Barta24

মঙ্গলবার, ২৩ জুলাই ২০১৯, ৮ শ্রাবণ ১৪২৬

English Version

‘কোনো শ্রমিকের বেতন কমবে না’

‘কোনো শ্রমিকের বেতন কমবে না’
ছবি: বার্তা২৪
স্টাফ করেসপন্ডেন্ট
বার্তা২৪.কম


  • Font increase
  • Font Decrease

কোনো শ্রমিকের বেতনই কমবে না বলে জানিয়েছেন শ্রম ও কর্মসংস্থান সচিব আফরোজা খানম।

বৃহস্পতিবার (১০ জানুয়ারি) বিকেলে সচিবালয়ে শ্রম ও কর্মসংস্থান মন্ত্রণালয়ের সম্মেলন কক্ষে গার্মেন্টস শিল্প শ্রমিকদের জন্য ঘোষিত নিম্নতম মজুরি পর্যালোচনক্রমে সুপারিশসহ প্রতিবেদন প্রদানসহ গঠিত কমিটির সভা শেষে তিনি এ কথা জানান।

তিনি বলেন, বেতন গ্রেডে কোথায়-কোথায় সমস্যা আছে, সেটা নিয়ে পর্যালোচনা করেছি আমরা। গতকাল যে কমিটি গঠন করা হয়েছে সেই কমিটির প্রথম বৈঠক ছিল এটি। বেতন গ্রেডে কোথায়-কোথায় সমস্যা আছে তা আমরা দেখছি। খুব দ্রুত এর সমাধান করা হবে। ঘোষিত নূন্যতম মজুরিতে সাতটি গ্রেডের মধ্যে ৩, ৪ এবং ৫ গ্রেড নিয়েই শ্রমিকরা আপত্তি জানিয়েছে। অন্যান্য গ্রেডের তুলনায় ৩, ৪ এবং ৫ গ্রেডে বেতন তুলনামূলক কম। বিষয়টি আমরা আমলে নিয়েছি। আগামী রোববার আমাদের আরেকটি মিটিং হবে। সেখানে বিষয়টি নিয়ে সিদ্ধান্ত নেয়া হবে। শ্রমিকদের মজুরি সমন্বয় করা হবে।

শ্রম সচিব বলেন, গার্মেন্টস শ্রমিকদের যে কোন সমস্যার অভিযোগ গ্রহণের জন্য কলকারখানা ও প্রতিষ্ঠান পরিদর্শন অধিদপ্তরের হট লাইন ২৪ ঘণ্টা খোলা থাকবে। তিনি বলেন, অর্থনীতির মূল ভিত্তি গার্মেন্টস শিল্পকে রক্ষার জন্য মালিক-শ্রমিক সবাইকে একসাথে কাজ করতে হবে। দেশের এ গুরুত্বপূর্ণ শিল্পকে অস্থিতিশীল করার চক্রান্ত থাকতে পারে। এ বিষয়ে সকলকে সজাগ থাকতে হবে।

তিনি বলেন, বেতন-বৈষম্য ছাড়াও বাহিরের অনেক ইস্যু এসেছে। অনেক ফ্যাক্টরিতে গ্রেডের চেয়েও বেশি বেতন দিচ্ছে। কিন্তু সেখানেও আন্দোলন হচ্ছে, ভাঙচুর হয়েছে। এ বিষয়ে সবাইকে সতর্ক থাকতে হবে। দুষ্টু চক্র থাকলেও সবাই মিলে প্রতিহত করতে হবে। এসময় শ্রমিকদের কাজে যোগ দেয়ার অনুরোধ জানান তিনি।

বৈঠকে সংসদ সদস্য সালাম মুর্শিদী, বিজিএমইএ এর সভাপতি মোঃ সিদ্দিকুর রহমান, এফবিসিসিআই এর সভাপতি মোঃ সফিউল ইসলাম মহিউদ্দিন, সাবেক বিজিএমইএ এর প্রাক্তন সভাপতি আতিকুল ইসলাম, মোহাম্মদী গ্রুপের এমডি রুবানা হক, জাতীয় শ্রমিক লীগের কার্যকরী সভাপতি ফজলুল হক মন্টু, জাতীয় শ্রমিক লীগের মহিলা বিষয়ক সম্পাদক বেগম শামছুন্নাহার ভূইয়া, জাতীয় গার্মেন্টস শ্রমিক ফেডারেশন এর সভাপতি আমিরুল হক আমিন, ইন্ড্রাস্ট্রিঅল বাংলাদেশ কাউন্সিল এর মহাসচিব সালাউদ্দিন স্বপন এবং শ্রমিক নেতা সিরাজুল ইসলাম রনি, বাবুল আক্তার, নাজমাসহ মালিক-শ্রমিক নেতৃবৃন্দ বৈঠকে অংশগ্রহণ করেন।

