Barta24

বুধবার, ২৪ জুলাই ২০১৯, ৮ শ্রাবণ ১৪২৬

English Version

সুন্দরগঞ্জে জমে উঠেছে ভোটের প্রচারণা

সুন্দরগঞ্জে জমে উঠেছে ভোটের প্রচারণা
ছবি: বার্তা২৪.কম
ডিস্ট্রিক্ট করেসপন্ডেন্ট
বার্তা২৪.কম
গাইবান্ধা


  • Font increase
  • Font Decrease

আর মাত্র একদিন বাদেই অনুষ্ঠিত হবে গাইবান্ধার সুন্দরগঞ্জ উপজেলা পরিষদ নির্বাচনের ভোটগ্রহণ। পঞ্চম ধাপের তফসিল অনুযায়ী আগামী ১৮ জুন ১১১টি কেন্দ্রে একযোগে অনুষ্ঠিত হবে এ ভোটগ্রহণ।

তিনটি পদের বিপরীতে ইতোমধ্যে ১৪ জন প্রার্থী ভোটের মাঠে লড়ছেন। প্রায় সাড়ে তিন লাখ ভোটারের পেছনে বিরামহীনভাবে দাপিয়ে বেড়াচ্ছেন তারা। প্রার্থীদের মধ্যে চেয়ারম্যান পদে চারজন, ভাইস চেয়ারম্যান (পুরুষ) পদে ছয়জন ও মহিলা ভাইস চেয়ারম্যান পদে চারজন প্রতিদ্বন্দ্বিতা করছেন।

চেয়ারম্যান পদে চার প্রার্থী হলেন- আওয়ামী লীগ মনোনীত নৌকা প্রতীকের প্রার্থী আশরাফুল আলম সরকার লেবু, জাতীয় পার্টি লাঙ্গল প্রতীকে আহসান হাবীব সরকার খোকন, স্বতন্ত্র প্রার্থী হিসেবে ঘোড়া প্রতীকে খয়বর হোসেন সরকার মওলা ও মোটরসাইকেল প্রতীকে গোলাম আহসান হাবীব মাসুদ।

https://img.imageboss.me/width/700/quality:100/https://img.barta24.com/uploads/news/2019/Jun/16/1560648762285.jpg
চলছে প্রচারণা/ ছবি: বার্তা২৪.কম

 

এদিকে নির্বাচনের শেষ সময়ে এসে এ প্রার্থীরা ভোরের সূর্য উঠার সাথেই নেমে পড়ছেন মাঠে। তারা নানা প্রতিশ্রুতি নিয়ে হাজির হচ্ছেন ভোটারদের সামনে। ফলে কদর বেড়েছে ভোটারদের। সেই সাথে নতুন ভোটাররা যেন সোনার হরিণ। সবমিলে ভোটের মাঠ এখন সরব হয়ে উঠেছে।

অপরদিকে সুষ্ঠু-শান্তিপূর্ণ ভোট হবে, কি হবে না, এ নিয়ে নানা সংশয় রয়েছে ভোটারদের মাঝে। সেই সাথে কে হারবেন, কে জিতবেন এ নিয়ে চলছে নানা হিসাব নিকাশ। কী হলে কী হবে, সে নিয়েও চলছে আলোচনা।

সুন্দরগঞ্জ উপজেলা নির্বাচন অফিস সূত্রে জানা গেছে, উপজেলার ১৫টি ইউনিয়ন ও একটি পৌরসভার মোট ভোটার সংখ্যা তিন লাখ ৩৯ হাজার ২১৮ জন। এর মধ্যে পুরুষ ভোটার এক লাখ ৬৫ হাজার ৩৪১ ও মহিলা ভোটার এক লাখ ৭৩ হাজার ৮৭৭ জন।

সুন্দরগঞ্জ উপজেলা নির্বাহী অফিসার (ইউএনও) সোলেমান আলী বার্তা২৪.কম-কে বলেন, ‘অবাধ, সুষ্ঠু ও নিরপেক্ষ নির্বাচনের পরিবেশ ধরে রাখতে সর্বোচ্চ ব্যবস্থা নেওয়া হচ্ছে। ঝুঁকিপূর্ণ কেন্দ্রগুলোতে বিশেষ নজরদারি রাখা হয়েছে।’

আপনার মতামত লিখুন :

নীলফামারীতে পৃথক ঘটনায় নিহত ২

নীলফামারীতে পৃথক ঘটনায় নিহত ২
নীলফামারী জেলা ম্যাপ, ছবি: সংগৃহীত

নীলফামারীতে পৃথক দুটি ঘটনায় এক কৃষক ও স্কুলছাত্রের মৃত্যু হয়েছে।

মঙ্গলবার (২৩ জুলাই) বিকেলে সদর উপজেলার চওড়া বড়গাছা ইউনিয়নের নতিবাড়ি এলাকায় বজ্রপাতে সফি উদ্দিন (৪৬) নামের কৃষকের মৃত্যু হয়েছে। সফি উদ্দিন ওই গ্রামের বছির উদ্দিনের ছেলে।

