Barta24

বুধবার, ২৬ জুন ২০১৯, ১২ আষাঢ় ১৪২৬

English Version

ভ্রমণ ও খাওয়ার জন্য বছরে ৫৫ লাখ টাকা বেতন!

ভ্রমণ ও খাওয়ার জন্য বছরে ৫৫ লাখ টাকা বেতন!
ছবি: সংগৃহীত
ফাওজিয়া ফারহাত অনীকা
স্টাফ করেসপন্ডেন্ট
লাইফস্টাইল


  • Font increase
  • Font Decrease

বিশ্বের বিভিন্ন দেশ ভ্রমণ করা ও প্রতিদিন নিত্যনতুন খাবার খাওয়ার মতো বিষয়টি অনেকের কাছেই স্বপ্নের মতো আরাধ্য।

কিন্তু এই স্বপ্নময় বিষয়টিকেই চাকরি হিসেবে ঘোষণা করেছে মার্কিন যুক্তরাজ্য ভিত্তিক একটি প্রতিষ্ঠান।

মার্কিন যুক্তরাজ্যের সোশ্যাল এন্টারপ্রাইজ তাদের প্রতিষ্ঠানের জন্য ‘ডিরেক্টর অফ টেস্ট’ পদের জন্য সুযোগ্য একজনকে খুঁজছে। যাকে মূলত বিভিন্ন দেশ ঘুরে নানান ধরণের মুখরোচক খাবার খেতে হবে এবং সবশেষে প্রতিষ্ঠানে তার অভিজ্ঞতার রিপোর্ট তৈরি করে দিতে হবে।

এখানেই শেষে নয়। সফলভাবে নির্বাচিত হওয়া ডিরেক্টরকে বছরে ৫০ মার্কিন পাউন্ড তথা বাংলাদেশি মূদ্রায় ৫৫,০৬,২০০ টাকা বেতন দেওয়া হবে। সাথে ভ্রমণ খরচ, থাকার খরচ, খাবারের খরচ সবকিছুই প্রতিষ্ঠান থেকে দেওয়া হবে। এছাড়া ২৮ দিনের অ্যানুয়াল লিভ তো থাকছেই।

প্রতিষ্ঠানটির নাম ‘ভাইব্রেন্ট ভেগান কো.’। প্ল্যান্ট-বেসড ফুড সাবস্ক্রিপশন সার্ভিস প্রদান করা এই প্রতিষ্ঠানটি যুদ্ধশিশুদের দিয়ে শিশু চ্যারিটিতে কাজ করে। যেখানে বিশ্বব্যাপী শিশুদের ক্ষুধা নিবারণের জন্য কাজ করছে তারা। ‘ডিরেক্টর অফ টেস্ট’ পদের জন্য আপনার ভেগান হবার প্রয়োজন নেই। তবে তারা মূলত কাজ করবে প্ল্যান্ট-বেসড ফুড নিয়েই।

https://img.imageboss.me/width/700/quality:100/https://img.barta24.com/uploads/news/2019/Mar/29/1553842157581.jpg

দারুণ এই চাকরির জন্য ডিরেক্টরকে চার মাস সময়ব্যাপী ভারত, চীন, তুর্কি, চিলি, মেক্সিকো ও জাপানে ঘুরে বেড়াতে হবে। এই সকল দেশের বিভিন্ন ঘরানার খাবার খেয়ে সেই খাবার তৈরির রেসিপি ও উপাদান সম্পর্কে জেনে প্রতিষ্ঠানকে জানাতে হবে।

সপ্তাহে মাত্র ৩৫ ঘণ্টার এই চাকরি কিন্তু এতো সহজেই পাওয়া যাবে না। চাকরির আবেদনকারীকে অবশ্যই তিন বছরের শেফের অভিজ্ঞতা থাকতে হবে। এরপর সিভি পছন্দ হলে আবেদনারীর ব্যাকগ্রাউন্ড দেখা হবে, বিশদ ইন্টারভিউ নেওয়া হবে এবং তাদের খাবারের টেস্ট টেস্ট সম্পর্কিত পরীক্ষা নেওয়া হবে।

ভাইব্রেন্ট ভেগান কো. এর প্রতিষ্ঠাতা ইয়েন বুরক-হ্যামিলটন বলেন, ‘আমরা এমন একজনকে খুঁজছি যার মাঝে ট্যালেন্ট আছে। কারণ আমি বিশ্বাস করি এমন মানুষই একটি প্রতিষ্ঠানে সফলতা আনতে পারে। এর আগে এতোটা উত্তেজনাপূর্ণ কোন পদের জন্য লোক নেওয়া হয়নি। এটা খুবই বৈচিত্রপূর্ণ চাকরি। যদিও এতে বেশ কিছু ভিন্ন বিষয় রয়েছে, তবুও এই চাকরির চাহিদা অনেক’।

আরও পড়ুন: যে কারণে জাফরান সবচেয়ে দামি মশলা

আরও পড়ুন: চিজবার্গারের সুঘ্রাণযুক্ত সেন্টেড ক্যান্ডেল!

