Alexa

রংপুরের ইফতার ঐতিহ্যে বুন্দিয়া-জিলাপি

রংপুরের ইফতার ঐতিহ্যে বুন্দিয়া-জিলাপি

রংপুরের ঐতিহ্যে বুন্দিয়া, ছবি: বার্তা২৪

দেশের অন্যান্য জেলার মতো রংপুরেও রয়েছে ইফতার ঐতিহ্য। বিভাগীয় এই নগরীর রোজাদারদের ইফতার তালিকায় থাকা সবচেয়ে জনপ্রিয় খাবার জিলাপি। সেই সাথে রয়েছে বুন্দিয়া আর দেশি মুড়ি।

এছাড়াও রংপুরের ইফতার বাজারের বিশাল পরসায় রয়েছে দইবড়া, ফালুদা, বুট বিরিয়ানি, হালিম, পাতাবড়া, পাটিসাপটা পিঠা, চিকেন ফ্রাই, শাহি জিলাপি, আলুর চপ, চিকেন রোলসহ বাহারি সব খাবার।

বার্তা২৪ barta24

নগরীর মৌবন, মহুয়া, সুপার স্টার, মেজবান, কস্তূরী, রংপুর বাজার ডটকম, সুইট কিংস, স্যাফরন, কুটুম বাড়ি, দেশ, ক্যাসপিয়া, গ্র্যান্ড প্যালেসের মতো নামিদামি হোটেল রেস্তোরাঁর ইফতার সমাহারে ভেজিটেবল রোল, নিমকপরা, নিমকি, ডিম চপ, শাক ফ্লোরি, বিফ টোস্ট, চিকেন টোস্ট, জালি কাবাব, মাটন সাসলিক, শামি কাবাব, টিকা কাবাব, চিকেন চপ, চিকেন তন্দুরি, রেশমি জিলাপি, ছানার পোলাও, খাসির রেজালা, খাসির কাবাব, পেঁয়াজু আর বেগুনি রয়েছে ইফতারিতে।

বার্তা২৪ barta24

এসব খাবারের ভিড়ে জিলাপি সবার কাছেই প্রিয়। এখানকার জিলাপি একসময় বাঁশের খাঁচায় বিক্রি হতো। সারা বছর এই জিলাপি মিললেও রমজানের জন্য বিশেষভাবে তৈরি করা হয়।

বার্তা২৪ barta24

রংপুরের ঐতিহ্যবাহী জিলাপি প্রসঙ্গে কস্তূরীর স্বত্বাধিকারী হাজী আইয়ুব আলী বার্তা২৪.কমকে বলেন, 'এ বছর গুড়ের দাম বেশি ও সরবরাহ কম হওয়ায় গুড়ের জিলাপি তুলনামূলক কম তৈরি হয়েছে। নগরের দূর-দূরান্ত থেকে এসে এই জিলাপি কিনে নিয়ে যায় লোকজন। জিলাপির পাশাপাশি ইফতারে মুড়ি ও বুন্দিয়া যেমন অপরিহার্য, তেমনি সুস্বাদু অন্যান্য মুখরোচক খাবারেরও চাহিদা রয়েছে।'

বার্তা২৪ barta24

এদিকে, ইফতারের তালিকায় এবার কদর বেড়েছে রেস্তোরাঁর দইবড়ার। টক দইয়ের মধ্যে মাসকলাইয়ের ডালের বড়া দিয়ে তৈরি হয় দইবড়া। আগে মাটির বাসনে এটি বিক্রি হতো। এখন ছোট ছোট প্লাস্টিকের গ্লাসে দইবড়া বিক্রি হচ্ছে ৫০ টাকায়।

বার্তা২৪ barta24

রমজানের শুরু থেকে দিন যতই গড়িয়ে যাচ্ছে ততই বাড়ছে মুখরোচক সুস্বাদু ইফতারের চাহিদা। সাথে থাকছে ঐতিহ্যবহনে এগিয়ে থাকা মুড়ি-বুন্দিয়া-জিলাপির ইফতার বাহার।

আপনার মতামত লিখুন :