Barta24

রোববার, ১৮ আগস্ট ২০১৯, ৩ ভাদ্র ১৪২৬

English

খুলনায় ৩৮ লাখ টাকাসহ ৩ প্রতারক গ্রেফতার

খুলনায় ৩৮ লাখ টাকাসহ ৩ প্রতারক গ্রেফতার
গ্রেফতারকৃত তিন প্রতারক / ছবি: বার্তা২৪
স্টাফ করেসপন্ডেন্ট
বার্তা২৪.কম
খুলনা


  • Font increase
  • Font Decrease

খুলনায় ব্যবসায় বিনিয়োগকৃত ৪৩ লাখ টাকা প্রতারণার মাধ্যমে আত্মসাতের অভিযোগে তিন প্রতারককে গ্রেফতার করেছে পুলিশ। এ সময় আত্মসাৎকৃত ৩৭ লাখ ৭৫ হাজার টাকা উদ্ধার করা হয়েছে।

রোববার (২ মে) খুলনা মেট্রোপলিটন পুলিশ (কেএমপি) বার্তা২৪.কমকে এ তথ্য নিশ্চিত করেছে।

পুলিশ জানায়, কয়েকজন প্রতারক পরস্পর যোগসাজসে নগরীর লবণচরার মোহাম্মদনগর বাইতুল মেরাজ জামে মসজিদের ডান পাশের (নওয়াব আলীর বাড়ির ভাড়াটিয়া) হাফেজ মো. সাহাবউদ্দীনের ব্যবসায় বিনিয়োগকৃত ৪৩ লাখ টাকা আত্মসাৎ করে। এ ঘটনায় সাহাবউদ্দীন গত ২৩ মে বাদী হয়ে লবণচরা থানায় মামলা দায়ের করেন। মামলায় মোহাম্মদনগর এলাকার মোহাম্মদ আয়রন স্টোর (শাহিনের বাড়ীর ভাড়াটিয়া) মৃত আনোয়ার হোসেন মোড়লের ছেলে মো. রুবেল হোসেন (৩৮), জাহিদুর রহমান সড়ক ক্রস রোড এলাকার আব্দুল খালেক শেখের ছেলে মো. আতিকুর রহমান টনি (২৯) ও রুবেল হোসেনের স্ত্রী অনন্যা ইসলামকে (২৬) আসামি করা হয়।

এদিকে, লবণচরা থানা পুলিশ গোপন সংবাদের ভিত্তিতে শনিবার (১ জুন) অভিযান চালিয়ে নীলফামারী জেলার সৈয়দপুর শহরের একটি হোটেল থেকে আসামি মো. রুবেল হোসেনকে গ্রেফতার করে। তার কাছ থেকে ৬ লাখ ৭৫ হাজার টাকা উদ্ধার করা হয়। পরে তার স্বীকারোক্তি অনুযায়ী তার ভাইয়ের ছেলে সাইফুল ইসলাম অভিকে মুন্সিগঞ্জ জেলার লৌহজং থানার দক্ষিণ হলুদিয়া গ্রাম থেকে গ্রেফতার করা হয়। তার কাছ থেকে উদ্ধার করা হয় আরও ৩১ লাখ টাকা। পরবর্তীতে লবণচরা থানা এলাকা থেকে মামলার অপর আসামি মো. আতিকুর রহমান টনিকেও গ্রেফতার করা হয়।

কেএমপির অতিরিক্ত উপ-পুলিশ কমিশনার (মিডিয়া অ্যান্ড পিআর) শেখ মনিরুজ্জামান মিঠু বার্তা২৪.কমকে বলেন, ‘লবণচরা থানা পুলিশ আত্মসাৎকৃত ৪৩ লাখ টাকার মধ্যে ৩৭ লাখ ৭৫ হাজার টাকা উদ্ধার করতে সক্ষম হয়েছে। বাকি টাকাও উদ্ধারের অভিযান অব্যাহত আছে।’

আপনার মতামত লিখুন :

শাহজালালে বেল্টের ভেতরে ১০ হাজার ইয়াবা, আটক ১

শাহজালালে বেল্টের ভেতরে ১০ হাজার ইয়াবা, আটক ১
আটক জসিম উদ্দিন। ছবি: বার্তাটোয়েন্টিফোর.কম।