আপনার মতামত লিখুন :

ঘরে তৈরি গরম ও মুচমুচে জিলাপি

ঘরে তৈরি গরম ও মুচমুচে জিলাপি
জিলাপি, ছবি: সংগৃহীত

পছন্দের ও পুরনো ঘরানার মিষ্টান্নের মাঝে প্রথমেই মাথায় আসবে জিলাপির কথা।

রসে টইটম্বুর, গরম ও মুচমুচে জিলাপির তুলনা হয় না। অনেকে মিষ্টি ঘরানার খাবার মাঝে শুধু জিলাপি খেতেই পছন্দ করেন।

কিন্তু মনমতো জিলাপি খুঁজে পাওয়াও বেশ ঝক্কির কাজ। খোঁজাখুঁজি বাদ দিয়ে ঘরেই কিন্তু তৈরি করে নেওয়া যাবে গরম গরম জিলাপি। একদম পারফেক্ট ও সুস্বাদু জিলাপি তৈরির জন্য দেখে নিন আজকের রেসিপিটি।

জিলাপি তৈরিতে যা লাগবে

https://img.imageboss.me/width/700/quality:100/https://img.barta24.com/uploads/news/2019/Jun/26/1561554595535.JPG

১. এক কাপ ময়দা।

২. দেড় টেবিল চামচ কর্ন ফ্লাওয়ার।

৩. দেড় টেবিল চামচ ময়দা।

৪. দুই টেবিল চামচ ঘি।

৫. এক চিমটি লবণ।

৬. এক চা চামচ চিনি।

৭. এক চা চামচ ইস্ট।

৮. এক কাপ পরিমাণ গরম পানি।

৯. কমলা ফুড কালার (ঐচ্ছিক)

চিনির সিরা তৈরিতে যা লাগবে

https://img.imageboss.me/width/700/quality:100/https://img.barta24.com/uploads/news/2019/Jun/26/1561554614844.JPG

১. দেড় কাপ চিনি।

২. এক কাপ পানি।

৩. তিনটি লবঙ্গ।

৪. দুইটি এলাচ গুঁড়া।

৫. এক চিমটি পরিমাণ জাফরান (ঐচ্ছিক)

জিলাপি যেভাবে তৈরি করতে হবে

https://img.imageboss.me/width/700/quality:100/https://img.barta24.com/uploads/news/2019/Jun/26/1561554627238.JPG

১. আধা কাপ পরিমাণ গরম পানিতে চিনি ও ইস্ট মিশিয়ে ঢেকে রেখে দিতে হবে।

২. বড় একটি পাত্রে ময়দা, বেসন ও লবণ একসাথে মেশাতে হবে। এতে ঘি মিশিয়ে পুনরায় মেশাতে হবে। এতে ইস্ট মিশ্রিত পানি মিশিয়ে হুইস্ক করতে হবে। এতে গরম পানি মিশিয়ে প্যানকেকের মতো স্মুদ ব্যাটার তৈরি করতে হবে। এতে যদি ফুড কালার যোগ করতে চান তবে এক-দুই ফোঁটা ফুড কালার দিয়ে মিশিয়ে তুলনামূলক উষ্ণ স্থানে গাঁজনের জন্য ২-৩ ঘণ্টা রেখে দিতে হবে। খেয়াল রাখতে হবে, এই সময়টুকুর মাঝে পাত্রটি একেবারেই নাড়াচাড়া করা যাবে না।

৩. ব্যাটারে গাঁজন হয়ে গেলে চিনির সিরা তৈরি করতে হবে। একটি সসপ্যানে চিনি, পানি, লবঙ্গ, এলাচ গুঁড়া ও জাফরান একসাথে মিশিয়ে মাঝারি তাপে ৭-১০ মিনিট জ্বাল দিতে হবে। চিনির সিরা খুব বেশি ঘন ও স্টিকি হবে না।

৪. এবারে জিলাপি ভাজার পালা। সমান্তরাল ফ্রাইং প্যানে পর্যাপ্ত পরিমাণ তেল নিয়ে গরম করে তেলের তাপমাত্রা মাঝারি আঁচে রাখতে হবে। জিপলক ব্যাগে জিলাপির ব্যাটার নিয়ে ব্যাগের এক কোনার অংশ অল্প একটু কেটে নিতে হবে।

৫. তেল সঠিক মাত্রায় গরম হয়ে গেলে তেলের উপরে জিপলক ব্যাগ ধরে ধীরে ধীরে ব্যাগ চাপ দিয়ে ব্যাটার তেলে ছাড়তে হবে। ব্যাটার তেলে ছাড়ার সময় জিপালির মতো গোলাকৃতির প্যাঁচ তৈরি করতে হবে।

৬. প্রতিটি জিলাপি ভাজা হতে বড়জোর ৫-৬ মিনিট সময় লাগবে। জিপালি উজ্জ্বল বাদামী বর্ণ ধারণ করলে তেল থেকে তুলে সরাসরি চিনির সিরাতে দিয়ে দিতে হবে।

