আসছে হৃতিকের কৃষ ফোর



বিনোদন ডেস্ক, বার্তা২৪.কম
আসছে হৃতিকের কৃষ ফোর

আসছে হৃতিকের কৃষ ফোর

  • Font increase
  • Font Decrease

‘কৃষ ৪’-এর ঘোষণা গত বছরই দিয়েছিলেন হৃতিক রোশন। তারপর থেকেই এই ছবি নিয়ে উত্তেজনার পারদ তুঙ্গে। হবে নাই বা কেন? বলিউডের সবচেয়ে পছন্দের আর সবচেয়ে হিট সুপারহিরো কৃষ। গত বছর জুন মাসে ‘কৃষ’ মুক্তির দেড় দশক পূর্তি উপলক্ষ্যেই এই ঘোষণা সারেন হৃতিক। তারপর থেকে শুরু অপেক্ষার পর্ব। তবে ছবি নিয়ে আর কোনও আপটেড মিলছিল না। অবশেষে ‘কৃষ’ ভক্তদের জন্য সুখবর এলো।

বলিপাড়ার সূত্র বলছে, ‘কৃষ ৩’র গল্প যেখানে শেষ হয়েছিল ঠিক সেখান থেকেই শুরু হবে ‘কৃষ ৪’-এর গল্প। তবে কাহিনীতে থাকবে একাধিক নতুন চরিত্র আর একগুচ্ছ টুইস্ট।

পরিচালক রাকেশ রোশন আপতত ছবির স্ক্রিপ্টের ওপর কাজ করছেন। আপাতত ছবির খুব গুরুত্বপূর্ণ অংশের চিত্রনাট্যের ফাইনাল ড্রাফট রেডি হচ্ছে। ছবির কাস্টিং এখনও চূড়ান্ত হয়নি। তবে পিঙ্কভিলাকে পরিচালকের ঘনিষ্ঠ সূত্র জানাচ্ছে, ‘এই ছবিতে থাকছে নেভার সিন বিভোর অ্যাকশনের দৃশ্য, বলিউড ছবিতে এমন অ্যাকশন সিকুয়েন্স আগে কখনও উঠে আসেনি’।

বহুদিন ধরেই এই ছবি ঘিরে চলছিল বিস্তর জল্পনা। একাধিক সাক্ষাৎকারে 'কৃষ ৪' যে তৈরি হবে সেকথা নিজেই জানিয়েছিলেন হৃত্বিক এবং এই সুপারহিরো ফ্র্যাঞ্চাইজি ছবির পরিচালক-প্রযোজক রাকেশ রোশন। এমনকি 'কৃষ ৩' বক্স অফিসে সাফল্যের মুখ দেখার পরপরই এই সুপারহিরো সিরিজকে এগিয়ে নিয়ে যাওয়ার কথাও ঘোষণা করেছিলেন হৃত্বিক স্বয়ং। তারপরেও দীর্ঘ অপেক্ষা পর্ব চলেছে। গত বছর ২১শে জুন হৃতিক টুইট ভিডিয়ো শেয়ার করে জানিয়েছিলেন, ‘অতীতে যা হওয়ার হয়ে গিয়েছে। দেখা যাক, ভবিষ্যৎ কী নিয়ে আসে। কৃশ ৪’। হ্যাশট্যাগ হিসেবে ‘ফিফটিন ইয়ারস অফ কৃশ’ এবং ‘কৃশ ৪’ শব্দেরও ব্যবহার করেছিলেন।

কেন কৃষ নিয়ে এত মাতামাতি বলিপাড়ায়? আসলে বলিউডে একাধিক সুপারহিরো (রাওয়ান, ফ্লায়িং জাট) হাজির হলেও এই 'চরিত্রটির' মতো সফল আর কেউ হতে পারেনি। হলিউডের সুপারহিরো প্রেমীরাও কৃষ-কে পছন্দের তালিকায় রাখেন।

প্রসঙ্গত, আগামী ৩০ সেপ্টেম্বর মুক্তি পাবে হৃতিক অভিনীত ছবি ‘বিক্রম বেদা’। এই ছবিতে সইফের সঙ্গে স্ক্রিন শেয়ার করবেন নায়ক। শীঘ্রই পরিচালক সিদ্ধার্থ আনন্দের ‘ফাইটার’-এর কাজেও হাত দেবেন তারকা, সেই ছবিতে হৃতিক প্রথমবারের জন্য রোম্যান্স করবেন দীপিকা পাড়ুকোনের সঙ্গে।

