Barta24

মঙ্গলবার, ২৩ জুলাই ২০১৯, ৮ শ্রাবণ ১৪২৬

English Version

পরিবেশ সচেতনতায় গণমাধ্যমের ভূমিকা অনন্য: তথ্যমন্ত্রী

পরিবেশ সচেতনতায় গণমাধ্যমের ভূমিকা অনন্য: তথ্যমন্ত্রী
তথ্যমন্ত্রী ড. হাছান মাহমুদ, পুরনো ছবি
সেন্ট্রাল ডেস্ক
বার্তা২৪.কম


  • Font increase
  • Font Decrease

পরিবেশ ও প্রকৃতি রক্ষায় সচেতনতা বাড়াতে গণমাধ্যমের ভূমিকা অনন্য বলে মন্তব্য করেছেন তথ্যমন্ত্রী ড. হাছান মাহমুদ।

শুক্রবার (২৬ এপ্রিল) সন্ধ্যায় নেপালের রাজধানী কাঠমান্ডুতে দুই দিনব্যাপী এশীয়-প্রশান্ত আঞ্চলিক সম্প্রচার সংগঠন এশিয়া-প্যাসিফিক ব্রডকাস্টিং ইউনিয়নের (এবিইউ) পঞ্চম শীর্ষ সম্মেলনের সমাপনী আয়োজনে তিনি এ মন্তব্য করেন।

তথ্যমন্ত্রী বলেন, 'আমরা নিজেরাই আজ পরিবেশ ধ্বংসের কারণ হয়ে নিজেদের অস্তিত্বকে সংকটাপন্ন করছি। জলবায়ু পরিবর্তন মোকাবিলা ও দুর্যোগ প্রশমনে গণমাধ্যম মানুষকে নতুনভাবে সচেতন করতে ভূমিকা নেবে।'

সম্মেলন শেষে সর্বসম্মতিক্রমে ‘কাঠমান্ডু মিডিয়া একশন প্লান’ গৃহীত হয়, যা আগামী দুর্যোগ হ্রাস বিশ্বসভার আলোচ্যসূচিতে অন্তর্ভুক্ত হবে।

উল্লেখ্য, ড. হাছান মাহমুদ পরিবেশ বিষয়ে বেলজিয়াম থেকে পিএইচডি ডিগ্রি অর্জন করেছিলেন।

এর আগে বৃহস্পতিবার সন্ধ্যায় তথ্যমন্ত্রী ড. হাছান মাহমুদ নেপালের প্রধানমন্ত্রী খড়গ প্রসাদ শর্মা অলির সাথে তাঁর দপ্তরে সৌজন্য সাক্ষাৎ করেন। দেশটির প্রধানমন্ত্রী কেপি অলি বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিবুর রহমানের প্রতি শ্রদ্ধা জানান এবং বাংলাদেশের প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনার নেতৃত্বে বাংলাদেশের অগ্রগতির ভূয়সী প্রশংসা করেন।

এ সময় দুই নেতার মধ্যে আন্তরিক পরিবেশে বাণিজ্য ও গণমাধ্যমখাতে সহযোগিতা, নেপালের জলবিদ্যুৎ প্রকল্প থেকে যৌথ সুবিধা গ্রহণ ছাড়াও বিভিন্ন স্বার্থ সংশ্লিষ্ট বিষয়ে আলোচনা হয়।

নেপালে নিযুক্ত বাংলাদেশের হাইকমিশনার মাশফি বিনতে শামস, বাংলাদেশ টেলিভিশনের (বিটিভি) মহাপরিচালক এস এম হারুন-অর-রশিদ ছাড়াও দুতাবাসের কর্মকর্তারা মন্ত্রীর সাথে ছিলেন।

আপনার মতামত লিখুন :

ঈদের ১ সপ্তাহ আগে সড়ক মেরামত শেষ করার নির্দেশ

ঈদের ১ সপ্তাহ আগে সড়ক মেরামত শেষ করার নির্দেশ
সড়ক পরিবহন ও সেতুমন্ত্রী ওবায়দুল কাদের/ ছবি: সংগৃহীত

