Barta24

রোববার, ২১ জুলাই ২০১৯, ৬ শ্রাবণ ১৪২৬

English Version

`বাংলাদেশের পাসপোর্টে রোহিঙ্গাদের বিদেশ যাওয়ার সুযোগ নেই’

`বাংলাদেশের পাসপোর্টে রোহিঙ্গাদের বিদেশ যাওয়ার সুযোগ নেই’
সংসদ অধিবেশনে স্বরাষ্ট্রমন্ত্রী।
স্টাফ করেসপন্ডেন্ট
বার্তা২৪.কম


  • Font increase
  • Font Decrease

বাংলাদেশের পাসপোর্ট ব্যবহার করে রোহিঙ্গাদের বিদেশ যাওয়ার সুযোগ নেই বলে জানিয়েছেন স্বরাষ্ট্রমন্ত্রী আসাদুজ্জামান খান কামাল।

তিনি বলেছেন, মিয়ানমার থেকে আগত নাগরিকদের অনুকূলে কোন বাংলাদেশি পাসপোর্ট ইস্যু করা হয়নি। যেহেতু মিয়ানমার থেকে আগত নাগরিকদের অনুকূলে কোন বাংলাদেশী পাসপোর্ট ইস্যু হয়নি, সেহেতু তাদের বাংলাদেশি পাসপোর্ট ব্যবহার করে বিদেশে যাওয়ার সুযোগ নেই।

বুধবার (১৯ সেপ্টেম্বর) জাতীয় সংসদে মমতাজ বেগমের (মানিকগঞ্জ-২) এক প্রশ্নের জবাবে তিনি এসব কথা বলেন। এরআগে বিকাল ৫টায় স্পিকার ড. শিরীন শারমীন চৌধুরীর সভাপতিত্বে সংসদের বৈঠক শুরু হয়।

চট্টগ্রাম-১১ আসনের সংসদ সদস্য এম. আবদুল লতিফের এক প্রশ্নের জবাবে তিনি বলেন, জঙ্গিবাদ দমনসহ আইন-শৃঙ্খলা পরিপন্থী কাজের সঙ্গে জড়িতদের সম্পর্কে আগাম তথ্য সংগ্রহ ও তালিকা প্রস্তুত করে গ্রেফতারপূর্বক আইনানুগ ব্যবস্থা নেয়া হচ্ছে। ইতোমধ্যে জঙ্গিবাদ দমনে পুলিশ বাহিনীতে কাউন্টার টেরোরিজম ইউনিট গঠন করে আধুনিক তথ্য প্রযুক্তি সম্পর্কে প্রশিক্ষণ দেওয়া হচ্ছে। জঙ্গিদের গ্রেফতার করে জিজ্ঞাসাবাদের  মাধ্যমে তাদের সহযোগী মদদদাতাদের সনাক্তকরণ এবং জঙ্গি অর্থায়ন বন্ধের মাধ্যমে তাদের আইনশৃঙ্খলা পরিপন্থী কর্মকাণ্ড প্রতিরোধসহ জঙ্গি দমনের ক্ষেত্রে উল্লেখযোগ্য অবদান রাখছে।

আপনার মতামত লিখুন :

বড়পুকুরিয়া কয়লাখনির সাবেক ৭ এমডির বিরুদ্ধে দুদকের চার্জশিট

বড়পুকুরিয়া কয়লাখনির সাবেক ৭ এমডির বিরুদ্ধে দুদকের চার্জশিট
বড়পুকুরিয়া কয়লাখনি

বড়পুকুরিয়া কোল মাইনিং কোম্পানি লিঃ এর সাবেক সাতজন ব্যবস্থাপনা পরিচালকসহ ২৩ জন ঊর্ধ্বতন কর্মকর্তার বিরুদ্ধে ২৪৩ কোটি ২৮ লাখ ৮২ হাজার টাকা আত্মসাতের অভিযোগে চার্জশিট  দিয়েছে দুর্নীতি দমন কমিশন (দুদক)।

রোববার (২১ জুলাই) দিনাজপুরের দুদকের সমন্বিত জেলা কার্যালয় থেকে এ চার্জশিট দেওয়া হয়েছে।

চাজশিটভুক্ত আসামিদের মধ্যে সাবেক ব্যবস্থাপনা পরিচলকরা হলেন মোঃ মাহবুবুর রহমান, মোঃ আব্দুল আজিজ খান, প্রকৌশল খুরশীদুল হাসান, প্রকৌঃ কামরুজ্জামান, মোঃ আমিনুজ্জামান, প্রকৌঃ এস.এম.নুরুল আওরঙ্গজেব, মাইন অপারেশন বিভাগ প্রকৌঃ হাবিব উদ্দিন আহাম্মদ, সাবেক ব্যবস্থাপনা পরিচলক (প্রশাসন)  মো: শরিফুল আলম,   সাবেক ব্যবস্থাপনা পরিচলক (প্রশাসন) মো: আবুল কাসেম প্রধানীয়া।