রাজধানীর হজরত শাহজালাল আন্তর্জাতিক বিমানবন্দর থেকে ১০ হাজার পিস ইয়াবাসহ জসিম উদ্দিন (৩৬) নামে এক ব্যক্তিকে আটক করা হয়েছে।

রোববার (১৮ আগস্ট) দুপুরে বার্তাটোয়েন্টিফোর.কমকে এ তথ্য নিশ্চিত করেছেন শাহজালাল বিমানবন্দর আর্মড পুলিশের অতিরিক্ত পুলিশ সুপার (অপারেশন অ্যান্ড মিডিয়া) আলমগীর হোসেন।

তিনি জানান, আজ দুপুর ১টার দিকে বিমানবন্দরের অভ্যন্তরীণ টার্মিনালের বহিরাঙ্গনে সন্দেহজনকভাবে ঘোরাফেরা করছিলেন জসিম। পরে তাকে আটক করে প্রাথমিক জিজ্ঞাসাবাদ করা হয়। তখন তার কাছে ইয়াবা থাকার কথা স্বীকার করেন তিনি। পরবর্তীতে তার শরীর তল্লাশি করা হয়। ওই সময় তার কোমরে বিশেষ কায়দায় বানানো মোটা বেল্টের ভেতর থেকে ১০ হাজার পিস ইয়াবা উদ্ধার করা হয়। যার বর্তমান বাজার মূল্য প্রায় ৫০ লাখ টাকা।

জসিম নভোএয়ারের ফ্লাইট ভিকিউ ৯৩৪ যোগে কক্সবাজার থেকে দুপুর পৌনে ১টার সময় ঢাকায় পৌঁছায়। তিনি কক্সবাজার জেলার উখিয়া থানার গৌজ ঘোনা পালংখালী গ্রামের নুর আহমদের ছেলে।

জসিমের বিরুদ্ধে বিমানবন্দর থানায় মাদকদ্রব্য নিয়ন্ত্রণ আইনে মামলা দায়েরের প্রক্রিয়া চলছে বলেও জানান ওই পুলিশ কর্মকর্তা।

হালদা দূষণ: এশিয়ান পেপার মিলসের উৎপাদন বন্ধের নির্দেশ

হালদা দূষণ: এশিয়ান পেপার মিলসের উৎপাদন বন্ধের নির্দেশ
ছবি: বার্তাটোয়েন্টিফোর.কম

দক্ষিণ এশিয়ার একমাত্র প্রাকৃতিক মৎস্য প্রজনন ক্ষেত্র হালদা নদীতে বর্জ্য ফেলে দূষণের দায়ে চিটাগং এশিয়ান পেপার মিলসের উৎপাদন বন্ধ রাখার নির্দেশ দিয়েছে পরিবেশ অধিদফতর।

রোববার (১৮ আগস্ট) দুপুরে অধিফতরের চট্টগ্রাম মহানগরের পরিচালক আজাদুর রহমান মল্লিক তার কার্যালয়ে শুনানি শেষে এ সিদ্ধান্ত দেন।

তিনি বলেন, 'শুনানির পর জরুরি ভিত্তিতে সঠিক বর্জ্য ব্যবস্থাপনা, ত্রুটি সংশোধন করে ইটিপি সার্বক্ষণিক চালু রাখার পদক্ষেপ গ্রহণ ও পরিবেশসম্মত স্লাজ অপসারণের ব্যবস্থা নিতে বলা হয়েছে। এসব ব্যবস্থা গ্রহণ না করা পর্যন্ত কারখানার উৎপাদন বন্ধ রাখার নির্দেশ দেওয়া হয়েছে।'

এর আগে গত ৩০ মে হালদা দূষণের দায়ে চট্টগ্রামের নন্দীরহাটের এশিয়ান পেপার মিলের বিরুদ্ধে মামলা করার নির্দেশ দিয়েছেন পানিসম্পদ মন্ত্রণালয়ের সচিব কবির বিন আনোয়ার।

আরও পড়ুন: হালদা দূষণ: হাটহাজারী বিদ্যুৎ কেন্দ্রকে ২০ লাখ টাকা জরিমানা

আরও পড়ুন: হালদা দূষণে এশিয়ান পেপার মিলের বিরুদ্ধে মামলার নির্দেশ

এ সম্পর্কিত আরও খবর

Barta24 News

আর্কাইভ

শনি
রোব
সোম
মঙ্গল
বুধ
বৃহ
শুক্র