Alexa

অর্থমন্ত্রীর বক্তব্যে বড় দরপতন, প্রতিবাদে বিনিয়োগকারীদের বিক্ষোভ

অর্থমন্ত্রীর বক্তব্যে বড় দরপতন, প্রতিবাদে বিনিয়োগকারীদের বিক্ষোভ

পুঁজিবাজারে দরপতনের প্রতিবাদে বিনিয়োগকারীদের বিক্ষোভ, ছবি:বার্তা২৪.কম

‘পুঁজিবাজার ভালো আছে, এখনে কোনো প্রবলেম নেই’ অর্থমন্ত্রীর এমন বক্তব্যের পরদিন মঙ্গলবার (২৩ এপ্রিল) দেশের দুই পুঁজিবাজারে আরও বড় দরপতন হয়েছে। এদিন ঢাকা স্টক এক্সচেঞ্জে (ডিএসই) সূচক কমেছে ৬২ পয়েন্ট। আর চট্টগ্রাম স্টক এক্সচেঞ্জে (সিএসই) সূচক কমেছে ১৪৮ পয়েন্ট।

আর এই দরপতনের প্রতিবাদে মঙ্গলবার দুপুরে বিক্ষোভ কর্মসূচি পালন করেছেন বিনিয়োগকারীরা। বাংলাদেশ ক্ষুদ্র বিনিয়োগকারী ঐক্য পরিষদের ব্যানারে দুপুর ২টা শুরু হওয়া বিক্ষোভ শেষ হয় সোয়া ৩টায়।

বিনিয়োগকারীরা বাংলাদেশ সিকিউরিটিজ অ্যান্ড এক্সচেঞ্জ কমিশনের(বিএসইসি) চেয়ারম্যান অধ্যাপক খায়রুল হোসেনের পদত্যাগ দাবি করেছেন। পাশাপাশি কমিশনার পদেও সংস্কার আনার প্রস্তাব করেছেন।

তারা বলছেন, ’অর্থমন্ত্রী আ হ ম মুস্তফা কামাল সোমবার পুঁজিবাজার নিয়ে অশালীন বক্তব্য দিয়েছেন। বিনিয়োগকারীরা এতে হতাশ হয়েছে।’

অর্থমন্ত্রী আহম মুস্তফা কামাল সোমবার বলেন, ‘দেশের পুঁজিবাজার স্থিতিশীল ঠিক আছে। এখানে কোনো প্রবলেম নেই। ভারত ও জাপানে তার চেয়ে বড় ধস হয়েছে। সেই হিসেবে বাংলাদেশের বাজারে কোনো সমস্যা নেই।’

তার বক্তব্যের পর বাজারে আরও আতঙ্ক সৃস্টি হয়েছে বলে মনে করছেন বিনিয়োগকারীরা।

বিনিয়োগকারী ঐক্য পরিষদের সাধারণ সম্পাদক আব্দুর রাজ্জাক বার্তা২৪.কমকে বলেন, ‘পুঁজিবাজারের অস্বাভাবিক পতনের প্রতিবাদে ২ সপ্তাহ ধরে রাস্তায় বিক্ষোভ করছি। আমরা বিনিয়োগকারীরা ধীরে ধীরে নিঃশেষ হয়ে যাচ্ছি। আমাদের পুঁজি এখন শেষ হয়ে যাচ্ছে। কিন্তু আমাদের কান্না, আমাদের এই আন্দোলন কেউ গুরুত্ব দিচ্ছে না। ঊর্ধ্বমুখী পুঁজিবাজারের জন্য আমাদের দেওয়া দাবিগুলো বাস্তবায়নের মুখ দেখছে না।’

এই সমস্যা কাটিয়ে উঠতে বাজারে প্রতি দৃষ্টি দেওয়ার জন্য প্রধানমন্ত্রীর কাছে আকুল আবেদন করে বিনিয়োগকারীরা বলেন, এখন একমাত্র প্রধানমন্ত্রী হস্তক্ষেপ করলেই বাজার আবার ঘুরে দাঁড়াবে। তাছাড়া কোনো বিকল্প নেই।

উল্লেখ্য, সোমবার সন্ধ্যায় অর্থমন্ত্রী আ হ ম মুস্তফা কামাল সাংবাদিকদের বলেন, আপনারা তো পত্রিকায় লিখছেন পুঁজিবাজার নেই, বাংলাদেশ নেই, আমরাও নেই। তাই ছুটির দিনেও বাংলাদেশ সিকিউরিটিজ অ্যান্ড এক্সচেঞ্জকমিশনে (বিএসইসি) এলাম। সব কিছু জানলাম। আমি তো পুঁজিবাজারে অবস্থা ঠিকই আছে দেখলাম।

উল্টো প্রশ্ন ছুড়ে দিয়ে তিনি বলেন, কোথায় সেই রকম ঘটনা ঘঠেছে। মার্কেট কোথায় ফল (ধস) করছে? মার্কেটের সূচক কত ছিলো আগে, সূচক ছিলো সাড়ে ৪ হাজার পয়েন্ট, সেটা বেড়ে হয়েছিলো ৫ হাজার ৯০০ পয়েন্ট। এখন সেটা কমে ৫ হাজার ৩০০ পয়েন্টে নেমে এসেছে। তাতে এমন কি হয়েছে?

 

 

 

আপনার মতামত লিখুন :