চিনির সিরায় মিনিট দুয়েক ভিজিয়ে উঠিয়ে নিয়ে গরম গরম পরিবেশন করতে হবে।

আরও পড়ুন: মিষ্টি মুখে আমের রসগোল্লা

আরও পড়ুন: দশ মিনিটে বাদামের স্বাদে কুলফি মালাই

বাস্তবেই রয়েছে কল্পনার ‘জর্স’

বাস্তবেই রয়েছে কল্পনার ‘জর্স’
জর্স, ছবি: ক্যারিনা মেইওয়াল্ড

ছোটবেলায় কল্পনার জগতে ঘোড়া ও জেব্রার মিশেলে হাইব্রিড ও কাল্পনিক এক প্রাণীর কথা ভেবে আনন্দ পেতাম আমরা অনেকেই।

ইউনিকর্নের মতোই এমন ধরণের প্রাণী শুধু কল্পনার জগতেই বন্দী থাকবে, এমন ধারণা বদ্ধমূল হয়ে যাওয়াটাই স্বাভাবিক।

কিন্তু পুরো বিশ্বকে চমকে দিয়েছে ঘোড়া ও জেব্রার হাইব্রিডে জন্ম নেওয়া, অবাক করে দেওয়ার মতো প্রাণী ‘জর্স’। জেব্রা ও হর্স এর মিশেলে রাখা হয়েছে এই প্রাণীটির নাম।

https://img.imageboss.me/width/700/quality:100/https://img.barta24.com/uploads/news/2019/Jun/26/1561546232830.jpg

জার্মানির ঘোড়া বিষয়ক ফটোগ্রাফার ক্যারিনা মেইওয়াল্ডের ক্যামেরায় ধরা পরে জর্সের উপস্থিতি। তার তোলা ছবিগুলো প্রকাশিত হওয়ার পর পুরো ইন্টারনেট জগত অবাক ও বিস্মিত হয়ে পড়েছে।

জেব্রা স্ট্যালিওন ও হর্স মের এর মাঝে হাইব্রিড তথা শংকরের ফলে জন্ম নেয় ছবির জর্স, যার নাম জুরি। প্রায় ছয় বছরের বেশি সময় ধরে ঘোড়াদের ছবি তোলার কাজে সময় ব্যয় করা ক্যারিনা জানান, দেড় বছর বয়সী জুরির ছবি তুলতে গিয়ে সে বুঝতে পেরেছেন- ঘোড়াদের চাইতে স্বভাবে ও আচরণে অনেকটা ভিন্ন হয়ে থাকে জর্স।

https://img.imageboss.me/width/700/quality:100/https://img.barta24.com/uploads/news/2019/Jun/26/1561546264018.jpg

নতুন এই প্রাণীটির মধ্যে বন্য প্রাণীর সহজাত স্বভাব প্রকট আকারে দেখা যায়। যে কারণে শক্তিশালী এই প্রাণীটির ছবি তলার জন্য ক্যারিনাকে নতুন পদ্ধতি বের করতে হয়েছিল।

https://img.imageboss.me/width/700/quality:100/https://img.barta24.com/uploads/news/2019/Jun/26/1561546289760.jpg

যেখানে ঘোড়া বেশ হালকা চালে থাকার মতো প্রাণী, সেখানে জর্স যেন লড়াই করার জন্য সদা প্রস্তুত। ঘোড়াদের মাঝে আগ্রহভাব কাজ করে। এদিকে জর্স ঠিক তার উল্টো। তারা খুব সহজেই বিরক্ত হয়ে যায়। মূলত এ কারণেই জর্সদের ছবি তোলার বিষয়টি বেশ চ্যালেঞ্জিং ছিল।

আফ্রিকার দুর্গম স্থানগুলোতে ট্রেকিংয়ের মাধ্যমে জিনিসপত্র আনা নেওয়ার কাজের জন্যেই জর্স ব্রিড করা হয়। শক্তিশালী, হালকা খাদ্যাভ্যাসে অভ্যস্ত ও প্রবল রোগ প্রতিরোধ ক্ষমতা সম্পন্ন ঘোড়া ও জেব্রার মিশেল জন্ম নেওয়া জর্স চমৎকার একটি প্রাণী।

https://img.imageboss.me/width/700/quality:100/https://img.barta24.com/uploads/news/2019/Jun/26/1561546301758.jpg

ক্যারিনা জানান, আফ্রিকার বাইরে খুব সীমিত কিছু অঞ্চলে জর্সের দেখা পেয়েছেন তিনি। তবে এই ব্রিড খুবই দুর্লভ হওয়ায় এদের দেখা সচরাচর পাওয়াই যায় না।

আরও পড়ুন: কল্পনা নয়, বাস্তবেই মিলবে যে সকল প্রাণীর খোঁজ!

আরও পড়ুন: যে পাখিগুলো কাগজে তৈরি!

এ সম্পর্কিত আরও খবর

Barta24 News

আর্কাইভ

শনি
রোব
সোম
মঙ্গল
বুধ
বৃহ
শুক্র