Barta24

বুধবার, ২৪ জুলাই ২০১৯, ৯ শ্রাবণ ১৪২৬

English Version

যুক্তরাজ্যের প্রধানমন্ত্রী নির্বাচনের তৃতীয় দফার ভোট আজ

যুক্তরাজ্যের প্রধানমন্ত্রী নির্বাচনের তৃতীয় দফার ভোট আজ
ছবি: সংগৃহীত
আন্তর্জাতিক ডেস্ক
বার্তা২৪.কম


  • Font increase
  • Font Decrease

থেরেসা মে'র জায়গায় প্রধানমন্ত্রী নির্বাচনে যুক্তরাজ্যের কনজারভেটিভ দলের তৃতীয় দফার ভোটগ্রহণ হবে। কনজারভেটিভ দলের এমপিরা দ্বিতীয় দফায় বিজয়ী চারজন প্রার্থীর মধ্যে থেকে চূড়ান্ত পর্বের জন্য দুইজন প্রার্থীকে মনোনীত করবেন।

বৃহস্পতিবার (২০ জুন) যুক্তরাজ্যের কনজারভেটিভ দলের তৃতীয় দফার ভোট শুরু হবে বলে জানিয়েছে আন্তর্জাতিক সংবাদমাধ্যমগুলো।

নির্বাচিত দুইজন প্রার্থীর মধ্যে থেকে চতুর্থ দফা ভোট গ্রহণ শেষে একজনকে প্রধানমন্ত্রী পদের জন্য নির্বাচিত করা হবে।

এদিকে বাকি তিনজন প্রতিদ্বন্দ্বী থেকে বরিস জনসন ১৪৩ ভোটে এগিয়ে আছেন। জনসনের নিকটতম প্রতিদ্বন্দ্বী ও বর্তমান পররাষ্ট্রমন্ত্রী জেরেমি হান্ট।

এছাড়া তৃতীয় পর্বের নির্বাচনের মূল প্রার্থীর তালিকায় পরিবেশ মন্ত্রী মাইকেল গোভ ও স্বরাষ্ট্র সচিব সাজিদ জাভিদ আছেন।

ব্রেক্সিট ইস্যুতে গত ২৪ মে পদত্যাগের ঘোষণা দেন থেরেসা মে। একই সঙ্গে তিনি এই পদত্যাগের কারণ হিসেবে ব্রেক্সিট ইস্যুতে নিজের ব্যর্থতার দায় স্বীকার করে বিবৃতি দেন। ২৯ মার্চ ইউরোপীয় ইউনিয়ন (ইইউ) ছেড়ে চলে যাওয়ার কথা ছিল যুক্তরাজ্যের। এই চুক্তি অনুমোদনে ব্যর্থ হলে তিনি এই পদত্যাগের ঘোষণা দেন।

আপনার মতামত লিখুন :

মৃত প্রিয় মানুষের দাঁত ও হাড়ে তৈরি অলংকার!

মৃত প্রিয় মানুষের দাঁত ও হাড়ে তৈরি অলংকার!
মানুষের দাঁত ও হাড়ে তৈরি অলংকার

সবাইকেই একটা সময় পর বিদায় জানাতে হয়। যতই কাছের মানুষ, প্রিয় মানুষ হোক না কেন, কাউকেই আজীবনের জন্য নিজের কাছে ধরে রাখা সম্ভব নয়। পৃথিবী ছেড়ে চলে যাওয়া প্রিয় মানুষদের রেখে যাওয়া বিভিন্ন অনুষঙ্গ, ছবিই তখন তাদের স্মৃতিকে আকড়ে রাখার অবলম্বন।

ছবি, ভিডিও ফুটেজ, ব্যবহৃত জিনিসের মাঝেই খুঁজে ফেরা হয় তাদের অস্তিত্ব। পুরনো সময়ে এক ধরনের লকেট খুব জনপ্রিয় ছিল। যে লকেটটি আদতে ছিল খুব ছোট একটি ফটোফ্রেম। অনেকেই প্রিয় মানুষের ছবি সে ফ্রেমে সেঁটে ব্যবহার করতেন। ভেবে নিতেন, প্রিয় মানুষটি তার সাথে, তার কাছেই আছে।

কিন্তু মৃত প্রিয় মানুষের শরীরের অংশ দিয়ে অলংকার তৈরি করে সেটা পরার বিষয়টি একেবারেই গা ছমছম করার মতো। আর এই ভিন্ন ও গা ছমছমে অনুভূতি তৈরি করার মতো কাজটি করছে মার্কিন যুক্তরাষ্ট্রের পেনসিলভেনিয়ায় বসবাসরত অলংকার তৈরি বিশেষজ্ঞ ট্রেসিয়া ফে জেইম্বা।

https://img.imageboss.me/width/700/quality:100/https://img.barta24.com/uploads/news/2019/Jul/24/1563951870241.jpg

মৃত প্রিয় মানুষের হাড়, দাঁত, চুল এমনকি রক্ত থেকেও বিভিন্ন ধরনের অলংকার তৈরি করে দেবে জেইম্বা। আংটির বেইসে দামী পাথরের বদলে প্রিয় মানুষটির মাড়ির দাঁত থাকবে, গলার হারে থাকবে হাড়ের কারুকাজ।