আসিফের ছেলের বাগদান সম্পন্ন



বিনোদন ডেস্ক, বার্তা ২৪.কম
শাফকাত আসিফ রণ’র বাগদান

শাফকাত আসিফ রণ’র বাগদান

  • Font increase
  • Font Decrease

কণ্ঠশিল্পী আসিফ আকবরের বড় ছেলে শাফকাত আসিফ রণ’র বাগদান সম্পন্ন হয়েছে। আগামী অক্টোবরে বিয়ে সম্পন্ন হবে। বিষয়টি আসিফ নিজেই নিশ্চিত করেছেন। পাত্রীর নাম ইসমত শেহরীন ঈশিতা। শেহরীন গোপালগঞ্জের কাশিয়ানীর ইমতিয়াজ হোসেনের মেয়ে। শাফকাত আসিফ রণ ও শেহরীন দুজনই চাকরি করছেন।

আসিফ ফেসবুকে লিখেছেন, মাস ছয়েক আগে আমার ফুপাতো ভাইয়ের ছেলের বিয়ে দিলাম বর্তমান মহামান্য জেলা কিশোরগঞ্জের কটিয়াদীতে, এবার আমার ছেলে শাফকাতের বিয়ে হচ্ছে বর্তমান মাননীয় জেলা গোপালগঞ্জের কাশিয়ানীতে। দুটি জেলার সঙ্গে একেবারে ব্র্যান্ড নিউ সম্বন্ধ । আমার বেয়াই জনাব ইমতিয়াজ হোসেন সাহেবের কনিষ্ঠ কন্যা ইসমত শেহরীন ঈশিতা, শাফকাত আমাদের যৌথ পরিবারের বড় ছেলে।

কুমিল্লার মানুষ আসিফ গোপালগঞ্জের বেয়াই হয়ে গেলেন জানিয়ে বলেন, একটা আদুরে পরিণয়ের দ্বারপ্রান্তে দুই পরিবারের আবেগ, এর চেয়ে খুশির খবর আর হতেই পারে না। চমৎকার হাসিখুশি সুখী একটি একান্নবর্তী পরিবারের সঙ্গে একীভূত হতে পেরে খুব ভালো লাগছে। আমি কুমিল্লাবাসী হিসেবে এখন গোপালগঞ্জের বেয়াই হয়ে গেলাম।


নিজের ছেলে রণ ও পুত্রবধূ শেহরীন সম্পর্কের বিষয়ে আসিফ বলেন, জীবনসংগ্রামে বহু বন্ধুর পথ পেরিয়ে এসে আজ নিজেকে অনেক সুখী মনে হচ্ছে। দুজনই পড়াশোনার পাশাপাশি জব করছে। ঈশিতার ছোট্টবেলা থেকেই তাকে চিনি, লক্ষ্মী মেয়েটাকে মনে মনে পুত্রবধূ হিসেবে চেয়েছি। মহান আল্লাহ সহায় হয়েছেন, আমার ইচ্ছাপূরণ হয়েছে। অক্টোবরের প্রথম সপ্তাহে বিয়ের যাবতীয় উৎসব হবে।

আপাতত কাজ থেকে বিরতি নিচ্ছেন জানিয়ে ও প্রিয়া কোথায় খ্যাত এই কণ্ঠশিল্পী বলেন, হাতে একদম সময় নেই। নিজের কাজ থেকে ছুটি নিলাম দশ দিনের জন্য, প্লিজ! ইন্ডাস্ট্রির কেউ পেমেন্ট দেওয়া ব্যতীত কাজের জন্য এই সময়ে আদেশ দেবেন না। সবার দোয়া চাই আমার সত্য সরল-সহজ ছেলে রণ আর আদরের বউমা ঈশিতার জন্য। শ্বশুররূপে আবারও মেয়ের বাবা হয়েছি, সার্থক এক জনমে মহান আল্লাহর প্রতি শুধুই কৃতজ্ঞতা জানাই।

;

ঐশ্বরিয়ার কৃতজ্ঞতা



বিনোদন ডেস্ক, বার্তা ২৪.কম
ঐশ্বরিয়া

ঐশ্বরিয়া

  • Font increase
  • Font Decrease

ঐশ্বরিয়া রাই। জিতেছেন মিস ওয়ার্ল্ড খেতাব। ১৯৯৭ সালে চলচ্চিত্রে আসেন খ্যাতনামা পরিচালক মণি রত্নমের হাত ধরে। ছবির নাম ‘ইরুভার’। এরপর একাধিক ছবিতে নির্মাতা-অভিনেত্রী জুটি বেঁধেছেন। এবার একই পরিচালকের ‘পোন্নিয়ান সেলভান : ওয়ান’ ছবিতে দেখা যাবে ঐশ্বরিয়াকে।