এছাড়া অন্যান্যরা হলেন, মাইন অপারেশন বিভাগের সাবেক ব্যবস্থাপনা পরিচালক আবু তাহের মোঃ নুর-উজ-জামান চৌধুরী,  নিরাপত্তা ব্যবস্থাপনা পরিচালক  মাসুদুর রহমান হাওলাদার, ব্যবস্থাপক (মেন্টেনেন্স এন্ড অপারেশন) মো: আরিফুর রহমান,      ব্যবস্থাপক (নিরাপত্তা শাখা) সৈয়দ ইমান হাসান, উপ-ব্যবস্থাপক (কোল হ্যান্ডলিং ম্যানেজমেন্ট)  মুহাম্মদ খলিলুর রহমান, উপ-ব্যবস্থাপক (মেন্টেনেন্স এন্ড অপারেশন)  মো: মোর্শেদুজ্জামান,উপ-ব্যবস্থাপক (প্রোডাকশন ম্যানেজমেন্ট) মো: হাবিবুর রহমান, উপ-ব্যবস্থাপক (মাইন ডেভেলপমেন্ট) মো: জাহেদুর রহমান, সহকারী ব্যবস্থাপক (ভেন্টিলেশন ম্যানেজমেন্ট) সত্যেন্দ্র নাথ বর্মন, সহকারী ব্যবস্থাপক (পি.এম) মোঃ মনিরুজ্জামান, ব্যবস্থাপক (কোন হ্যান্ডেলিং ম্যানেজমেন্ট, বড়পুকুরিয়া কোল মাইনিং কোম্পানি লিমিটেড) মোঃ শোয়েবুর রহমান,  (২১) উপ-মহাব্যবস্থাপক (স্টোর ডিপার্টমেন্ট)  এ.কে.এম খালেদুল ইসলাম, ব্যবস্থাপক (প্রোডাকশন ম্যানেজমেন্ট) অশোক কুমার হালদার, উপ-মহাব্যবস্থাপক (মাইন প্ল্যানিং এন্ড ডেভেলপমেন্ট) মোঃ জোবায়ের আলী।

দুদক জানায়, এদের মধ্যে এজাহার ভূক্ত আসামি  ১৪ জন এবং তদন্তে আরো যুক্ত হয়েছে ৯ জন।

এদের বিরুদ্ধে অভিযোগ, পরস্পর যোগসাজশে জানুয়ারি, ২০০৬ ইং মাস হতে ১৯/৭/২০১৮ খ্রি: মেয়াদে ঘাটতিকৃত এক লাখ ৪৩ হাজার ৭২৭ দশমিক ৯২ মে.টন কয়লা; যার বাজার মূল্য ২৪৩ কোটি ২৮ লাখ ৮২ হাজার ৫০১ দশমিক ৮৪ টাকা আত্মসাৎ করেছে।

দুদক জানায়,  দণ্ডবিধির ৪০৯/১০৯ এবং ১৯৪৭ সনের দুর্নীতি প্রতিরোধ আইনের ৫(২) ধারায় শাস্তিযোগ্য অপরাধ এবং এর ফলে আসামিদের বিরুদ্ধে চার্জশিট দেওয়া হয়েছে।

এদিকে তদন্তে ৫ অভিযুক্তকে অব্যাহতি দিয়েছে দুদক। এরা  হলেন এজাহারভূক্ত আসামি ব্যবস্থাপক (এক্সপ্লোরেশন) মো: মোশারফ হোসেন সরকার, ব্যবস্থাপক (ডিজাইন, কনস্ট্রাকশন এন্ড মেন্টেনেন্স) জাহিদুল ইসলাম, উপ-ব্যবস্থাপক (সেইফটি ম্যানেজমেন্ট) মো: একরামুল হক, সাবেক মহাব্যবস্থাপক (অর্থ ও হিসাব) মো: আব্দুল মান্নান পাটওয়ারী, মহাব্যবস্থাপক (অর্থ ও হিসাব, চ.দা.) গোপাল চন্দ্র সাহা।

জানা যায়, বিসিএমসি এর ব্যবস্থাপক (প্রশাসন) মোহাম্মদ আনিছুর রহমান বাদী হয়ে দিনাজপুরের পার্বতীপুর মডেল থানায় মামলা দায়ের করেন।  এ মামলার তদন্তকারী কর্মকর্তা ছিলেন দুদকের প্রধান কার্যালয়ের উপপরিচালক মোঃ সামছুল আলম।

ভালুকায় অজ্ঞাত মরদেহ উদ্ধার

ভালুকায় অজ্ঞাত মরদেহ উদ্ধার
প্রতীকী ছবি

ময়মনসিংহের ভালুকায় একটি খাল থেকে অজ্ঞাত এক যুবকের (৩৫) গলিত মরদেহ উদ্ধার করেছে পুলিশ।

রোববার (২১ জুলাই) দুপুরে উপজেলার খীরু নদীর ভান্ডাব এলাকার রুপির খাল থেকে মরদেহটি উদ্ধার করা হয়।

ঘটনার সত্যতা নিশ্চিত করে ভালুকা মডেল থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) মোহাম্মদ মাইন উদ্দিন বার্তাটোয়েন্টিফোর.কম-কে বলেন, 'রুপির খালে একটি মরদেহ ভাসতে দেখে স্থানীয়রা থানায় খবর দেয়। পরে ঘটনাস্থল থেকে বস্ত্রহীন অবস্থায় ওই ব্যক্তির গলিত মরদেহটি উদ্ধার করা হয়। পরে ময়নাতদন্তের জন্য ময়মনসিংহ মেডিকেল কলেজ হাসপাতালের মর্গে পাঠানো হয়।'

তিনি আরও জানান, 'মরদেহটির মাথা, কপাল, চোখ ও গলায় ধারালো অস্ত্রের আঘাতের চিহ্ন রয়েছে। ৪-৫ দিন আগে দুর্বৃত্তরা ওই ব্যক্তিকে হত্যার পর মরদেহটি খালে ফেলে যায় বলে ধারণা করা হচ্ছে।' 

এ সম্পর্কিত আরও খবর

Barta24 News

আর্কাইভ

শনি
রোব
সোম
মঙ্গল
বুধ
বৃহ
শুক্র