Alexa

জার্মান কোরআন প্রতিযোগিতার প্রধান বিচারক বাংলাদেশের ক্বারী

জার্মান কোরআন প্রতিযোগিতার প্রধান বিচারক বাংলাদেশের ক্বারী

জার্মান কোরআন প্রতিযোগিতার প্রধান বিচারক বাংলাদেশের ক্বারী, ছবি: সংগৃহীত

বাংলাদেশের অন্যতম প্রধান ক্বারী ও আন্তর্জাতিক কোরআন তেলাওয়াত সংস্থা (ইক্বরা)-এর সভাপতি ক্বারী আহমাদ বিন ইউসুফ আল আজহারী জার্মানে অনুষ্ঠিতব্য একটি হিফজুল কোরআন ও ক্বেরাত প্রতিযোগিতার প্রধান বিচারক মনোনীত হয়েছেন।

২৪ মার্চ দিনব্যাপী জার্মানের ডর্টমুন্ড শহরে ‘কুরআন-ই-কারীম যিয়াফেতি-২০১৯ শিরোনামে অনুষ্ঠিতব্য ওই আন্তর্জাতিক ওই প্রতিযোগিতায় তার প্রধান বিচারকের দায়িত্ব পালন করার কথা রয়েছে।

২৩ মার্চ  সকালে তিনি ক্বেরাত সম্মেলনে অংশগ্রহণের উদ্দেশ্যে ঢাকা ত্যাগ করবেন।

ইউরোপের অন্যতম বড় ইসলামিক অর্গানাইজেশন "আইজিএমজি" এই প্রতিযোগিতার আয়োজন করেছে।

অর্গানাইজেশনের সভাপতি আবদুল্লাহ কোদমান।

আন্তর্জাতিক ওই হিফজুল কোরআন প্রতিযোগিতায় বাংলাদেশের ক্বারী আহমাদ বিন ইউসুফ আল আজহারী ছাড়াও বিভিন্ন দেশের নামকরা হাফেজ, ক্বারী, ইসলামি স্কলার ও মুসলিম দেশের রাষ্ট্রদূতরা অংশগ্রহণ করবেন।

জার্মান সফরকালে ক্বারী আহমাদ বিন ইউসুফ আল আজহারী কোরআন প্রতিযোগিতায় বিচারকের দায়িত্ব পালন ছাড়াও কয়েকটি শিক্ষা প্রতিষ্ঠান পরিদর্শন করবেন এবং ওই সব শিক্ষা প্রতিষ্ঠানে কোরআন চর্চার গুরুত্বারোপ ও মানোন্নয়নের ব্যাপারে মতবিনিময় করবেন।

২৫ মার্চ তার দেশে ফেরার কথা রয়েছে।

শায়খ ক্বারী আহমাদ বিন ইউসুফ আল আজহারী বিশ্বের ৪৫টির মতো দেশ সফর করেছেন। এসব দেশের আন্তর্জাতিক সম্মেলনে কোরআন তেলাওয়াত এবং বিশ্বের বড় বড় আন্তর্জাতিক প্রতিযোগিতায় একমাত্র বাংলাদেশী বিচারক হিসেবে দায়িত্ব পালন করেছেন তিনি।

বাংলাদেশে বিশুদ্ধ কোরআন তেলাওয়াত ও ক্বেরাতের পথপ্রদর্শক, বাংলাদেশ বেতার ও টেলিভিশনের প্রধান ক্বারী মাওলানা ক্বারী মুহাম্মাদ ইউসুফের বড় সন্তান শায়খ আহমাদ বিন ইউসুফ আল আজহারী।

শায়খ আহমাদ ইউসুফ ২০০১ সালে দাওরায়ে হাদিস পাশ করেন। পরে মিসরের আল আজহারের মাহাদুল ক্বিরাত থেকে দীর্ঘ ৮ বছর পড়াশুনা করে ১০ ক্বিরাতের ওপর প্রথম বাংলাদেশি হিসেবে সর্বোচ্চ সনদ অর্জন করেন।

আপনার মতামত লিখুন :