ছবির প্রচারণা অনুষ্ঠানে প্রিয় পরিচালক মণি রত্মমের প্রতি কৃতজ্ঞতা প্রকাশ করেন ঐশ্বরিয়া। তিনি বলেন, ‘আমি আনুষ্ঠানিক প্রশিক্ষণ নিয়ে অভিনয় জগতে আসিনি। হঠাৎ করেই এই শিল্পজগতে চলে এসেছি এবং মণি রত্নমের সঙ্গে কাজ করার সুযোগ পেয়েছি। ঐশ্বরিয়া বলেন, ‘আমি মণি স্যারের সাথে ইরুভার, গুরু, রাবন, রাভানন এবং এখন পোন্নিয়ান সেলভানে কাজ করতে পেরে নিজেকে অনেক ধন্য মনে করছি। পোন্নিয়ান সেলভান মণি স্যারের স্বপ্নের প্রকল্প। এটির অংশ হওয়ার সুযোগ পাওয়া যে কোনও শিল্পীর স্বপ্ন। এই চলচ্চিত্রের সঙ্গে যুক্ত সবাই এ বিষয়ে আমার সঙ্গে একমত হবে। আমরা তার স্বপ্নের চলচ্চিত্রের অংশ হতে পেরেছি বলে কৃতজ্ঞ অনুভব করছি, সৃজনশীলতার জায়গা থেকেও সন্তুষ্ট’।

;

সরিয়ে ফেলা হলো ‘ব্যাচেলর পয়েন্ট’র চার পর্ব



বিনোদন ডেস্ক, বার্তা ২৪.কম
সরিয়ে ফেলা হলো ‘ব্যাচেলর পয়েন্ট’র চার পর্ব

সরিয়ে ফেলা হলো ‘ব্যাচেলর পয়েন্ট’র চার পর্ব

  • Font increase
  • Font Decrease

কাজল আরেফিন অমি পরিচালিত ধারাবাহিক নাটক ‘ব্যাচেলর পয়েন্ট’ নিয়ে নতুন খবর জানা গেল। নাটকের কিছু সংলাপ নিয়ে দর্শকমহলে তুমুল সমালোচনা হওয়ার পর সেসব পর্ব ইতোমধ্যেই ইউটিউব থেকে সরিয়েও ফেলেছে প্রযোজনা প্রতিষ্ঠান ধ্রুব টিভি।

ব্যাচেলর পয়েন্টের ৪র্থ সিজনের সম্প্রচারিত হচ্ছে ধ্রুব টিভির ইউটিউব চ্যানেলে। সম্প্রতি কয়েকটি পর্ব প্রচারের পর সেখানকার কয়েকটি সংলাপ নিয়ে তুমুল সমালোচনার ঝড় ওঠে দর্শক মহলে। সোশ্যাল মিডিয়ায় অনেকেই সেগুলো নিয়ে নেতিবাচক মন্তব্যও করতে থাকে। দর্শক মহলের এমন প্রতিক্রিয়ার পর ধ্রুব টিভির ভেরিফায়েড ফেসবুক পেজে বিতর্কিত ওই পর্বগুলো সরিয়ে ফেলার ঘোষনা দেওয়া হয়। ফেসবুক পেজে দেওয়া স্ট্যাটাসে জানানো হয়, 'ব্যাচেলর পয়েন্ট সিজন ফোর এর সম্প্রতি প্রচারিত পর্বের কিছু সংলাপ নিয়ে আমাদের সম্মানিত দর্শকবৃন্দ আপত্তি জানিয়েছেন এবং সামাজিক যোগাযোগ মাধ্যমে বিষয়টি নিয়ে আলোচনা-সমালোচনা করছেন। বিষয়টি আমাদের নজরে এসেছে।

সম্মানিত দর্শকদের প্রতি সম্মান রেখে আমরা ব্যাচেলর পয়েন্ট সিজন ফোর এর প্রচারিত আপত্তিকর পর্বগুলো আমাদের প্ল্যাটফর্ম থেকে ডিলিট করে দিয়েছি। এবং ভবিষ্যতে আমরা নাটক প্রচারের ক্ষেত্রে আরও সতর্ক হব। যেন আমাদের সমাজ এবং সংস্কৃতির উপর কোনও বিরূপ প্রভাব না পড়ে।

দর্শকদের ভালোবাসাই আমাদের একান্ত চাওয়া, এই ভালোবাসা নিয়েই আমরা এগিয়ে যেতে চাই।'

