Alexa

নরসিংদীতে প্রতিবন্ধী কিশোরীকে হত্যার পর ধর্ষণ

নরসিংদীতে প্রতিবন্ধী কিশোরীকে হত্যার পর ধর্ষণ

হত্যার পর ধর্ষণের ধায়ে অভিযুক্ত সাইফুল ইসলামকে গ্রেফতার করে র‌্যাব/ ছবি: সংগৃহীত

প্রেম ও শারীরিক সম্পর্কের প্রস্তাব প্রত্যাখ্যান কারায় নরসিংদীতে এক প্রতিবন্ধী কিশোরীকে প্রথমে হত্যা ও পরে মৃত কিশোরীকে ধর্ষণের দায়ে অভিযুক্ত সাইফুল ইসলামকে গ্রেফাতার করেছে র‌্যাব-১১।

মঙ্গলবার (১১ জুন) রাতে শিবপুর উপজেলার কলেজ গেইট এলাকা থেকে অভিযুক্ত ঐ ধর্ষককে গ্রেফতার করে র‌্যাব-১১ এর একটি অভিযানিক দল। গ্রেফতারকৃত সাইফুল ইসলাম শিবপুর উপজেলার দুলালপুর এলাকার মৃত হানিফ ফকিরের ছেলে।

বুধবার (১২ জুন) দুপুরে নরসিংদী প্রেসক্লাবের সম্মেলন কক্ষে এক সংবাদ সম্মেলনে এসব তথ্য জানায় র‌্যাব-১১ এর অধিনায়ক লে. কর্নেল শামশের উদ্দিন।
সংবাদ সম্মেলনে র‌্যাব জানায়, অভিযুক্ত সাইফুলের সাথে প্রায় তিন মাস আগে একটি মাজারে পরিচয় হয় একই উপজেলার মাছিমপুর এলাকার ঐ শারীরিক প্রতিবন্ধী কিশোরীর।

https://img.imageboss.me/width/700/quality:100/https://img.barta24.com/uploads/news/2019/Jun/12/1560336442346.jpg

এরপর থেকে দুই সন্তানের পিতা সাইফুল ঐ কিশোরীকে একাধিকবার কু-প্রস্তাব দেয়। এতে কিশোরীটি রাজি না হওয়ায় গত ৬ জুন তাকে নিয়ে সিএনজিতে করে দুলালপুর এলাকার কাজীবাড়ির একটি কলা বাগানে ধর্ষণের চেষ্টা চালায় সাইফুল।

এ সময় ধর্ষণে ব্যর্থ হয়ে তাকে প্রথমে গলাটিপে হত্যা ও পরে মৃত ঐ প্রতিবন্ধী কিশোরীকে ধর্ষণ করে সাইফুল। ঘটনার দুইদিন পর ঐ এলাকা থেকে কিশোরীর মরদেহ উদ্ধার করে শিবপুর থানা পুলিশ।

পরে কিশোরীর মায়ের দায়ের করা মামলার ভিত্তিতে মোবাইল ফোনের সূত্র ধরে অভিযুক্ত সাইফুল ইসলামের সম্পৃক্ততা নিশ্চিত করে র‌্যাব-১১। প্রাথমিক জিজ্ঞাসাবাদে অভিযুক্ত সাইফুল ইসলাম অভিযোগ স্বীকার করেছে বলে জানায় র‌্যাব।

আপনার মতামত লিখুন :