Barta24

বুধবার, ২৬ জুন ২০১৯, ১২ আষাঢ় ১৪২৬

English Version

লবণ নয়, খাদ্য তালিকায় থাকুক বিট লবণ

লবণ নয়, খাদ্য তালিকায় থাকুক বিট লবণ
ছবি: সংগৃহীত
ফাওজিয়া ফারহাত অনীকা
স্টাফ করেসপন্ডেন্ট
লাইফস্টাইল


  • Font increase
  • Font Decrease

সাধারণ লবণ খাওয়া স্বাস্থ্যের পক্ষে ভীষণ ক্ষতিকর, এই তথ্যটা নিশ্চয় অজানা নয়।

তবুও বাড়তি লবণ খাওয়া হয় নানানভাবে। সালাদ, চাটনি কিংবা আচার তৈরিতে, টক জাতীয় কোন ফলের সঙ্গে অথবা কোন শরবত তৈরিতে প্রয়োজন হয় লবণ। স্বল্প পরিমাণ লবণ খাওয়া হলেও, নিয়মিত সাদা লবণ খাওয়ার ফলে নেতিবাচক প্রভাব পড়ে শরীরের ওপর।

প্রতিদিনের খাদ্য তালিকা থেকে ক্ষতিকর সাদা লবণ বাদ দিয়ে, খেতে হবে বিট লবণ। যাকে বলা হয়ে থাকে ‘রক সল্ট’ কিংবা ব্ল্যাক সল্ট’। যেখানে সাদা লবণে রয়েছে নানান ধরণের নেতিবাচক প্রভাব, সেখানে বিট লবণের রয়েছে নানান ধরণের স্বাস্থ্য উপকারিতা।

আয়ুর্বেদিক ওষুধে ব্যবহৃত হওয়া এই বিট লবণে আছে মিনারেল, কপার, আয়রন, পটাশিয়াম, ম্যাগনেসিয়াম, ক্যালসিয়ামসহ আরও নানান ধরণের পুষ্টি উপাদান। প্রতিদিনের খাদ্য তালিকায় বিট লবণ রাখার কিছু উপকারিতা তুলে ধরা হলো।

পেটের সমস্যা দূর করে

খাদ্য পরিপাকজনিত সমস্যা, পেটে গ্যাস হওয়া, বুক জ্বালাপোড়া করা এমনকি কোষ্ঠ্যকাঠিন্যের সমস্যা কমাতেও সাহায্য করে বিট লবণ।

ক্ষুধাভাব কমায়

ওজন কমানোর চেষ্টায় থাকলে বিট লবণ ভালো একটি সহায়ক হতে পারে। ঘনঘন ক্ষুধাভাব কমানোর জন্য বিট লবণ উপকারি।

https://img.imageboss.me/width/700/quality:100/https://img.barta24.com/uploads/news/2018/Oct/15/1539601074740.jpg

রক্তচাপ নিয়ন্ত্রণে রাখে

সাদা লবণ যেখানে রক্তচাপ বৃদ্ধির জন্য দায়ী, সেখানে বিট লবণ উচ্চরক্তচাপকে নিয়ন্ত্রণে আনতে কাজ করে। এমনকি রক্তচাপকে নিয়ন্ত্রণে রাখার জন্যে সাদা লবণের পরিবর্তে বিট লবণ খাওয়ার পরামর্শ দেন ডাক্তাররা।

ঘুমের সমস্যা কমায়

রাতে ভালো ঘুম না হলে অথবা ইনসমনিয়ার সমস্যা থাকলে নিয়মিত বিট লবণ খাওয়ার অভ্যাস গড়ে তুলুন। ঘুমের সমস্যা মূলত দেখা দেয় শরীরে মেলাটোনিনের মাত্রার তারতম্য দেখা দিলা। বিট লবণ এই মেলাটোনিনের মাত্রাকে স্থিতিশীল করতে সাহায্য করে।

ঠাণ্ডার সমস্যায় উপকারি

সাইনাসের সমস্যা, শুকনা কাশি, গলাব্যথ্যা কিংবা ঠাণ্ডা সর্দির সমস্যায় গরম পানির সঙ্গে বিট লবণ মিশিয়ে গার্গল করলে উপকার পাওয়া যাবে।

ক্লান্তি দূর করে

কর্মব্যস্ত সারাদিনের ক্লান্তি দূর করতে এক গ্লাস পানি বিট লবণ ও এক টুকরো লেবু মিশিয়ে পান করুন। দেখবেন মুহূর্তেই চাঙ্গা বোধ করছেন।

ত্বকের সুরক্ষায় বিট লবণ

স্বাস্থ্য উপকারিতার কথা তো জানানো হলো, এবার জানুন বিট লবণ ব্যবহারে ত্বকের উপকারিতা। এই লবণ ত্বকের উপরিভাগের ময়লা ও মরা চামড়া দূর করতে প্রাকৃতিক স্ক্রাবার হিসেবে কাজ করে। এছাড়া, বন্ধ রোমকূপ খুলে ভেতরের ময়লা দূর করে ত্বকে প্রাকৃতিক উজ্জ্বলতা এনে দিতেও দারুণ কার্যকর বিট লবণ।

