চবি উপাচার্যের কার্যালয় ভাঙচুর করেছে ছাত্রলীগ



স্টাফ করেসপন্ডেন্ট, বার্তা২৪.কম, চট্টগ্রাম
চবি উপাচার্যের কার্যালয় ভাঙচুর করেছে ছাত্রলীগ

চবি উপাচার্যের কার্যালয় ভাঙচুর করেছে ছাত্রলীগ

  • Font increase
  • Font Decrease

চট্টগ্রাম বিশ্ববিদ্যালয়ের (চবি) উপাচার্যের দফতর ভাঙচুর করেছে শাখা ছাত্রলীগের নেতাকর্মীরা। এসময় তারা বিশ্ববিদ্যালয়ের শাটল ট্রেনও আটকে দেন। নিজেদের পছন্দের প্রার্থীকে শিক্ষক নিয়োগে সুপারিশ না করায় তারা এই ঘটনা ঘটিয়েছে বলে জানা যায়।

সোমবার (৩০ জানুয়ারি) বিকেলে বিশ্ববিদ্যালয়ের ৫৪১তম সিন্ডিকেটের সভা শেষেই এই ভাঙচুরের ঘটনা ঘটে।

জানা যায়, আজ সিন্ডিকেটের ৫৪১তম সভা ছিল। সভায় বিভিন্ন বিভাগের শিক্ষক ও কর্মচারী নিয়োগসহ বিভিন্ন এজেন্ডা নিয়ে আলোচনা হয়। সাড়ে ৪টার দিকে সভা শেষ হলে ছাত্রলীগের একাকার গ্রুপের নেতা কর্মীরা ভিসির দফতরে যায়। সেখানে গিয়ে জানতে পারে ছাত্রলীগের এক পছন্দের প্রার্থী কেন্দ্রীয় ছাত্রলীগের সাবেক যুগ্ম সাধারণ সম্পাদক রায়হান আহমেদকে শিক্ষক নিয়োগে সিন্ডিকেট সুপারিশ করেনি। এরপরই ভিসির দফতরের কাপ পিরিচ ও ফুলদানি ভাঙচুর করে ছাত্রলীগ নেতাকর্মীরা। পরে বিশ্ববিদ্যালয়ের শাটল ট্রেন আটকে দেয় তারা।

চবি শাখা ছাত্রলীগের সহ-সভাপতি ও একাকার গ্রুপের নেতা মইনুল ইসলাম রাসেল বলেন, আজকে সিন্ডিকেটে জামায়াত শিবিরের রাজনীতি ও সরকার বিরোধী কর্মকাণ্ডে জড়িতদেরকে শিক্ষক হিসেবে নিয়োগ দেয়া হয়েছে। বাকিদের চাইতে বেশি যোগ্যতা থাকা সত্বেও ছাত্রলীগের একনিষ্ঠ কর্মী এবং কেন্দ্রীয় ছাত্রলীগের রিসেন্ট কমিটির সদস্য রাইয়ান আহমেদকে নিয়োগ দেয়া হয়নি। আমাদের প্রথম দাবি রাষ্ট্রবিরোধী কর্মকাণ্ড ও জামায়াত শিবিরের রাজনীতির সঙ্গে জড়িতদের শিক্ষক থেকে বাদ দিতে হবে। আর দ্বিতীয় দাবি হল ছাত্রলীগের একনিষ্ঠ কর্মী রাইয়ান আহমেদকে মেরিন সায়েন্স বিভাগের শিক্ষক হিসেবে নিয়োগ দিতে হবে।

বিশ্ববিদ্যালয় প্রক্টর ড. রবিউল হাসান ভূঁইয়া বলেন, ছাত্রলীগের কিছু নেতাকর্মী উপাচার্যের দফতরে হামলার চেষ্টা করেছিল। পরে আমরা তাদের সরিয়ে নিয়ে এসেছি। এ বিষয়ে আমরা তদন্ত করে ব্যবস্থা নিচ্ছি।

   

