Barta24

বুধবার, ২৬ জুন ২০১৯, ১১ আষাঢ় ১৪২৬

English Version

‘নারীর ক্ষমতায়নের সূচক উন্নত দেশের তুলনায় ভালো’

‘নারীর ক্ষমতায়নের সূচক উন্নত দেশের তুলনায় ভালো’
অনুষ্ঠানে বক্তব্য দেন তথ্যমন্ত্রী ড. হাছান মাহমুদ / ছবি: বার্তা২৪
স্টাফ করেসপন্ডেন্ট
বার্তা২৪.কম
চট্টগ্রাম


  • Font increase
  • Font Decrease

দেশে নারীর ক্ষমতায়ন ও উন্নত জীবন ব্যবস্থার সূচক পৃথিবীর অনেক উন্নত দেশের তুলনায় ভালো বলে মন্তব্য করেছেন তথ্যমন্ত্রী ড. হাছান মাহমুদ। এ ক্ষেত্রে শিশুদের মনন, মূল্যবোধ ও দেশাত্মবোধ তৈরিতে অভিভাবকদের যত্নশীল হওয়ার আহ্বান জানান তিনি।

রোববার (৯ জুন) সন্ধ্যায় নগরীর পতেঙ্গা সমুদ্রসৈকতে বাংলাদেশ বেতারে আয়োজিত এক অনুষ্ঠানে প্রধান অতিথির বক্তব্যে তিনি এ আহ্বান জানান। তথ্য মন্ত্রণালয়ের শিশু ও নারী উন্নয়নে সচেতনতামূলক যোগাযোগ কার্যক্রমের আওতায় বহিরাঙ্গণ এ অনুষ্ঠানের আয়োজন করে।

তথ্যমন্ত্রী বলেন, ‘স্বাধীনতার পর দেশের গড় আয়ু ছিল ৪৪ বছর যা এখন ৭৩ বছর হয়েছে। প্রধানমন্ত্রীর ঐকান্তিক প্রচেষ্টা ও বিচক্ষণতায় এটি বাস্তবতায় প্রতিফলিত হয়েছে। প্রতিটি ক্ষেত্রে দেশের উন্নয়ন সূচকের বৈপ্লিবিকক পরিবর্তন হয়েছে। অগ্রযাত্রার এমন ধারা ধরে রাখতে সবাইকে একত্রিত হয়ে কাজ করে যেতে হবে। এমন প্রজন্ম তৈরি করে যেতে হবে যারা আগামীর বাংলাদেশকে নেতৃত্ব দেবে।’


মুখ্য আলোচকের বক্তব্যে চট্টগ্রাম সিটি করপোরেশনের মেয়র আ জ ম নাছির উদ্দিন বলেন, ‘দেশ দ্রুত গতিতে এগিয়ে যাচ্ছে। এগিয়ে যাওয়া সঙ্গী হিসেবে শিশুরাই আগামী দিনের সম্পদ। তাই তাদের যত্ন নিতে হবে। দেশপ্রেম আর মূল্যবোধের শিক্ষায় শিশুদের গড়ে তুলতে হবে। দেশে প্রায় অর্ধেক নারী, কিন্ত অবলা নয়। নারীরা আজ সর্বক্ষেত্রে এগিয়ে যাচ্ছে।’

তিনি আরও বলেন, ‘পৃথিবীর সবচেয়ে বেশি গড় আয়ুর মানুষ এখন বাংলাদেশে, যা সম্ভব হয়েছে বর্তমান সরকারের চেষ্টায়। নারী ও শিশুরা যাতে সর্বোচ্চ পুষ্টিগুণে বেড়ে ওঠে, সেই লক্ষ্যে সরকার ব্যাপক প্রকল্প গড়ে তুলেছে।’

বিশেষ অতিথির বক্তব্যে চট্টগ্রাম উন্নয়ন কর্তৃপক্ষের চেয়ারম্যান জহিরুল আলম দোভাষ বলেন, ‘আমাদের দেশের মানুষের গড় আয়ু বেড়েছে। মাতৃ ও শিশু মৃত্যু কমেছে। প্রধানমন্ত্রীর সঠিক নেতৃত্বেই তা সম্ভব হয়েছে। তিনি জানেন দেশকে এগিয়ে নিতে পুরুষের পাশাপাশি নারীর ভূমিকা গুরুত্বপূর্ণ। এ কারণেই প্রধানমন্ত্রী নারীদের যথাযথ মূল্যায়ন করেছেন।’

বাংলাদেশ বেতারের মহাপরিচালক নারায়ণ চন্দ্র শীলের সভাপতিত্বে অনুষ্ঠানে আরও বক্তব্য দেন- কেন্দ্রীয় আওয়ামী লীগের উপ প্রচার সম্পাদক আমিনুল ইসলাম আমিন, বাংলাদেশ বেতারের আঞ্চলিক পরিচালক এস এম আবুল হাসেন, তথ্য মন্ত্রণালয়ের অতিরিক্ত সচিব মো. আজাহারুল হক।

আপনার মতামত লিখুন :

বার্তা২৪.কমে খবর প্রকাশ: সরকারি গাছ কাটা বন্ধ করলেন ইউএনও

বার্তা২৪.কমে খবর প্রকাশ: সরকারি গাছ কাটা বন্ধ করলেন ইউএনও
গাছ পরিদর্শনে ফারহানা করিম, ছবি: বার্তা২৪.কম