আসন্ন ঈদুল আযহার এক সপ্তাহ আগে বন্যায় ক্ষতিগ্রস্ত সকল সড়ক-মহাসড়কগুলোর চলমান জরুরি মেরামত কাজ শেষ করার নির্দেশ দিয়েছেন সড়ক পরিবহন ও সেতুমন্ত্রী ওবায়দুল কাদের। 

মঙ্গলবার (২৩ জুলাই) মন্ত্রণালয়ের সভাকক্ষে এক জরুরি সভায় মন্ত্রী সংশ্লিষ্টদের এ নির্দেশনা দিয়েছেন বলে এক সংবাদ বিজ্ঞপ্তিতে জানানো হয়েছে।

যুব ও নারীবান্ধব নাগরিক সেবার দাবি

যুব ও নারীবান্ধব নাগরিক সেবার দাবি
জাতীয় নাগরিক সেবা দিবস উপলক্ষে আয়োজিত র‌্যালি

যুব ও নারীবান্ধব নাগরিক সেবার দাবি জানিয়ে দিনব্যাপী নানা কর্মসূচির মধ্য দিয়ে ‘জাতীয় নাগরিক সেবা দিবস-২০১৯’ পালিত হয়েছে।

যুব ও নারীবান্ধব নাগরিক সেবা নিশ্চিতে তরুণদের অংশগ্রহণ ও সরকারের জবাবদিহিতা বৃদ্ধির দাবি তুলে ধরে ঢাকার গেন্ডারিয়া এলাকায় তরুণ-তরুণীসহ নানা বয়স ও শ্রেণি-পেশার মানুষ কর্মসূচিতে অংশ নেন।

মঙ্গলবার (২৩ জুলাই) সকালে ট্রাক র‌্যালির মধ্য দিয়ে এ কর্মসূচি শুরু হয়। নাগরিক সেবা দিবস উপলক্ষে কর্মসূচির আয়োজন করে একশনএইড বাংলাদেশ।

বাংলাদেশে নাগরিক সেবা নিশ্চিতের লক্ষ্যে গৃহীত সরকারি উদ্যোগসমূহকে স্বাগত জানিয়ে আয়োজকরা বলেন, বর্তমানে দেশের তিন ভাগ জনগোষ্ঠীর এক ভাগ তরুণ, যা বাংলাদেশের জন্য একটি বড় সুযোগ। এই জনগোষ্ঠীকে দেশের উন্নয়নে কাজে লাগাতে সরকারি এবং বেসরকারি পর্যায় থেকে সবাইকে এগিয়ে আসতে হবে। সামগ্রিক প্রক্রিয়ায় তরুণদের অন্তর্ভুক্ত করতে হবে।

আয়োজকদের মতে, তরুণদের জন্য সরকারি অনেক ধরনের সেবা থাকলেও অধিকাংশ তরুণরাই জানেন না কিভাবে সেবাগুলো তারা গ্রহণ করতে পারবে। অপরদিকে, অনেক ক্ষেত্রে সেবাগুলো যুব এবং নারীবান্ধব হয় না। তাই অন্তর্ভুক্তিমূলক উন্নয়ন নিশ্চিতে জবাবদিহিতামূলক মানসম্পন্ন নাগরিক সেবা নিশ্চিত করার পাশাপাশি তা যুব ও নারীবান্ধব হওয়া অত্যন্ত জরুরি।

যুব নেটওয়ার্ক ‘কোয়ালিটি অ্যান্ড একাউন্টেবল পাবলিক সার্ভিসেস (কিউএপিএস)’ এবং এক্টিভিস্টা বাংলাদেশ-এর সাথে যৌথভাবে একশনএইড বাংলাদেশ কর্তৃক আয়োজিত এই কার্যক্রমে র্যাটলির পাশাপাশি সচেতনতা বৃদ্ধির লক্ষ্যে ফ্ল্যাশ মব এবং নাগরিক সেবা সম্পর্কিত তথ্য সম্বলিত স্টিকার জনগণের মাঝে বিতরণ করা হয়।

এ সম্পর্কিত আরও খবর

Barta24 News

আর্কাইভ

শনি
রোব
সোম
মঙ্গল
বুধ
বৃহ
শুক্র