জাবিতে 'বি', 'আইবিএ' ও 'ই' ইউনিটে ভর্তি পরীক্ষা সম্পন্ন



জাবি করেসপন্ডেন্ট, বার্তা২৪.কম
ছবি: বার্তা২৪.কম

ছবি: বার্তা২৪.কম

  • Font increase
  • Font Decrease

জাহাঙ্গীরনগর বিশ্ববিদ্যালয়ে (জাবি) ২০২৩-২০২৪ শিক্ষাবর্ষে প্রথম বর্ষ স্নাতক (সম্মান) শ্রেণীতে ৫ শিফটে সমাজবিজ্ঞান অনুষদভুক্ত 'বি' ইউনিট, ইনস্টিটিউট অব বিজনেস এ্যাডমিনিস্ট্রেশন (আইবিএ-জেইউ) ও বিজনেস স্টাডিজ অনুষদভুক্ত 'ই' ইউনিটের পরীক্ষা সম্পন্ন হয়েছে। 'বি' ইউনিটে শিক্ষার্থীদের উপস্থিতির হার ৭৭ দশমিক ২৫ শতাংশ, আইবিএ-জেইউ'তে শিক্ষার্থীদের উপস্থিতির হার ৬৭ শতাংশ ও 'ই' ইউনিটে শিক্ষার্থীদের উপস্থিতির হার ৮৪ দশমিক ৪৭ শতাংশ।

বৃহস্পতিবার (২৯ ফেব্রুয়ারি) 'বি' ইউনিটের ছাত্রীদের ভর্তি পরিক্ষা ১ম শিফটে এবং ছাত্রদের পরীক্ষা ২য় শিফটে অনুষ্ঠিত হয়েছে। এরপর ৩য় শিফটে আইবিএ-জেইউ এর ভর্তিচ্ছু ছাত্র-ছাত্রীদের পরীক্ষা ও ৪র্থ শিফটে 'ই' ইউনিটের ছাত্রীদের পরীক্ষা এবং ৫ম শিফটে ছাত্রদের পরীক্ষার মধ্য দিয়ে ২০২৩-২৪ শিক্ষাবর্ষের ভর্তি পরীক্ষা সমাপ্ত হয়েছে।

সমাজবিজ্ঞান অনুষদের ডিন (ভারপ্রাপ্ত) অধ্যাপক বশির আহমেদ বার্তা২৪.কমকে বলেন, সমাজবিজ্ঞান অনুষদভুক্ত 'বি' ইউনিটে মোট আসন সংখ্যা ৩৮৬টি। আবেদন জমা পড়েছিল ছাত্রদের ৭ হাজার ৮৩০টি এবং ছাত্রীদের ৯ হাজার ৮৮৬টি। এর মধ্যে ভর্তিচ্ছু ছাত্রদের মধ্যে উপস্থিত ছিলেন ৬ হাজার ৪৪০ জন ও ছাত্রীদের মধ্য উপস্থিত ছিলেন ৭ হাজার ২৪৭ জন। ছাত্রদের উপস্থিতির হার ৮২ দশমিক ২ শতাংশ ও ছাত্রীদের উপস্থিতি ৭৩ দশমিক ৩ শতাংশ। সে হিসেবে সর্বমোট উপস্থিতির হার ৭৭ দশমিক ২৫ শতাংশ।

ইনস্টিটিউট অব বিজনেস এ্যাডমিনিস্ট্রেশনের পরিচালক অধ্যাপক কে এম জাহিদুল ইসলাম বার্তা২৪.কমকে জানান, আইবিএ-তে ৫০টি আসনের বিপরীতে আবেদনকারী ছাত্র সংখ্যা ২ হাজার ২৬০ জন এবং ছাত্রী ১ হাজার ২৮৬ জন। ভর্তিচ্ছু ছাত্র-ছাত্রীদের মধ্যে উপস্থিত ছিলেন ২ হাজার ৩৮২ জন। সে হিসেবে মোট উপস্থিতি ৬৭ শতাংশ।

ফিন্যান্স এন্ড ব্যাংকিং বিভাগের সভাপতি সহযোগী অধ্যাপক মো. ইউসুফ হারুন বার্তা২৪.কমকে জানান, বিজনেস স্টাডিজ অনুষদভুক্ত 'ই' ইউনিটে ১০০টি ছাত্র এবং ১০০টি ছাত্রী আসনের বিপরীতে ৭ হাজার ১৫৪ জন ছাত্র এবং ৫ হাজার ৫২৯ জন ছাত্রী আবেদন করেছেন। ভর্তিচ্ছু ছাত্রদের মধ্যে উপস্থিত ছিলেন ৮৬ দশমিক ৪০ শতাংশ ও ছাত্রীদের মধ্যে উপস্থিত ছিলেন ৮১ দশমিক ৯৭ শতাংশ।

