Alexa

প্রেস কাউন্সিলকে গতিশীল ও কার্যকর করা হবে: তথ্যমন্ত্রী

প্রেস কাউন্সিলকে গতিশীল ও কার্যকর করা হবে: তথ্যমন্ত্রী

তথ্যমন্ত্রী ড. হাছান মাহমুদ, ছবি: বার্তা২৪

অপেশাদার ও ভুঁইফোড় গণমাধ্যমের দৌরাত্ম্য বন্ধ এবং সাংবাদিকদের অধিকার রক্ষায় প্রেস কাউন্সিলকে আরও গতিশীল ও কার্যকর করা হবে বলে জানিয়েছেন তথ্যমন্ত্রী ড. হাছান মাহমুদ।

তিনি বলেছেন, বর্তমান বাস্তবতায় টেলিভিশন এবং অনলাইন গণমাধ্যমের ব্যাপকতা অপরিসীম। কিন্তু অনেকেই সাংবাদিক কার্ড দিয়ে এ পেশার অমর্যাদা করছেন। প্রায় অনুষ্ঠানেই সাংবাদিকরা এ বিষয়ে মনোযোগ আর্কষণ করেন। এদের দৌরাত্ম্য কমাতে প্রেসক্লাব, সাংবাদিক ইউনিয়নসহ সাংবাদিক সংগঠনগুলোকে কাজ করতে হবে। একইসাথে প্রেস কাউন্সিল যাতে আরও কার্যকর ভূমিকা রাখতে পারে, সে বিষয়ে বেশ কিছু উদ্যোগ নেওয়া হয়েছে।

শনিবার (১৮ মে) দুপুরে চট্টগ্রাম প্রেসক্লাবের বঙ্গবন্ধু হলে আয়োজিত 'সাংবাদিকতার নীতিমালা, বস্তুনিষ্ঠ সংবাদ পরিবেশন ও তথ্য অধিকার আইন অবহিতকরণ' শীর্ষক কর্মশালায় তিনি এসব কথা বলেন। কর্মশালার আয়োজন করে চট্টগ্রাম জেলা প্রশাসন।

তথ্যমন্ত্রী বলেন, কেবল সংবাদ পরিবেশন নয়, সংবাদ তৈরির মধ্য দিয়ে সমাজের তৃতীয় নয়ন উন্মোচনে কাজ করতে হবে। সরকারের ধারাবাহিতকায় দেশকে এগিয়ে নেওয়ার লক্ষ্যে গণমাধ্যমকর্মীদের অবদান অনস্বীকার্য। আমাদের সামাজিক ও পারিবারিক বন্ধন বিশ্বের অনেক উন্নত রাষ্ট্রের তুলনায় অনেক বেশি সমৃদ্ধ। এ বন্ধন অটুট রাখার লক্ষ্যে প্রত্যেকটি নাগরিককে এক হয়ে কাজ করতে হবে। একজন সাংবাদিকের এ দায়িত্বের মাত্রা আরও বেশি। শুধু বস্তুগত উন্নয়ন নয়, রাষ্ট্রের সার্বিক উন্নয়নে নিয়োজিত হতে হবে।

কর্মশালার শেষে সাংবাদিকদের মাঝে সনদপত্র বিতরণ করেন তথ্যমন্ত্রী। প্রেস কাউন্সিলের বিচারপতি মোহাম্মদ মমতাজ উদ্দীন আহমেদ কর্মশালার উদ্বোধন করেন। প্রেস কাউন্সিলের সচিব মো. শাহ আলম সঞ্চালনা করেন। চট্টগ্রামের অতিরিক্ত জেলা প্রশাসক (সার্বিক) কামাল হোসেন কর্মশালায় সভাপতিত্ব করেন।

অনুষ্ঠানে প্রেস কাউন্সিলের সদস্য মনজুরুল আহসান, বাংলাদেশ প্রতিদিনের সম্পাদক নঈম নিজাম, চট্টগ্রাম প্রেসক্লাবের সভাপতি আলী আব্বাস ও সাধারণ সম্পাদক চৌধুরী ফরিদ উপস্থিত ছিলেন।

আপনার মতামত লিখুন :