়ের অভ্যন্তরীণ রাজনীতি, কূটনীতিসহ বিভিন্ন বিষয় তার নখদর্পণে। ২০২০ সালের ১৫ জুন গালওয়ান উপত্যকায় ভারত ও চীনের সামরিক বাহিনীর সদস্যদের মাঝে প্রাণঘাতী সংঘাত হয়। রক্তক্ষয়ী সেই সংঘর্ষে ভারতীয় ২০ সৈন্যের প্রাণহানি ঘিরে দুই দেশের সম্পর্কে ব্যাপক উত্তেজনা তৈরি হয়। সেসময় উত্তেজনা হ্রাসে দিল্লি ও বেইজিংকে আলোচনার টেবিলে বসানোর ক্ষেত্রে গুরুত্বপূর্ণ ভূমিকা পালন করেছিলেন বিক্রম মিশ্রি।

২০২২ সালের ১ জানুয়ারি চীন বিশেষজ্ঞ বিক্রমকে ভারতের উপ-জাতীয় নিরাপত্তা উপদেষ্টার সহকারী হিসেবে নিয়োগ দেওয়া হয়। গত ১৪ জুলাই পর্যন্ত এই পদে দায়িত্ব পালন করেন তিনি। কর্মজীবনে আরও নানা গুরুত্বপূর্ণ পদে দেখা গেছে বিক্রমকে। ১৯৯৭ সালে তৎকালীন প্রধানমন্ত্রী ইন্দর কুমার গুজরাল, ২০১২ সালে মনমোহন সিং ও ২০১৪ সালে নরেন্দ্র মোদির ব্যক্তিগত সচিব হিসেবেও কাজ করেন তিনি।

২০১৪ থেকে ২০১৬ সাল পর্যন্ত স্পেন ও ২০১৬ থেকে ২০১৮ সাল পর্যন্ত মিয়ানমারে ভারতের রাষ্ট্রদূত হিসেবে দায়িত্ব পালন করেন বিক্রম মিশ্রি। এছাড়াও পাকিস্তান, যুক্তরাষ্ট্র, জার্মানি, বেলজিয়াম ও শ্রীলঙ্কায় ভারতের হয়ে বিশেষ প্রোজেক্টেও কাজ করেছেন ৫৯ বছর বয়সী অভিজ্ঞ এই কূটনীতিক।

;

পিটিআই-কে নিষিদ্ধের পথ খুঁজছে সরকার: পাকিস্তানের তথ্যমন্ত্রী



আন্তর্জাতিক ডেস্ক, বার্তা২৪.কম
ছবি: সংগৃহীত, পিটিআই দলের প্রধান ও পাকিস্তানের সাবেক প্রধানমন্ত্রী ইমরান খান

ছবি: সংগৃহীত, পিটিআই দলের প্রধান ও পাকিস্তানের সাবেক প্রধানমন্ত্রী ইমরান খান

  • Font increase
  • Font Decrease

সাবেক প্রধানমন্ত্রী ইমরান খানের দল পাকিস্তান তেহরিক-ই-ইনসাফ (পিটিআই)-কে নিষিদ্ধ করার পথ খুঁজছে সরকার বলে মন্তব্য করেছেন পাকিস্তানের তথ্যমন্ত্রী আতাউল্লাহ তারার।

সোমবার (১৫ জুলাই) মন্ত্রীর বরাত দিয়ে টিআরটি ইন্টারন্যাশনাল এ বিষয়ে একটি খবর প্রকাশ করে।

তিনটি মামলার মধ্যে দুটি মামলার রায়ে পাকিস্তানের সাবেক প্রধানমন্ত্রী ইমরান খান কারাগারে সাজা ভোগ করছেন। আরেকটি মামলার রায় স্থগিত রয়েছে।

তথ্যমন্ত্রী আতাউল্লাহ তারার বলেন, পাকিস্তানের সাবেক প্রধানমন্ত্রী জেলে সাজাভোগকারী ইমরান খানের দল পিটিআইকে নিষিদ্ধের পথ খোঁজা হচ্ছে। তবে তা নির্ভর করছে, রাজনৈতিক অবস্থা কী দাঁড়ায়, তার ওপর।