স্থানীয়রা জানান, সফি উদ্দিন বাড়ির পাশে আমন ধানের চারা রোপণ করছিলেন। এ সময় বজ্রপাতে ঘটনাস্থলেই তার মৃত্যু হয়।

এর আগে নীলফামারী-চিলাহাটি রেলপথে তরনীবাড়ি রেলস্টেশনের সন্নিকটে ট্রেনে কাটা পড়ে সবুজ রায় (১৬) নামের এক কলেজছাত্রের মৃত্যু হয়েছে।

নিহত সবুজ চওড়া বড়গাছা ইউনিয়নের তৃপ্তিপাড়া এলাকার রমানাথ রায়ের ছেলে। সে রংপুর সরকারি কলেজ থেকে এ বছরে অনুষ্ঠিত এইচএসসি পরীক্ষায় অংশগ্রহণ করে অকৃতকার্য হয়।

বিষয়টি নিশ্চিত করে সৈয়দপুর জিআরপি পুলিশের উপ-সহকারী পরিদর্শক মাসুদ রানা জানান, নীলফামারী থেকে চিলাহাটিগামী তিতুমীর এক্সপ্রেসে কাটা পড়ে সবুজ রায়ের মৃত্যু হয়েছে।

শায়েস্তাগঞ্জে দু’পক্ষের সংঘর্ষে নারীসহ আহত ৩৫

শায়েস্তাগঞ্জে দু’পক্ষের সংঘর্ষে নারীসহ আহত ৩৫
ছবি: সংগৃহীত

হবিগঞ্জের শায়েস্তাগঞ্জে দু’পক্ষের সংঘর্ষে নারীসহ অন্তত ৩৫ জন আহত হয়েছেন। গুরুত্বর আহত অবস্থায় অন্তত ১৫ জনকে হবিগঞ্জ সদর আধুনিক হাসপাতালে ভর্তি করা হয়েছে।

মঙ্গলবার (২৩ জুলাই) বিকেলে উপজেলার রাজিউড়া ইউনিয়নের রায়পুর গ্রামে এ ঘটনাটি ঘটে।

স্থানীয় সূত্রে জানা যায়, ওই গ্রামের জহুর উদ্দিনের ছেলে বাবর আলীর সঙ্গে জমি-জমা নিয়ে দীর্ঘদিন ধরে বিরোধ চলে আসছিল একই গ্রামের মরম আলীর ছেলে কুদ্দুছ মিয়ার। এ বিরোধের জের ধরে মঙ্গলবার বিকেলে উভয় পক্ষের মধ্যে বাকবিতণ্ডা হয়। একপর্যায়ে উভয় পক্ষের লোকজন দেশীয় অস্ত্র-শস্ত্র নিয়ে সংঘর্ষে জড়িয়ে পড়ে। এতে নারীসহ অন্তত ৩৫ জন আহত হন। খবর পেয়ে শায়েস্তাগঞ্জ থানা পুলিশ ঘটনাস্থলে পৌঁছে স্থানীয়দের সহযোগিতা নিয়ে পরিস্থিতি নিয়ন্ত্রণ করেন।

গুরুত্বর আহতরা হলেন- কুদ্দুছ আলী (৪২), বাবর আলী (৪৪), তোফাজ্জল হোসেন (২৪), আলী হোসেন (২০), ছাবর আলী (৩৬), আব্দুল খালেক (৩৫), জায়েদা খাতুন (৩০), জলিল মিয়া (৩২), হারুন মিয়া (২৮), রোজিনা আক্তার (২২), ইয়ার চান বিবি (৬৫), করিম মিয়া (৫০), শাহ আলম (২৫), ছালেক মিয়া (৪০) ও সালাম মিয়া (৩৫)। তাদের হবিগঞ্জ সদর আধুনিক হাসপাতালে ভর্তি করা হয়েছে। বাকিদের প্রাথমিক চিকিৎসা দেয়া হয়েছে।

এ বিষয়ে শায়েস্তাগঞ্জ থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) আনিছুজ্জামান বলেন, 'খবর পেয়ে পুলিশ ঘটনাস্থলে পৌঁছে সংঘর্ষ নিয়ন্ত্রণ আনে। পুনরায় সংঘর্ষ এড়াতে পুলিশ সতর্ক অবস্থানে রয়েছে।'

এ সম্পর্কিত আরও খবর

Barta24 News

আর্কাইভ

শনি
রোব
সোম
মঙ্গল
বুধ
বৃহ
শুক্র