আপনার মতামত লিখুন :

ঘরে তৈরি গরম ও মুচমুচে জিলাপি

ঘরে তৈরি গরম ও মুচমুচে জিলাপি
জিলাপি, ছবি: সংগৃহীত

পছন্দের ও পুরনো ঘরানার মিষ্টান্নের মাঝে প্রথমেই মাথায় আসবে জিলাপির কথা।

রসে টইটম্বুর, গরম ও মুচমুচে জিলাপির তুলনা হয় না। অনেকে মিষ্টি ঘরানার খাবার মাঝে শুধু জিলাপি খেতেই পছন্দ করেন।

কিন্তু মনমতো জিলাপি খুঁজে পাওয়াও বেশ ঝক্কির কাজ। খোঁজাখুঁজি বাদ দিয়ে ঘরেই কিন্তু তৈরি করে নেওয়া যাবে গরম গরম জিলাপি। একদম পারফেক্ট ও সুস্বাদু জিলাপি তৈরির জন্য দেখে নিন আজকের রেসিপিটি।

জিলাপি তৈরিতে যা লাগবে

https://img.imageboss.me/width/700/quality:100/https://img.barta24.com/uploads/news/2019/Jun/26/1561554595535.JPG

১. এক কাপ ময়দা।

২. দেড় টেবিল চামচ কর্ন ফ্লাওয়ার।

৩. দেড় টেবিল চামচ ময়দা।

৪. দুই টেবিল চামচ ঘি।

৫. এক চিমটি লবণ।

৬. এক চা চামচ চিনি।

৭. এক চা চামচ ইস্ট।

৮. এক কাপ পরিমাণ গরম পানি।

৯. কমলা ফুড কালার (ঐচ্ছিক)

চিনির সিরা তৈরিতে যা লাগবে

https://img.imageboss.me/width/700/quality:100/https://img.barta24.com/uploads/news/2019/Jun/26/1561554614844.JPG

১. দেড় কাপ চিনি।

২. এক কাপ পানি।

৩. তিনটি লবঙ্গ।

৪. দুইটি এলাচ গুঁড়া।

৫. এক চিমটি পরিমাণ জাফরান (ঐচ্ছিক)

জিলাপি যেভাবে তৈরি করতে হবে

https://img.imageboss.me/width/700/quality:100/https://img.barta24.com/uploads/news/2019/Jun/26/1561554627238.JPG

১. আধা কাপ পরিমাণ গরম পানিতে চিনি ও ইস্ট মিশিয়ে ঢেকে রেখে দিতে হবে।

২. বড় একটি পাত্রে ময়দা, বেসন ও লবণ একসাথে মেশাতে হবে। এতে ঘি মিশিয়ে পুনরায় মেশাতে হবে। এতে ইস্ট মিশ্রিত পানি মিশিয়ে হুইস্ক করতে হবে। এতে গরম পানি মিশিয়ে প্যানকেকের মতো স্মুদ ব্যাটার তৈরি করতে হবে। এতে যদি ফুড কালার যোগ করতে চান তবে এক-দুই ফোঁটা ফুড কালার দিয়ে মিশিয়ে তুলনামূলক উষ্ণ স্থানে গাঁজনের জন্য ২-৩ ঘণ্টা রেখে দিতে হবে। খেয়াল রাখতে হবে, এই সময়টুকুর মাঝে পাত্রটি একেবারেই নাড়াচাড়া করা যাবে না।

৩. ব্যাটারে গাঁজন হয়ে গেলে চিনির সিরা তৈরি করতে হবে। একটি সসপ্যানে চিনি, পানি, লবঙ্গ, এলাচ গুঁড়া ও জাফরান একসাথে মিশিয়ে মাঝারি তাপে ৭-১০ মিনিট জ্বাল দিতে হবে। চিনির সিরা খুব বেশি ঘন ও স্টিকি হবে না।

৪. এবারে জিলাপি ভাজার পালা। সমান্তরাল ফ্রাইং প্যানে পর্যাপ্ত পরিমাণ তেল নিয়ে গরম করে তেলের তাপমাত্রা মাঝারি আঁচে রাখতে হবে। জিপলক ব্যাগে জিলাপির ব্যাটার নিয়ে ব্যাগের এক কোনার অংশ অল্প একটু কেটে নিতে হবে।

৫. তেল সঠিক মাত্রায় গরম হয়ে গেলে তেলের উপরে জিপলক ব্যাগ ধরে ধীরে ধীরে ব্যাগ চাপ দিয়ে ব্যাটার তেলে ছাড়তে হবে। ব্যাটার তেলে ছাড়ার সময় জিপালির মতো গোলাকৃতির প্যাঁচ তৈরি করতে হবে।

৬. প্রতিটি জিলাপি ভাজা হতে বড়জোর ৫-৬ মিনিট সময় লাগবে। জিপালি উজ্জ্বল বাদামী বর্ণ ধারণ করলে তেল থেকে তুলে সরাসরি চিনির সিরাতে দিয়ে দিতে হবে।