পাকিস্তানের রাজধানী ইসলামাবাদে সোমবার এক সংবাদ সম্মেলনে তথ্যমন্ত্রী আতাউল্লাহ তারার বলেন, সংসদে অনুমোদন হলেই সরকার সুপ্রিমকোর্টের দারস্থ হবে আইনগতভাবে।

রাজনৈতিক দলকে নিষিদ্ধ করতে হলে এই আইনি বাধ্যবাধকতা আছে বলে মন্তব্য করেন তিনি।

তারার বলেন, পাকিস্তান ও পিটিআই একসঙ্গে উন্নতি করতে পারে না। সাম্প্রতিক প্রমাণাদি সেটিই প্রমাণ করেছে। এ কারণে সরকার পিটিআইকে নিষিদ্ধ করতে চায়। এ বিষয়ে শিগগিরই উদ্যোগ নেওয়া হবে।

তিনি আরো উল্লেখ করে বলেন, ২০২৩ সালের মে মাসে পিটিআই পাকিস্তানের সেনাবাহিনীকে হস্তক্ষেপের আহ্বান জানিয়েছিল। ইমরান খান দুর্নীতির মামলায় গ্রেফতার হয়েছেন।

;

সোমালিয়ায় গাড়িবোমা হামলায় নিহত ৯



আন্তর্জাতিক ডেস্ক, বার্তা২৪.কম
ছবি: সংগৃহীত,  সোমালিয়ায় রোববার রাতে গাড়িবোমা হামলার ঘটনা ঘটে

ছবি: সংগৃহীত, সোমালিয়ায় রোববার রাতে গাড়িবোমা হামলার ঘটনা ঘটে

  • Font increase
  • Font Decrease

আফ্রিকার দেশ সোমালিয়ার রাজধানী মোগাদিসুতে এক গাড়িবোমা হামলায় ৯ জন নিহত হয়েছেন। এ ছাড়া এ ঘটনায় আহত হয়েছেন আরো ২০ জন।

হতাহতরা এ সময় টেলিভিশনের পর্দায় ইউরো-২০২৪ ফুটবল দেখছিলেন।

স্থানীয় সময় রোববার (১৪ জুলাই) রাতে ইউরো-২০২৪ ফুটবল খেলার সময় একটি ক্যাফেটরিয়ার সামনে এ গাড়িবোমা হামলার ঘটনা ঘটে। আল-কায়েদার সঙ্গে সম্পর্কযুক্ত আল-শাবাব এ হামলার দায় স্বীকার করেছে।

সোমবার (১৬ জুলাই) কাতারভিত্তিক টেলিভিশন চ্যানেল আলজাজিরা এ খবর জানায়। খবরে বলা হয়, আল-শাবাবের সঙ্গে যুক্ত একটি রেডিওর খবরে এ হামলার দায় স্বীকার করে গোষ্ঠীটি।

ঘটনার সময় এ ক্যাফেটোরিয়ায় নিরাপত্তা বাহিনী ও সরকারি কর্মচারীরা টেলিভিশনের পর্দায় ফুটবেলা খেলা দেখছিলেন।

সোমালিয়ার জাতীয় নিরাপত্তা বাহিনীর এক কর্মকর্তা মোহাম্মদ ইউনুস জানিয়েছেন, গাড়িবোমা হামলার ঘটনায় মোট ৯ জন নিহত হয়েছেন। যদিও এর আগে রোববার রাতের শেষদিকে কর্তৃপক্ষ ৫ জনের নিহতের কথা জানিয়েছিল।

মোহাম্মদ ইউনুস আরো জানান, হামলার পর অনেকেই মই বেয়ে এবং কেউ কেউ ক্যাফেটোরিয়ার পেছন থেকে লাফিয়ে পড়ে পালিয়ে যান। ফলে আরো প্রাণহানির হাত থেকে রক্ষা পায়।