তার এমন অদ্ভুত কার্যক্রম ইতোমধ্যে বেশ শোরগোল ফেলে দিয়েছে। একইসাথে প্রশংসা ও তিরস্কারের জোয়ারে ভাসছেন জেইম্বা। যারা তার কাছ থেকে গহনা গড়াচ্ছেন তারা দারুণ আনন্দিত। কিন্তু যারা এই ধারণাটির সাথে একেবারেই প্রথমবারের মতো পরিচিত হচ্ছেন, তারা ‘জঘন্য’, ‘গা গুলানো’ বলে আখ্যায়িত করছে।

https://img.imageboss.me/width/700/quality:100/https://img.barta24.com/uploads/news/2019/Jul/24/1563951896621.jpg

জেইম্বা একাই এমন অদ্ভুতুড়ে কাজের সাথে জড়িত নন। অস্ট্রেলিয়ার মেলবোর্নের বাসিন্দা ২৭ বছরের জ্যাকি মৃত মানুষ ও পশুর দাঁত থেকে তৈরি করেন দারুণ সুন্দর বিভিন্ন ধরনের অলংকার। এমনকি শুধু দাঁতের অলংকার তৈরির জন্যেই তিনি নিজের কাস্টমাইজ স্টুডিও খুলে ফেলেছেন। তবে দাঁতের পাশাপাশি হাড়ের অলংকারও তৈরি করেন তিনি।

https://img.imageboss.me/width/700/quality:100/https://img.barta24.com/uploads/news/2019/Jul/24/1563951913251.jpg

মৃত প্রিয় মানুষদের স্মৃতি সংরক্ষণে অন্যদের সাহায্য করতে পেরে জ্যাকি ভীষণ আনন্দিত। পরিক্ষামূলকভাবে এমন অলংকার তৈরি করা শুরু করেছিলেন তিনি, এরপর সময়ের সাথে সেটাকেই পেশা হিসেবে নিয়ে নেন তিনি।

‘অভিজাতপূর্ণ জিনিস তৈরি করা আমার ভীষণ প্রিয়। দুঃখের সাথে আমার ভালোবাসা মিশিয়ে একদম ভিন্ন কিছু তৈরি করি আমি,’ নিজের কাজ সম্পর্কে অনুভূতি জানাতে এমনটাই বলেন তিনি।

https://img.imageboss.me/width/700/quality:100/https://img.barta24.com/uploads/news/2019/Jul/24/1563951936372.jpg

তার এমন অদ্ভুতুড়ে কাজের জন্য অনেকেই তাকে ‘সিরিয়াল কিলার’, ‘কবর ছিনতাইকারী’ নাম দিয়েছে। তবে এসবে একেবারে কান দেননা জ্যাকি। নিজের কাজ নিয়ে থাকতেই বেশি ভালোবাসেন তিনি।

 

দক্ষিণ কোরিয়ার আকাশসীমা লঙ্ঘনের পর রাশিয়ার দুঃখ প্রকাশ

দক্ষিণ কোরিয়ার আকাশসীমা লঙ্ঘনের পর রাশিয়ার দুঃখ প্রকাশ
ছবি: সংগৃহীত

দক্ষিণ কোরিয়ার আকাশসীমা লঙ্ঘনের ঘটনায় দুঃখ প্রকাশ করেছে রাশিয়া।

দক্ষিণ কোরিয়ার সিওলে অবস্থিত রাষ্ট্রপতির অফিস বলছে, রাশিয়া বলেছে যে দক্ষিণ কোরিয়ার আকাশসীমায় তাদের সামরিক জেটের অনুপ্রবেশের বিষয়টি ইচ্ছাকৃত ছিল না।

বুধবার (২৪ জুলাই) দক্ষিণ কোরিয়া বলছে, রাশিয়ার একজন সেনা কর্মকর্তা এ ঘটনার জন্য দক্ষিণ কোরিয়ার প্রতিরক্ষা মন্ত্রণালয়ের কাছে গভীরভাবে দুঃখ প্রকাশ করেছেন। তিনি এ ঘটনার জন্য যান্ত্রিক ত্রুটিকে দায়ী করেছেন।

এর আগে মঙ্গলবার দক্ষিণ কোরিয়ার সিওল বলেছে যে রাশিয়ার একটি সামরিক জেট দুই বার তাদের আকাশসীমা লঙ্ঘন করেছে।

তবে রাশিয়ান প্রতিরক্ষা মন্ত্রণালয় আগে এ অভিযোগ অস্বীকার করেছিল।

দক্ষিণ কোরিয়ার ব্লু হাউস এক ব্রিফিংয়ে বলেছে, রাশিয়া এখন বলেছে, আকাশসীমা লঙ্ঘনের বিষয়টি ছিল অনিচ্ছাকৃত এবং অবিলম্বে এ ব্যাপারে তদন্ত শুরু করা হবে।

রাশিয়া আরও বলছে, সামরিক বিমানটি পরিকল্পিত রুট অনুযায়ী উড়লে তো এমনটা হওয়ার কথা ছিল না।

এদিকে, বুধবার এক বিবৃতিতে চীনের প্রতিরক্ষা মন্ত্রণালয় বলছে, কোনো বিমানই কোনো দেশের আকাশসীমায় অনুপ্রবেশ করেনি।

রাশিয়ার প্রতিরক্ষা মন্ত্রণালয় বলছে, জাপান সাগর ও পূর্ব চীন সাগরের ওপর দিয়ে জেটটি চীনের যুদ্ধবিমানের সঙ্গে যৌথভাবে আকাশে টহল দিচ্ছিল। দুই দেশের এমন যৌথ আকাশ টহল এটিই প্রথম।  

এ সম্পর্কিত আরও খবর

Barta24 News

আর্কাইভ

শনি
রোব
সোম
মঙ্গল
বুধ
বৃহ
শুক্র