Alexa

পারিবারিক কলহের জেরে খুন হয় মা ও ছেলে

পারিবারিক কলহের জেরে খুন হয় মা ও ছেলে

নিহত আব্দুল্লাহ’র লাশ। ছবি: বার্তা২৪.কম

পারিবারিক কলহের কারণেই শারমিন ও তার ছেলে আব্দুল্লাহকে হত্যা করেছে দেবর মাহাবুল আলম মুক্তা।

বৃহস্পতিবার (১৬ মে) দুপুরে এক প্রেস ব্রিফিংয়ে এ তথ্য জানান নাটোরের পুলিশ সুপার সাইফুল্লাহ আল মামুন। এ বিষয়ে স্বীকারোক্তিমূলক জবানবন্দি দেন গ্রেফতার মাহাবুল।

পুলিশ সুপার জানান, পারবারিক বিষয়ে মতবিরোধ এবং প্রতিবন্ধী আব্দুল্লাহকে নিয়ে শারমিনের সঙ্গে দেবর মাহাবুল আলম মুক্তার বিরোধ তৈরি হয়। এরই জের ধরে শারমিনের গলায় ওড়না পেঁচিয়ে শ্বাসরোধ করে তাকে হত্যা করে দেবর মাহাবুল। আর দুই বছরের প্রতিবন্ধী ভাতিজা আব্দুল্লাহকে ডোবায় ফেলে দিয়ে হত্যা করা হয়।

তিনি আরও জানান, হত্যা মামলায় মাহাবুল আলম মুক্তাকে একমাত্র আসামি করে আজ জেলহাজতে পাঠানো হয়েছে।

এ সময় প্রেস ব্রিফিংয়ে অতিরিক্ত পুলিশ সুপার (অপরাধ ও প্রশাসন) আকরামুল ইসলাম, সদর সার্কেল আবুল হাসনাত, নলডাঙ্গা থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা শফিকুর রহমান প্রমুখ উপস্থিত ছিলেন।

আরও পড়ুন: নলডাঙ্গায় মা-ছেলের মৃতদেহ উদ্ধার

আপনার মতামত লিখুন :