হামলার পর পরই গাড়ি থেকে ব্যাপক আগুনের স্ফূলিঙ্গ ছুটতে দেখা যায়।

;

হামলার পরও রিপাবলিকান সম্মেলনে যাচ্ছেন ট্রাম্প



আন্তর্জাতিক ডেস্ক, বার্তা২৪.কম
ছবি: সংগৃহীত

ছবি: সংগৃহীত

  • Font increase
  • Font Decrease

নির্বাচনি প্রচারণা সভায় গুলিতে আহত হওয়া সত্ত্বেও দলের জাতীয় সম্মেলনে অংশ নেবেন সাবেক মার্কিন প্রেসিডেন্ট ডোনাল্ড ট্রাম্প। দলটির এবারের জাতীয় কনভেনশন আয়োজন করা হয়েছে দেশটির মধ্য-পশ্চিম অঞ্চলের অঙ্গরাজ্য উইসকনসিনের সবচেয়ে বড় শহর মিলওয়াওকিতে।

সোমবার (১৫ জুলাই) বিবিসির এক প্রতিবেদনে এ তথ্য প্রকাশিত হয়।

প্রতিবেদনে বলা হয়, শনিবার পেনসিলভানিয়ায় নির্বাচনি সভায় বক্তব্য দেওয়ার সময় গুলিবিদ্ধ হন ট্রাম্প। এ সময় তাকে দ্রুত ঘটনাস্থল থেকে সরিয়ে নেওয়া হয়। এদিকে যুক্তরাষ্ট্রের উইসকনসিনের মিলওয়াকিতে ১৫ থেকে ১৮ জুলাই রিপাবলিকান জাতীয় সম্মেলনের আয়োজন করা হয়েছে। গুরুতর আহত হলেও এ সম্মেলনে যোগ দেবেন ট্রাম্প। ইতিমধ্যেই উইসকনসিনে পৌঁছেছেন তিনি। ধারণা করা হচ্ছে, এ সময় ট্রাম্পকে আনুষ্ঠানিকভাবে ৫ নভেম্বরের নির্বাচনের জন্য দলের প্রেসিডেন্ট প্রার্থী হিসাবে ঘোষণা করা হবে। 

এদিকে যুক্তরাষ্ট্রে এখন রোববার মধ্যরাত। আগামীকাল সোমবার স্থানীয় সময় বেলা ১১টায় (বাংলাদেশ সময় রাত ১০টা) তিন দিনব্যাপী এই কনভেনশন শুরু হবে। শেষ হবে আগামী ১৮ জুলাই সন্ধ্যায়। কনভেনশনটি মূলত ফিসার ফোরামে অনুষ্ঠিত হবে, যা উইসকনসিন সেন্টার ডিস্ট্রিক্টে অনুষ্ঠিত অতিরিক্ত ইভেন্টের সাথে চলবে। এরমধ্যে রয়েছে- বেয়ার্ড সেন্টার, মিলার হাই লাইফ থিয়েটার এবং ইউনিভার্সিটি অব উইসকনসিন-মিলওয়াকির (ইউডব্লিউএম) প্যান্থার এলাকা।

এরই মধ্যে স্থানীয় বাসিন্দাদের বাইরে রিপাবলিকান ডেলিগেট, গণমাধ্যমকর্মী, আইন-শৃঙ্খলা রক্ষাকারী বাহিনীর সদস্য এবং দর্শক-ভ্রমণকারী মিলে অন্তত ৫০ হাজার মানুষের সমাগম ঘটেছে শহরটিতে।

লেক মিশিগানের নীল জলরাশি আর অসংখ্য ছোট-বড় পাহাড়-টিলার এই নান্দনিক শহর ইতিমধ্যেই অতিথিদের বরণ করতে সর্বাত্মক প্রস্তুত বলে জানিয়েছেন শহরের ডেমোক্র্যাট মেয়র ক্যাভালিয়ার জনসন।

কনভেনশন সামনে রেখে নিরাপত্তার চাদরে ঢেকে ফেলা হয়েছে মিলওয়াকি।

;