Barta24

রোববার, ২১ জুলাই ২০১৯, ৬ শ্রাবণ ১৪২৬

English Version

কালো প্রাডোতে তুলে নিয়ে যায় সোহেল তাজের ভাগ্নেকে

কালো প্রাডোতে তুলে নিয়ে যায় সোহেল তাজের ভাগ্নেকে
সোহেল তাজের ভাগ্নে সৈয়দ ইফতেখার আলম প্রকাশ ওরফে সৌরভ। ছবি: সংগৃহীত
স্টাফ করেসপন্ডেন্ট
বার্তা২৪.কম
চট্টগ্রাম


  • Font increase
  • Font Decrease

চট্টগ্রাম নগরীর পাঁচলাইশ থানা এলাকার এফমি প্লাজার সামনে থেকে কালো রঙয়ের প্রাডো গাড়িতে তুলে নিয়ে যাওয়া হয় সাবেক স্বরাষ্ট্র প্রতিমন্ত্রী সোহেল তাজের ভাগ্নে সৈয়দ ইফতেখার আলম প্রকাশ ওরফে সৌরভকে। ওইদিন (৯ জুন) বিকেলে চাচাতো ভাইয়ের মোটরসাইকেলে এফমি প্লাজার সামনে আসেন সৌরভ।

পাঁচ মিনিট পর একটি কল রিসিভ করে এফমি প্লাজার পেছনে যান সৌরভ। এখান থেকেই ৫ ব্যক্তি কালো প্রাডোতে তাকে তুলে নিয়ে অন্যত্র চলে যায়। এ সময় সৌরভের হাতে একটি সাদা খাম ছিল।

এফমি প্লাজার নিচতলায় অবস্থিত আগোরা সুপার সপের সিসি ক্যামেরায় এসব চিত্র ধরা পড়ে।

সৌরভের চাচাতো ভাই সাহেদুর রহমান বার্তা২৪.কমকে জানান, হাতে থাকা খামে সৌরভের সিভি ছিল। চাকরি দেওয়ার কথা বলে সৌরভকে ডাকা হয়েছিল। চাচাতো ভাই সাহেদুর সৌরভকে মোটরসাইকেলে এনে এফমি প্লাজার সামনে নামিয়ে দেন। ১০-১৫ মিনিট বাদে ফোন পাওয়ার পর সৌরভকে এসে নিয়ে যাবেন বলে চলে আসেন সাহেদুর। কিন্তু ১৫ মিনিট পরে আর ফোন আসেনি। পরে সৌরভের মোবাইলে কল দিলে তা বন্ধ পান সাহেদুর।

সোহেল তাজের অপর ভাগ্নে সৌরভের বড় ভাই তানভীর শাহরিয়ার সম্রাট বার্তা২৪.কমকে বলেন, ‘সিসি ক্যামেরায় সৌরভকে নিয়ে যাওয়ার ফুটেজ আছে। কালো প্রাডো গাড়িটি কার সেটি বের করলেই সৌরভের অবস্থান জানা যাবে। কিন্তু ৬ দিন যাবৎ পুলিশ কিছুই করতে পারেনি। যত দিন যাচ্ছে তত আমাদের ভয় বৃদ্ধি পাচ্ছে।’

জানা গেছে, সৈয়দ ইফতেখার আলম প্রকাশ (সৌরভ) ৯ জুন চট্টগ্রাম প্রবর্তক মোড়স্থ এফমি প্লাজার সামনে থেকে নিখোঁজ হন। এ ঘটনায় সৌরভের বাবা ইদ্রিস আলম বাদী হয়ে ১০ জুন পাঁচলাইশ থানায় একটি জিডি (৫২০) করেন। জিডিতে তিনি সৌরভকে অপহরণ করা হয়েছে বলে উল্লেখ করেন।

চট্টগ্রাম মেট্রোপলিটন পুলিশের উপকমিশনার বিজয় বসাক বার্তা২৪.কমকে বলেন, ‘অপহরণ বা নিখোঁজ হোক, দুইটি বিষয়ই মাথায় রেখে আমরা কাজ করছি।’

পাঁচলাইশ থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) আবুল কাসেম ভূঁইয়া বার্তা২৪.কমকে জানান, একটি আইটি কোম্পানিতে নিয়োগ হয়েছে এমন ফোন পেয়ে সেখানে যোগদানের জন্য চট্টগ্রামে এসেছিলেন সৌরভ। তিনি চট্টগ্রামের এফমি প্লাজার সামনে এসেই নিখোঁজ হন। তাকে ফোন করে এখানে ডেকে আনা হয়েছিল। ওই ফোন নম্বর নিয়ে কাজ করা হচ্ছে। সম্ভাব্য বিভিন্ন জায়গায় খোঁজ নেওয়া হচ্ছে।

এদিকে শুক্রবার (১৪ জুন) রাত ১টার দিকে সোহেল তাজ নিজের ভেরিফায়েড ফেসবুক পেজে দেওয়া এক পোস্টে অভিযোগ করেন তার ভাগ্নেকে অপহরণ করা হয়েছে।

আরও পড়ুন: সোহেল তাজের ভাগ্নে নিখোঁজ না অপহৃত?