মাল্টিমিডিয়া অনলাইন নিউজপোর্টাল বার্তা২৪.কম সহ বিভিন্ন গণমাধ্যমে খবর প্রকাশের পর ময়মনসিংহের গৌরীপুর উপজেলার জেলখানা মোড় এলাকায় ফায়ার সার্ভিস স্টেশন নির্মাণ প্রতিষ্ঠানের ঠিকাদারকে উক্ত এলাকার সরকারি গাছ কাটা বন্ধের নির্দেশ দিয়েছেন উপজেলা নির্বাহী অফিসার (ইউএনও) ফারহানা করিম।

সোমবার (২৪ জুন) বার্তা২৪.কমে ‘সরকারি গাছ কাটছে এমডি ফরিদ উদ্দিন কনস্ট্রাকশন’ শিরোনামে খবর প্রকাশিত হয়। সংবাদ প্রকাশের পর মঙ্গলবার (২৫ জুন) বিকালে উপজেলা নির্বাহী অফিসার ফায়ার সার্ভিস স্টেশন এলাকায় গাছ কাটার ঘটনা তদন্ত করতে যান। খবর পেয়ে  গাছ কাটার শ্রমিকরা ও করাতকলের মালিক ইজ্জত আলী পালিয়ে যান।

এসময় উপজেলা নির্বাহী অফিসার সরকারি গাছ কাটার অনুমতিপত্র আছে কিনা জানতে চাইলে নির্মাণাধীন প্রতিষ্ঠান এমডি ফরিদ উদ্দিন কনস্ট্রাকশনের ঠিকাদার বাপ্পীদের ছোট ভাই কোনো ধরনের কাগজপত্র দেখাতে ব্যর্থ হয়। পরে উপজেলা নির্বাহী অফিসার গাছকাটা বন্ধের নির্দেশ দেন।

উপজেলা নির্বাহী অফিসার ফারহানা করিম বলেন, ‘ঘটনাস্থল পরিদর্শন করেছি। অনুমতি না থাকায় গাছকাটা বন্ধের নির্দেশ দেয়া হয়েছে।’ 

বাংলাদেশের আমের স্বাদে মুগ্ধ ব্রিটিশ হাইকমিশনার

বাংলাদেশের আমের স্বাদে মুগ্ধ ব্রিটিশ হাইকমিশনার
বাগান ঘুরে আম দেখছেন ব্রিটিশ হাইকমিশনার, ছবি: বার্তা২৪.কম

একদিনের সফরে মঙ্গলবার (২৫ জুন) রাজশাহীতে এসেছিলেন বাংলাদেশে নিযুক্ত ডেপুটি ব্রিটিশ হাইকমিশনার কানবার হোসেন বর। সকালে পূর্বনির্ধারিত কাজ শেষে বিকেলে বের হয়েছিলেন রাজশাহীর আম বাগান পরিদর্শনে। উদ্দেশ্য বাগানে বসে গাছপাকা আম খাওয়া।

বিকেল থেকে সন্ধ্যা পর্যন্ত রাজশাহী মহানগরীর জিন্নাহনগরের একটি আম বাগানে ঘুরে ঘুরে বিভিন্ন গাছের আমের স্বাদ নেন তিনি। রাজশাহী অ্যাগো ফুড প্রডিউসার সোসাইটির চেয়ারম্যান মো. আনোয়ারুল হকের বাগানের ল্যাংড়া, আম্রপালি ও রাজভোগ আম খেয়ে মুগ্ধতার কথা জানান কানবার হোসেন বর।

বাগান ঘুরে গাছ থেকে নিজে আম পেড়ে সঙ্গে নিয়েও গেছেন বর্তমান ভারপ্রাপ্ত ব্রিটিশ হাইকমিশনারের দায়িত্বে থাকা কানবার।

https://img.imageboss.me/width/700/quality:100/https://img.barta24.com/uploads/news/2019/Jun/25/1561484344215.jpg

যাওয়ার সময় বলে গেলেন, ‘অসাধারণ আম! গাছ পাকা এমন স্বাদের আম আমি আগে কখনও খাই নি। বাংলাদেশে যতদিন আছি, আমের মৌসুমে বারবার এখানে আসতে মন চাইবে নিশ্চয়। চেষ্টা থাকবে প্রতিবছর রাজশাহীতে এসে তৃপ্তি সহকারে আম খাওয়ার।’

অ্যাগ্রো ফুড প্রডিউসার সোসাসাইটির চেয়্যারম্যান আনোয়ারুল হক জানান, ব্রিটিশ হাইকমিশনার কানবার হোসেন বর মঙ্গলবার বিকেলে আমার বাগানে আম দেখতে এবং খেতে এসেছিলেন।

তিনি গাছ থেকে ল্যাংড়া, আম্রপালি ও রাজাভোগ আম পেড়ে খেয়েছেন। রাজশাহীর আমের প্রেমে পড়ে গেছেন বলে আবার আসার কথা জানিয়ে গেছেন হাইকমিশনার।

এ সম্পর্কিত আরও খবর

Barta24 News

আর্কাইভ

শনি
রোব
সোম
মঙ্গল
বুধ
বৃহ
শুক্র