এদিকে সকালের দ্বিতীয় শিফটে মাইক্রোবায়োলজি ও রসায়ন বিভাগ ভবনের কেন্দ্রে ভর্তি পরীক্ষা পরিদর্শনে আসেন বিশ্ববিদ্যালয়ের উপাচার্য অধ্যাপক ড. মোঃ নূরুল আলম। এ সময় উপাচার্যের সাথে উপ-উপাচার্য (প্রশাসন) অধ্যাপক শেখ মোঃ মনজুরুল হক, উপ-উপাচার্য (শিক্ষা) অধ্যাপক মোহাম্মদ মোস্তফা ফিরোজ, কোষাধ্যক্ষ অধ্যাপক রাশেদা আখতার, সমাজবিজ্ঞান অনুষদের ভারপ্রাপ্ত ডিন অধ্যাপক বশির আহমেদ, রেজিস্ট্রার মোঃ আবু হাসান প্রমুখ উপস্থিত ছিলেন।

ভর্তি পরীক্ষা পরিদর্শন শেষে নির্বিঘ্নে ও শান্তিপূর্ণভাবে ভর্তি পরীক্ষা গ্রহণে নিরলসভাবে পরিশ্রম করায় উপাচার্য শিক্ষক, কর্মকর্তা-কর্মচারী, প্রক্টর অফিস, বিএনসিসি, রোভার স্কাউট, স্বেচ্ছাসেবী সংগঠন, রেড ক্রিসেন্ট, পুলিশ, আনসার এবং সংশ্লিষ্ট সকলের প্রতি কৃতজ্ঞতা ও ধন্যবাদ জ্ঞাপন করেন।

আগামী ৩ থেকে ৫ মার্চ পর্যন্ত কলা ও মানবিকী অনুষদের নাটক ও নাট্যতত্ত্ব বিভাগ এবং ৫ মার্চ চারুকলা বিভাগের ভর্তি পরীক্ষায় এমসিকিউ পরীক্ষাতে উত্তীর্ণ শিক্ষার্থীদের ব্যবহারিক পরীক্ষা অনুষ্ঠিত হবে। ভর্তি পরীক্ষা সংক্রান্ত বিস্তারিত তথ্য এবং ফলাফল জাহাঙ্গীরনগর বিশ্ববিদ্যালয়ের ভর্তি সম্পর্কিত ওয়েবসাইটে (ju-admission.org) এ পাওয়া যাবে।

প্রসঙ্গত ২০২৩-২৪ শিক্ষাবর্ষে জাবির ৫টি ইউনিটে ১ হাজার ৮৪৪টি আসনের বিপরীতে জাবির ভর্তি পরীক্ষার্থী ১ লাখ ৯৭ হাজার ৩৫৯ জন। সে হিসেবে আসনপ্রতি লড়বেন ১০৮ জন।

;

চবির ‘বর্ষসেরা অনুসন্ধানী সাংবাদিক’ বার্তা২৪-এর রেদ্ওয়ান



চবি করেসপন্ডেন্ট, বার্তা২৪.কম
ছবি: বার্তা ২৪.কম

ছবি: বার্তা ২৪.কম

  • Font increase
  • Font Decrease

চট্টগ্রাম বিশ্ববিদ্যালয় সাংবাদিক সমিতির (চবিসাস) বর্ষসেরা অনুসন্ধানী সাংবাদিক নির্বাচিত হয়েছেন বার্তা২৪.কম চট্টগ্রাম কার্যালয়ের স্টাফ করেসপন্ডেন্ট রেদ্ওয়ান আহমদ।

বৃহস্পতিবার (২৯ ফেব্রুয়ারি) বিশ্ববিদ্যালয়ের চারুকলা ইনস্টিটিউটের সেমিনার কক্ষে আয়োজিত চবিসাসের বার্ষিক সাধারণ সভা শেষে এ পুরস্কার তুলে দেওয়া হয়।

চবি সাংবাদিক সমিতির সভাপতি মাহবুব এ রহমানের সভাপতিত্বে এবং সাধারণ সম্পাদক ইমাম ইমুর সঞ্চালনায় অনুষ্ঠানে প্রধান অতিথি ছিলেন চবি উপাচার্য অধ্যাপক ড. শিরীণ আখতার। বিশেষ অতিথি হিসেবে উপস্থিত ছিলেন চবিসাসের সাবেক নেতৃবৃন্দ।

সভায় বক্তব্য রাখেন চবিসাসের সাবেক সভাপতি খলিলুর রহমান, ওমর ফারুক, সুজন ঘোষ, হুমায়ুন মাসুদ, আশহাবুর রহমান শোয়েব, সৈয়দ মোহাম্মদ বায়েজিদ ইমন, সাবেক সাধারণ সম্পাদক তাসনীম হাসান, আবদুল্লাহ আল মামুনসহ বিভিন্ন সংগঠনের নেতারা।