চিনির সিরায় মিনিট দুয়েক ভিজিয়ে উঠিয়ে নিয়ে গরম গরম পরিবেশন করতে হবে।

আরও পড়ুন: মিষ্টি মুখে আমের রসগোল্লা

আরও পড়ুন: দশ মিনিটে বাদামের স্বাদে কুলফি মালাই

বাস্তবেই রয়েছে কল্পনার ‘জর্স’

বাস্তবেই রয়েছে কল্পনার ‘জর্স’
জর্স, ছবি: ক্যারিনা মেইওয়াল্ড

ছোটবেলায় কল্পনার জগতে ঘোড়া ও জেব্রার মিশেলে হাইব্রিড ও কাল্পনিক এক প্রাণীর কথা ভেবে আনন্দ পেতাম আমরা অনেকেই।

ইউনিকর্নের মতোই এমন ধরণের প্রাণী শুধু কল্পনার জগতেই বন্দী থাকবে, এমন ধারণা বদ্ধমূল হয়ে যাওয়াটাই স্বাভাবিক।

কিন্তু পুরো বিশ্বকে চমকে দিয়েছে ঘোড়া ও জেব্রার হাইব্রিডে জন্ম নেওয়া, অবাক করে দেওয়ার মতো প্রাণী ‘জর্স’। জেব্রা ও হর্স এর মিশেলে রাখা হয়েছে এই প্রাণীটির নাম।

https://img.imageboss.me/width/700/quality:100/https://img.barta24.com/uploads/news/2019/Jun/26/1561546232830.jpg

জার্মানির ঘোড়া বিষয়ক ফটোগ্রাফার ক্যারিনা মেইওয়াল্ডের ক্যামেরায় ধরা পরে জর্সের উপস্থিতি। তার তোলা ছবিগুলো প্রকাশিত হওয়ার পর পুরো ইন্টারনেট জগত অবাক ও বিস্মিত হয়ে পড়েছে।

জেব্রা স্ট্যালিওন ও হর্স মের এর মাঝে হাইব্রিড তথা শংকরের ফলে জন্ম নেয় ছবির জর্স, যার নাম জুরি। প্রায় ছয় বছরের বেশি সময় ধরে ঘোড়াদের ছবি তোলার কাজে সময় ব্যয় করা ক্যারিনা জানান, দেড় বছর বয়সী জুরির ছবি তুলতে গিয়ে সে বুঝতে পেরেছেন- ঘোড়াদের চাইতে স্বভাবে ও আচরণে অনেকটা ভিন্ন হয়ে থাকে জর্স।

https://img.imageboss.me/width/700/quality:100/https://img.barta24.com/uploads/news/2019/Jun/26/1561546264018.jpg

নতুন এই প্রাণীটির মধ্যে বন্য প্রাণীর সহজাত স্বভাব প্রকট আকারে দেখা যায়। যে কারণে শক্তিশালী এই প্রাণীটির ছবি তলার জন্য ক্যারিনাকে নতুন পদ্ধতি বের করতে হয়েছিল।

https://img.imageboss.me/width/700/quality:100/https://img.barta24.com/uploads/news/2019/Jun/26/1561546289760.jpg

যেখানে ঘোড়া বেশ হালকা চালে থাকার মতো প্রাণী, সেখানে জর্স যেন লড়াই করার জন্য সদা প্রস্তুত। ঘোড়াদের মাঝে আগ্রহভাব কাজ করে। এদিকে জর্স ঠিক তার উল্টো। তারা খুব সহজেই বিরক্ত হয়ে যায়। মূলত এ কারণেই জর্সদের ছবি তোলার বিষয়টি বেশ চ্যালেঞ্জিং ছিল।

আফ্রিকার দুর্গম স্থানগুলোতে ট্রেকিংয়ের মাধ্যমে জিনিসপত্র আনা নেওয়ার কাজের জন্যেই জর্স ব্রিড করা হয়। শক্তিশালী, হালকা খাদ্যাভ্যাসে অভ্যস্ত ও প্রবল রোগ প্রতিরোধ ক্ষমতা সম্পন্ন ঘোড়া ও জেব্রার মিশেল জন্ম নেওয়া জর্স চমৎকার একটি প্রাণী।

https://img.imageboss.me/width/700/quality:100/https://img.barta24.com/uploads/news/2019/Jun/26/1561546301758.jpg

ক্যারিনা জানান, আফ্রিকার বাইরে খুব সীমিত কিছু অঞ্চলে জর্সের দেখা পেয়েছেন তিনি। তবে এই ব্রিড খুবই দুর্লভ হওয়ায় এদের দেখা সচরাচর পাওয়াই যায় না।

আরও পড়ুন: কল্পনা নয়, বাস্তবেই মিলবে যে সকল প্রাণীর খোঁজ!

আরও পড়ুন: যে পাখিগুলো কাগজে তৈরি!

এ সম্পর্কিত আরও খবর

Barta24 News

আর্কাইভ

শনি
রোব
সোম
মঙ্গল
বুধ
বৃহ
শুক্র