Alexa

ছাত্রীর শ্লীলতাহানি

মমেকের দুই গার্ড সাময়িক বরখাস্ত, আন্দোলন স্থগিত

মমেকের দুই গার্ড সাময়িক বরখাস্ত, আন্দোলন স্থগিত

অধ্যক্ষের আশ্বাসের পর আন্দোলন স্থগিত করেছে শিক্ষার্থীরা, ছবি: বার্তা২৪.কম

ময়মনসিংহ মেডিকেল কলেজের (মমেক) ছাত্রী হোস্টেলের সামনে এক ছাত্রীকে শ্লীলতাহানির ঘটনায় দায়িত্বে অবহেলা করায় সেলিম ও ফরিদ নামে দুই গার্ডকে সাময়িক বরখাস্ত করেছে কলেজ প্রশাসন।

প্রশাসন শিক্ষার্থীদের সব দাবি মেনে নেয়ার আশ্বাস দিলে আন্দোলন স্থগিত করেছে শিক্ষার্থীরা।

বৃহস্পতিবার (১৬ মে) বিকেল ৩টার দিকে সাংবাদিকদের এ তথ্য জানিয়েছেন কলেজ অধ্যক্ষ অধ্যাপক ডা. আনোয়ার হোসেন।

তিনি বলেন, 'গতকালের ঘটনার জন্য আমাদের দুইজন কর্মচারী মূলত দায়ী। ওই সময় গেটে না থাকার কারণে ঘটনাটি ঘটেছে। সেজন্য তাদেরকে সাময়িক বরখাস্তের সিদ্ধান্ত নিয়েছি।'

আরও পড়ুন: মমেকে ছাত্রীর শ্লীলতাহানি, শিক্ষার্থীদের বিক্ষোভে অচল ক্যাম্পাস

অধ্যক্ষ জানান, এই মুহূর্ত থেকে ছাত্রী হোস্টেলের গেটে পুলিশের সদস্য সার্বক্ষণিক থাকবে। একই সঙ্গে আনসার সদস্য ও দারোয়ানও থাকবে। কলেজের গেট বিকেল ৪টা থেকে বন্ধ থাকবে। নার্সিং ও ছাত্রী হোস্টেলের মাঝের গেটও বন্ধ থাকবে। যাতে করে বহিরাগত কেউ সরাসরি এখানে না আসতে পারে। এদিকে শিক্ষার্থীদের যে উত্তেজনাটা ছিল তাদের বিষয়ে পুলিশ দায়িত্ব নিয়েছে। তারা ওই বহিরাগতকে খুঁজে বের করতে অভিযান শুরু করে দিয়েছে বলে পুলিশ প্রশাসনের পক্ষ থেকে আমাকে জানানো হয়েছে।

শিক্ষার্থীদের যেসব দাবি রয়েছে সব দাবিই পূরণ করা হবে। তাৎক্ষণিকভাবে যেগুলো সম্ভব সেগুলোর ব্যবস্থা গ্রহণ করা হয়েছে বলেও উল্লেখ করেন তিনি।

তিনি আরও বলেন, 'পরবর্তীতে যাতে কোন অনাকাঙ্ক্ষিত ঘটনা না ঘটে সেজন্য আমরা মনিটরিং সেল আজই তৈরি করছি। ক্যাম্পাস ও হোস্টেল দেখার জন্য এ মনিটরিং সেলে কলেজ প্রশাসন, শিক্ষক ছাত্র, হাসপাতাল এবং পুলিশ প্রশাসনের পক্ষ থেকে প্রতিনিধি থাকবে। এ সেল প্রতি মাসে কমপক্ষে একবার সভা করে কলেজ-হোস্টেলের সমস্যা সমাধান করবে।'

এর আগে, বহিরাগত কর্তৃক ছাত্রীকে শ্লীলতাহানির প্রতিবাদ ও ক্যাম্পাসে স্থায়ীভাবে পর্যাপ্ত নিরাপত্তার দাবিতে সকাল থেকে ক্লাস-পরীক্ষা বর্জন করে আন্দোলনে নামে শিক্ষার্থীরা।

পরে এ বিষয়ে আন্দোলনকারী শিক্ষার্থীদের প্রতিনিধি দল ও পুলিশ প্রশাসনের কর্মকর্তাদের সঙ্গে কলেজ অধ্যক্ষ অধ্যাপক ডা. আনোয়ার হোসেনের সভাপতিত্বে আলোচনায় বসে কলেজ প্রশাসন। সেখানে শিক্ষার্থীদের সব দাবি পূরণের আশ্বাসে শনিবার পর্যন্ত আন্দোলন স্থগিত রাখেন শিক্ষার্থীরা। শনিবার ফের আলোচনায় বসার কথা বলেছে।

আপনার মতামত লিখুন :

ক্যাম্পাস এর আরও খবর