এবার বছরব্যাপী ক্যাম্পাস সাংবাদিকতায় অবদান রাখায় অনুসন্ধান ও ফিচার ক্যাটাগরিতে ৪ জনকে পুরস্কার দিয়েছে চবিসাস। অন্যান্য পুরস্কার প্রাপ্তরা হলেন- অনুসন্ধান ক্যাটাগরিতে বাংলানিউজের ইউনিভার্সিটি করেসপন্ডেন্ট মোহাম্মাদ আজহার, ফিচার ক্যাটাগরিতে প্রথম আলোর বিশ্ববিদ্যালয় প্রতিনিধি মোশাররফ শাহ ও পূর্বদেশের শাহরিয়াজ মোহাম্মদ।

রেদ্ওয়ান আহমদ নিজের অনুভূতি ব্যক্ত করে বার্তা২৪.কমকে বলেন, একজন শিক্ষার্থী, আবার সাংবাদিক হিসেবে ক্যাম্পাস সাংবাদিকতা কঠিন এক কাজ। তবুও, ভালোবাসা থেকে যুক্ত হয়েছি। ক্যাম্পাস সাংবাদিকতার মাধ্যমে উঠে আসে বিশ্ববিদ্যালয় ক্যাম্পাসের হালচাল, খুঁটিনাটি। চবিসাসের ’বর্ষসেরা অনুসন্ধানী সাংবাদিক’ পুরস্কার পেয়ে আমি খুবই আনন্দিত। সৃষ্টিকর্তার নিকট কৃতজ্ঞতা। সেই সাথে শ্রদ্ধা ও ভালোবাসা সাংবাদিক সমিতির সদস্যদের প্রতি, বিভিন্ন প্রতিকূল পরিস্থিতিতেও যারা আমার পাশে স্তম্ভের মতো দাঁড়িয়ে সাহস যুগিয়েছিলেন।

;

ঢাবি উপাচার্যের বাংলোর সীমানা থেকে নবজাতকের মরদেহ উদ্ধার



ঢাবি করেসপন্ডেন্ট, বার্তা২৪.কম
ছবি: সংগৃহীত

ছবি: সংগৃহীত

  • Font increase
  • Font Decrease

ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয়ের (ঢাবি) উপাচার্য অধ্যাপক ড. এ এস এম মাকসুদ কামালের বাংলোর সীমানার ভেতর থেকে এক নবজাতকের মরদেহ উদ্ধার করা হয়েছে।

বৃহস্পতিবার (২৯ ফেব্রুয়ারি) দুপুরে রোকেয়া হল স্টাফ কোয়ার্টার সংলগ্ন উপাচার্যের বাংলোর ভেতর থেকে নবজাতকের লাশটি উদ্ধার করা হয়।

এ ব্যাপারে উপাচার্যের বাংলোর কেয়ারটেকার মোজাম্মেল হক বলেন, দুপুর ১২ টার দিকে পরিচ্ছন্নতাকর্মীরা হঠাৎ দেয়ালের অন্য পাশে রাস্তা থেকে কিছু পড়ার শব্দ পান। তারা সবাই গিয়ে দেখেন একটি ব্যাগ পড়ে আছে সেখানে। প্রথমে তারা ভয় পান যে বোমা বা অন্যকিছু কিনা। পরে লাঠি দিয়ে ব্যাগটা একটু খুললে নবজাতকের মাথা বেরিয়ে আসে। তারপর তারা আমাকে ডেকে আনে।

ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয়ের প্রক্টর ড. মো.মাকসুদুর রহমান বার্তা ২৪.কমকে বলেন, রোকেয়া হলের স্টাফ কোয়ার্টারের দিক থেকে কেউ একজন বাচ্চাসহ ব্যাগটিকে দেয়ালের উপর দিয়ে উপাচার্যের বাংলোর মধ্যে ফেলে দিয়েছে। সাধারণত পাশেই মেডিকেল হওয়ায় এই ধরণের মরদেহ আমরা বিভিন্ন সময় পেয়ে থাকি। এবার হয়তো তারা মেডিকেলের আশে পাশে ফেলতে না পেরে এদিকে এসে সুযোগ পেয়ে মৃতদেহ রাখা ব্যাগটি ভেতরে ফেলে দিলে পরিচ্ছনতাকর্মীরা সেটি উদ্ধার করে।

তিনি আরো জানান, মরদেহটি দেখে মনে হয়েছিল সদ্য জন্ম নেওয়া শিশু। স্টাফরা সেটি দেখার পর পুলিশকে জানালে পুলিশ এসে মরদেহটি নিয়ে যায়।

;

