Barta24

রোববার, ২১ জুলাই ২০১৯, ৬ শ্রাবণ ১৪২৬

English Version

ঈদে যানজট নিরসনে পুলিশের সমন্বিত উদ্যোগ

ঈদে যানজট নিরসনে পুলিশের সমন্বিত উদ্যোগ
  কান্ট্রি ডেস্ক
বার্তা২৪.কম  


  • Font increase
  • Font Decrease

 

গাজীপুর: ঘরমুখো মানুষের ঈদ যাত্রা নির্বিঘ্ন করতে পুলিশের পক্ষ থেকে সমন্বিত উদ্যোগ নেয়া হয়েছে বলে জানিয়েছেন আইজিপি ড.জাবেদ পাটোয়ারী।

বুধবার (১৩ জুন) দুপুরে গাজীপুরের চান্দনা চৌরাস্তায় ঢাকা-ময়মনসিংহ মহাসড়ক পরিদর্শনে গিয়ে তিনি একথা কথা বলেন।

আইজিপি বলেন, পুলিশ, রিজার্ভ পুলিশ এবং হাইওয়ে পুলিশ সব মিলিয়ে কার্যকরী ব্যবস্থা নেয়া হয়েছে। ঢাকা থেকে বেরিয়ে যাবার পথে পুলিশ মোতায়েনের পাশাপাশি অতিরিক্ত জনবল দিয়ে বিশেষ আয়োজন করা হয়েছে।

বিভিন্ন জায়গায় কন্ট্রোল রুম স্থাপন করা হয়েছে যাতে করে অন্যান্য সংস্থার সাথে সমন্বয় করা যায়। এর বাইরে রয়েছে ওয়াচ টাওয়ার ও চেকপোস্ট। সবকিছু মিলিয়ে মানুষ নির্বিঘ্নে তাদের গ্রামে ফিরতে পারবে। রাতে যারা যাতায়াত করবে তাদের জন্যও পর্যাপ্ত নিরাপত্তা ব্যবস্থা নেয়া হয়েছে।

মলম পার্টি ও ছিনতাইকারীদের বিরুদ্ধে কঠোর হুঁশিয়ারি দিয়ে আইজিপি বলেন, এক্ষেত্রে যাত্রীদেরও সচেতন হওয়া প্রয়োজন।

আপনার মতামত লিখুন :

নবীনগরে বোনের হাতে ভাই খুন

নবীনগরে বোনের হাতে ভাই খুন
প্রতীকী ছবি

পারিবারিক কলহের জের ধরে ব্রাহ্মণবাড়িয়ার নবীনগরে আপন বোনের হাতে ভাই মো. সজল মিয়া (৩৫) খুন হয়েছে।

রোববার (২১ জুলাই) দুপুরে উপজেলার ইব্রাহিমপুর পূর্বপাড়ায় এই ঘটনা ঘটে। পুলিশ নিহতের বোন রুমা আক্তার (২৬) কে গ্রেফতার করেছে। লাশ উদ্ধার করে ময়নাতদন্তের জন্য মর্গে প্রেরণ করেছে। নিহত সজল একই এলাকার মৃত মিজানুর রহমানের ছেলে।

এলাকাবাসী ও পুলিশ সূত্রে জানা যায়, শনিবার রাতে পারিবারিক কলহের জের ধরে সজল মিয়ার সঙ্গে তার স্বামী পরিত্যক্তা আপন ছোট বোন রুমা আক্তারের ঝগড়া হয়। ঝগড়ার একপর্যায়ে বোন তার হাতে থাকা লাঠি দিয়ে ভাইয়ের মাথায় আঘাত করে। গুরুত্বর আহত অবস্থায় সজল মিয়াকে প্রথমে উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সে ও পরে উন্নত চিকিৎসার জন্য কুমিল্লা মেডিকেল কলেজ হাসপাতালে ভর্তি করা হয়।  সেখানে চিকিৎসাধীন অবস্থায় রোববার (২১ জুলাই) দুপুরে সে মারা যায়।