আপনার মতামত লিখুন :

জাতীয় ছাত্র সমাজের ১৫৩ সদস্য বিশিষ্ট সম্মেলন প্রস্তুতি কমিটি

জাতীয় ছাত্র সমাজের ১৫৩ সদস্য বিশিষ্ট সম্মেলন প্রস্তুতি কমিটি
জাতীয় ছাত্র সমাজ

 

জামাল উদ্দিন আহবায়ক ও ফয়সাল দিদার দিপুকে সদস্য সচিব করে জাতীয় ছাত্র সমাজ কেন্দ্রীয় সম্মেলন প্রস্তুতি কমিটির অনুমোদন দিয়েছে জাতীয় পাটির চেয়ারম্যান জিএম কাদের কাদের।

রোববার (২১ জুলাই) জাতীয় পার্টির মহাসচিব মসিউর রহমান রাঙ্গার সুপারিশে ১৫৩ সদস্য বিশিষ্ট সম্মেলন প্রস্তুতি কমিটির অনুমোদন করা হয় বলে বিজ্ঞপ্তিতে জানানো হয়েছে। সম্মেলন প্রস্তুতি কমিটি আগামী ৩ মাসের মধ্যে মেয়াদোত্তীর্ণ ইউনিট কমিটি গঠন করে কেন্দ্রীয় সম্মেলন আয়োজন করবে।

জাতীয় পার্টির চেয়ারম্যান জিএম কাদের ও মহাসচিব মসিউর রহমান রাঙ্গাকে ফুল দিয়ে শুভেচ্ছা জানান নব গঠিত ছাত্র সমাজ নেতৃবৃন্দ।

অন্যদের মধ্যে উপস্থিত ছিলেন, প্রেসিডিয়াম সদস্য রেজাউল ইসলাম ভূইয়া, আলমগীর সিকদার লোটন, যুগ্ম মহাসচিব গোলাম মোহাম্মদ রাজু, সাংগঠনিক সম্পাদক শাহ্-ই-আজম, নির্মল চন্দ্র দাশ, ছাত্র বিষয়ক সম্পাদক সৈয়দ ইফতেখার আহসান হাসান, যুগ্ম ছাত্র বিষয়ক সম্পাদক মিজানুর রহমান মিরু প্রমুখ।

সংসদে বিরোধীদলীয় নেতা হচ্ছেন রওশন এরশাদ

সংসদে বিরোধীদলীয় নেতা হচ্ছেন রওশন এরশাদ
জাতীয় পার্টির কো-চেয়ারম্যান রওশন এরশাদ/ ছবি: সংগৃহীত

জাতীয় পার্টির (জাপা) সিনিয়র কো-চেয়ারম্যান রওশন এরশাদ জাতীয় সংসদের বিরোধীদলীয় নেতা হচ্ছেন। বার্তাটোয়েন্টিফোর.কম-কে এমন তথ্য নিশ্চিত করেছেন জাপা মহাসচিব মসিউর রহমান রাঙ্গা।

জাপা মহাসচিব বলেন, ‘রওশন এরশাদ বিরোধীদলীয় নেতা হচ্ছেন এখন পর্যন্ত এমন সিদ্ধান্ত রয়েছে বলে জানি। ম্যাডাম (রওশন এরশাদ) সংসদে বিরোধীদলীয় নেতা আর জিএম কাদের পার্টি পরিচালনা করবেন।’

রওশন এরশাদ বর্তমান সংসদে বিরোধীদলীয় উপনেতা হিসেবে রয়েছেন। জাতীয় পার্টির চেয়ারম্যান হুসেইন মুহম্মদ এরশাদ ছিলেন বিরোধীদলীয় নেতা। এরশাদের মৃত্যূতে বিরোধীদলীয় নেতার পদ শূন্য হয়েছে।

একাদশ সংসদে প্রথমে বিরোধীদলীয় উপনেতা ছিলেন জিএম কাদের। হুসেইন মুহম্মদ এরশাদ গত ৭ এপ্রিল চিঠি দিয়ে ছোট ভাই জিএম কাদেরকে সংসদে উপনেতার পদ থেকে সরিয়ে দেন। সেই পদে বসান স্ত্রী রওশন এরশাদকে।

পার্টির অপর একটি সূত্র জানিয়েছে, শনিবার (২০ জুলাই) দুপুরে রওশনের বাসায় গিয়ে বৈঠক করেন জিএম কাদের। সেই বৈঠকে রওশন জিএম কাদেরকে পার্টির চেয়ারম্যান হিসেবে আশির্বাদ করেন। পাশাপাশি তিনি নিজে (রওশন) বিরোধীদলীয় নেতা হওয়ার অভিপ্রায় ব্যক্ত করেন।

জিএম কাদেরকে রওশন বলেছেন, ‘তুমি পার্টির চেয়ারম্যান হিসেবে দলকে শক্তিশালী কর। আর আমি সংসদীয় দলের নেতা হিসেবে থাকি।’

এ সম্পর্কিত আরও খবর

Barta24 News

আর্কাইভ

শনি
রোব
সোম
মঙ্গল
বুধ
বৃহ
শুক্র