এরপর ধ্রুব টিভির ইউটিউব চ্যানেল ঘুরে দেখা যায়- ব্যাচেলর পয়েন্টের ৪র্থ সিজনের ৭৪, ৭৫,৭৬ ও ৭৭তম পর্ব মুছে ফেলা হয়েছে। সাম্প্রতিক সময়ে তুমুল জনপ্রিয়তা পাওয়া ব্যাচেলর পয়েন্ট ধারাবাহিকে অভিনয় করেছেন জিয়াউল হক পলাশ, মিশু সাব্বির, মারজুক রাসেল, চাষি আলম, ফারিয়া শাহরিসহ আরো অনেক জনপ্রিয় তারকা। নাটকের চরিত্রগুলোও দর্শকদের মাঝে বিপুল জনপ্রিয়তা পেয়েছে শুরু থেকেই।

;

হলিউডে অ্যাকশন থ্রিলারে আলিয়া, প্রকাশ্যে ‘হার্ট অফ স্টোন’ প্রথম ঝলক



বিনোদন ডেস্ক, বার্তা২৪.কম
হলিউডে অ্যাকশন থ্রিলারে আলিয়া ভাট, প্রকাশ্যে ‘হার্ট অফ স্টোন’ প্রথম ঝলক

হলিউডে অ্যাকশন থ্রিলারে আলিয়া ভাট, প্রকাশ্যে ‘হার্ট অফ স্টোন’ প্রথম ঝলক

  • Font increase
  • Font Decrease

বর্তমান প্রজন্মের সফল বলিউড তারকা আলিয়া ভাট। এবার নতুন চ্যালেঞ্জের মুখোমুখি তিনি। হলিউডে অভিষেক হচ্ছে তার। ‘হার্ট অফ স্টোন’ ছবির সঙ্গে নতুন জার্নি শুরু হবে আলিয়ার। শনিবার প্রকাশ্যে এসেছে নেটফ্লিক্সের এই থ্রিলারের ফার্স্ট লুক। এই ছবিতে আলিয়ার কো-স্টার হিসাবে দেখা মিলবে গাল গাডোত, জেমি ডরমানদের। আলিয়ার হলিউড ডেবিউ পরিচালনার দায়িত্বে রয়েছেন টম হারপার।

ছবির বেশ কিছু দৃশ্যের ঝলক সোশ্যাল মিডিয়ায় ফাঁস হয়েছিল আগেই, তবে শনিবার ‘টুডাম: এ নেটফ্লিক্স গ্লোবাল ফ্যান ইভেন্ট’-এ আনুষ্ঠানিকভাবে ছবির একটি বিহাইন্ড দ্য সিনস ভিডিয়ো প্রকাশ্যে আনা হয়েছে। সেখানেই কেয়া ধাওয়ান হয়ে সামনে এলেন আলিয়া।

ভিডিয়োতে ধরা পড়েছে মারকাটারি অ্যাকশনের দৃশ্য। এই অ্যাকশন থ্রিলারে কেন্দ্রীয় চরিত্র ব়্যাচেল স্টোনের ভূমিকায় রয়েছেন গাল গাডোত। ছবির অ্যাকশনের দৃশ্যগুলোকে যতটা সম্ভব বাস্তবধর্মী করে তোলা যায় সেই চেষ্টাই গোটা টিম করেছে, বলে ভিডিয়োয় বলতে শোনা গেল গাল গাদোতকে। যাঁকে এখানে সিআইএ (মার্কিন গুপ্তচর সংস্থা)-এর এজেন্ট হিসাবে দেখা যাবে।

প্রেগন্যান্সির প্রথম পর্যায়ে থাকাকালীন এই ছবির শ্যুটিং শুরু করেছিলেন আলিয়া। অন্তঃসত্ত্বা হলেও নিজের কেরিয়ারের সঙ্গে আপোস করতে রাজি ছিলেন না রণবীর ঘরণী। শ্যুটিং-এর ফাঁকের বেশ কিছু ছবিতে আলিয়ার বেবি বাম্পের ঝলক ধরা পড়েছে।

এক সাক্ষাৎকারে আলিয়া জানান, ‘আমি অন্তঃসত্ত্বা হওয়ায় এই অ্যাকশন ছবির শ্যুটিং-এ আমি বাড়তি সতর্ক ছিলাম। কিন্তু সবাই এমনভাবে আমাকে সাহায্য করেছে যে গোটা প্রক্রিয়াটাই খুব সহজ আর আরামদায়ক ছিল আমার জন্য। আমি কোনওদিন ভুলব না আমাকে সকলে কতটা যত্ন করে আগলে রেখেছিল।’

টম ক্রুজের 'মিশন ইম্পসিবল' ধাঁচের একটি ফ্রাইঞ্চসি হতে চলেছে এই ছবি। আগামী বছর নেটফ্লিক্সে মুক্তি পাবে ‘হার্ট অফ স্টোন’।

;