নবীনগর থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) রনোজিত রায় ঘটনার সত্যতা নিশ্চিত করে জানান, নিহতের লাশ উদ্ধার করা হয়েছে। পাশাপাশি অভিযুক্ত রুমা আক্তারকে গ্রেফতার করা হয়েছে। পরিবারের পক্ষ থেকে অভিযোগ পেলে পরবর্তী আইনগত ব্যবস্থা নেয়া হবে।

খুলনায় বিএনপির বিভাগীয় সমাবেশ বৃহস্পতিবার

খুলনায় বিএনপির বিভাগীয় সমাবেশ বৃহস্পতিবার
ছবি: সংগৃহীত

খুলনা নগরীর শহীদ হাদিস পার্কে বিএনপির বিভাগীয় সমাবেশের জন্য প্রশাসনের অনুমতি মিলেছে। তাই আগামী বৃস্পতিবার (২৫ জুলাই) দুপুর ২ টায় এ সমাবেশের কার্যক্রম শুরু হবে।

বিএনপির কেন্দ্রীয় মহাসচিব মির্জা ফখরুল ইসলাম আলমগীর সমাবেশে প্রধান অতিথি হিসেবে উপস্থিত থাকবেন। এছাড়া জাতীয় স্থায়ী কমিটির সদস্যবৃন্দ, সিনিয়র নেতৃবৃন্দ এবং অঙ্গ-সহযোগী সংগঠনের শীর্ষ নেতারা সমাবেশে উপস্থিত থাকবেন।

রোববার (২১ জুলাই) বিকেলে খুলনা মহানগর বিএনপির সহ-দফতর সম্পাদক শামসুজ্জামান চঞ্চল বার্তাটোয়েন্টিফোর .কমকে এসব তথ্য নিশ্চিত করেছেন।

এদিকে, লিফলেট বিতরণের মধ্য দিয়ে শুরু হয়েছে সমাবেশ সফল করার লক্ষ্যে আনুষ্ঠানিক প্রচারণা। দুপুরে নগরীর কে ডি ঘোষ রোডের দলীয় কার্যালয়ের সামনে থেকে লিফলেট বিতরণ শুরু হয়। বিএনপির কেন্দ্রীয় সাংগঠনিক সম্পাদক ও খুলনা মহানগর শাখার সভাপতি নজরুল ইসলাম মঞ্জুর নেতৃত্বে বিএনপি ও অঙ্গ দলের নেতাকর্মীরা লিফলেট বিতরণ করেন।

লিফলেট বিতরণ কর্মসূচিতে উপস্থিত ছিলেন- জেলা বিএনপির সভাপতি অ্যাডভোকেট এস এম শফিকুল আলম মনা, মনিরুজ্জামান মনি, আমীর এজাজ খান, অধ্যাপক ডা. গাজী আব্দুল হক, শেখ মোশারফ হোসেন, শাহজালাল বাবলু, রেহানা আক্তার, স ম আব্দুর রহমান, শেখ ইকবাল হোসেন, মনিরুজ্জামান মন্টু, শেখ আব্দুর রশীদ, মোল্লা খায়রুল ইসলাম, অধ্যক্ষ তারিকুল ইসলাম প্রমুখ।

উল্লেখ্য, বিএনপির চেয়ারপারসন বেগম খালেদা জিয়ার মুক্তির দাবিতে বিএনপির জাতীয় নির্বাহী কমিটির সভার সিদ্ধান্ত অনুযায়ী এ বিভাগীয় সমাবেশ অনুষ্ঠিত হচ্ছে।

এ সম্পর্কিত আরও খবর

Barta24 News

আর্কাইভ

শনি
রোব
সোম
মঙ্গল
বুধ
বৃহ
শুক্র