গাজায় গণহত্যার প্রতিবাদে রাবিতে অনশন



রাবি করেসপন্ডেন্ট, বার্তা২৪.কম
ছবি: বার্তা ২৪.কম

ছবি: বার্তা ২৪.কম

  • Font increase
  • Font Decrease

গাজায় গণহত্যার প্রতিবাদে এবং ক্ষুধার্ত ও তৃষ্ণার্ত মানুষের প্রতি সহমর্মিতা জানিয়ে অনশন করেছেন রাজশাহী বিশ্ববিদ্যালয়ের (রাবি) শিক্ষক-শিক্ষার্থীরা।

বৃহস্পতিবার (২৯ ফেব্রুয়ারি) সকাল ১০টা থেকে বিকেল ৪টা পর্যন্ত 'ফেন্ডস অব প্যালেস্টাইন, রাজশাহী বিশ্ববিদ্যালয়'র ব্যানারে বিশ্ববিদ্যালয়ের জোহা চত্বরে এই কর্মসূচি পালন করা হয়।

কর্মসূচিতে 'স্টপ জেনোসাইড ইন গাজা', 'ফ্রি প্যালেস্টাইন' লিখা সংবলিত ব্যানার হাতে অনশনে বসেন বিশ্ববিদ্যালয়ের অর্থনীতি বিভাগের অধ্যাপক ড. ফরিদ উদ্দিন খান, আরবি বিভাগের অধ্যাপক ইফতিখারুল আলম মাসউদ, অর্থনীতি বিভাগের ২০২০-২১ শিক্ষাবর্ষের শিক্ষার্থী মোকাররম হোসাইন, তৌফিকুল ইসলাম, একই বিভাগের ২২-২৩ শিক্ষাবর্ষের শিক্ষার্থী গোলাম শাহরিয়ার মেহেদিসহ আরও অনেকে।

কর্মসূচির বিষয়ে অধ্যাপক ড. ফরিদ উদ্দিন খান বলেন, গাজায় গণহত্যার ফলে সেখানে খাবারের সংকট এবং চিকিৎসার অভাবে অনেক মানুষ মারা যাচ্ছে এবং সেখানে যে দুর্ভিক্ষ নেমে এসেছে তাতে আমাদের হৃদয়ে রক্তক্ষরণ হচ্ছে। আমরা চাই, দ্রুত এই ইজরায়েলি আগ্রাসন বন্ধ হোক এবং খাবারের যে বাধ্যবাধকতা অর্থাৎ বাহির থেকে খাবার আসতে না দেওয়া, তা যেন বন্ধ হয়। বাংলাদেশে থেকে আমাদের তেমন কিছুই করার নেই তবুও আমরা মানবিক দৃষ্টিকোন থেকে ফিলিস্তিনের প্রতি সহানুভূতি ও ইজরায়েলের প্রতি ঘৃণা প্রকাশ করছি।

অধ্যাপক ইফতিখারুল আলম মাসউদ বলেন, সারা বিশ্বের মানবতাবাদী মানুষেরা ইজরায়েলি জায়ান্টবাদী নীতি প্রত্যাখ্যান করছে, তবুও ফিলিস্তিনে ইজরায়েলি আগ্রাসন বন্ধ হচ্ছে না। প্রতি বছরই রোজা আসলে তাদের আক্রমণাত্বক ভঙ্গি বেড়ে যায়। আমরা এখান থেকে কিছুই করতে পারবো না কিন্তু আমাদের হৃদয়ের তারণা থেকে মানবতাবিরোধী এই অপকর্মের বিরুদ্ধে অবস্থান করছি। আন্তর্জাতিক কূট রাজনৈতিক কারণে কিছু রাষ্ট্র ইজরায়েলের পক্ষ নিলেও অধিকাংশ রাষ্ট্র ইজরায়েলের অপকর্মের নিন্দা জানাচ্ছে। ইজরায়েলের এই নিকৃষ্ট কর্মকাণ্ডকে সরাসরি সমর্থন করে এমন রাষ্ট্র কমই পাওয়া যাবে। যারা এই কর্মকাণ্ডকে সমর্থন করে তা কোনো রাষ্ট্রই হতে পারেনা, যতই গণতন্ত্রের কথা বলুক না কেন প্রকৃতপক্ষে তারা মানবতা বিরোধী।

অর্থনীতি বিভাগের ২০২০-২১ শিক্ষাবর্ষের শিক্ষার্থী মনিমুল হক বলেন, জায়ান্টবাদী নীতির নামে ফিলিস্তিনে যে গণহত্যা চালানো হচ্ছে তা আমরা কখনোই সমর্থন করিনা। আমরা এই জায়ান্টবাদীদের বিরুদ্ধে, তাদের এই নিকৃষ্ট অপকর্মের বিরুদ্ধে।

;