আপনার মতামত লিখুন :

আইসিটি টাওয়ারে ইস্টার্ন ব্যাংকের বুথ

আইসিটি টাওয়ারে ইস্টার্ন ব্যাংকের বুথ
ছবি: সংগৃহীত

রাজধানীর আগারগাঁওয়ের আইসিটি টাওয়ারে এটিএম বুথ চালু করেছে ইস্টার্ন ব্যাংক লিমিটেড (ইবিএল)। মঙ্গলবার (২৩ জুলাই) আনুষ্ঠানিকভাবে এই এটিএম বুথের উদ্বোধন করেন তথ্য ও যোগাযোগ প্রতিমন্ত্রী জুনাইদ আহমেদ পলক।

এ সময় অন্যান্যদের মধ্যে উপস্থিত ছিলেন তথ্যপ্রযুক্তি বিভাগের সচিব এন এম জিয়াউল আলম, বাংলাদেশ কম্পিউটার কাউন্সিলের নির্বাহী পরিচালক পার্থপ্রতিম দেব, ইস্টার্ন ব্যাংকের ব্যবস্থাপনা পরিচালক আলী রেজা ইফতেখার, হেড অব কমিউনিকেশন অ্যান্ড এক্সটার্নাল অ্যাপেয়ারস জিয়াউল করিমসহ ইস্টার্ন ব্যাংক ও আইসিটি বিভাগের ঊর্ধ্বতন কর্মকর্তারা।

উভয় পুঁজিবাজারে সূচক বেড়েছে

উভয় পুঁজিবাজারে সূচক বেড়েছে
ছবি: সংগৃহীত

দেশের প্রধান শেয়ারবাজার ঢাকা স্টক এক্সচেঞ্জ (ডিএসই) ও চট্টগ্রাম স্টক এক্সচেঞ্জে (সিএসই) সপ্তাহের তৃতীয় কার্যদিবস মঙ্গলবার (২৩ জুলাই) সূচক বেড়ে শেষ হয়েছে এদিনের লেনদেন। এদিন ডিএসইতে প্রধান সূচক ডিএসইএক্স বেড়েছে ১১১ পয়েন্ট এবং সিএসইর প্রধান সূচক সিএসসিএক্স বেড়েছে ১৭৭ পয়েন্ট।

এদিন ডিএসইতে লেনদেন হয়েছে ৩১৭ কোটি ৬ লাখ টাকার শেয়ার ও মিউচ্যুয়াল ফান্ড। গত কার্যদিবসে লেনদেন হয়েছিল ৪৬৪ কোটি ১৮ লাখ টাকা। আর সিএসইতে লেনদেন হয়েছে ১২ কোটি ৩৭ লাখ টাকা। গত কার্যদিবসে লেনদেন হয়েছিল ২১ কোটি ১৭ লাখ শেয়ার ও মিউচ্যুয়াল ফান্ডের ইউনিট।

ডিএসই ও সিএসই’র ওয়েবসাইট সূত্রে এ তথ্য জানা গেছে।

ডিএসই

এদিন ডিএসইতে লেনদেনের শুরুতে সূচক বাড়ে। লেনদেনের শুরু হয় সাড়ে ১০টায়, শুরুতেই সূচক কমে যায়। প্রথম ৫ মিনিটেই ডিএসইএক্স সূচক বাড়ে ২২ পয়েন্ট। বেলা ১০টা ৪০ মিনিটে সূচক বাড়ে ৪৩ পয়েন্ট। বেলা ১০টা ৪৫ মিনিটে সূচক বাড়ে ৫৮ পয়েন্ট। বেলা ১০টা ৫০ মিনিটে সূচক ৬৬ পয়েন্ট বেড়ে যায়। বেলা ১০টা ৫৫ মিনিটে সূচক ৭২ পয়েন্ট বেড়ে যায়। এরপর থেকে সূচক বাড়ার প্রবণতা কিছুটা কমতে থাকে। বেলা ১১টায় সূচক ৬৩ পয়েন্ট বাড়ে। বেলা ১২টায় সূচক ৫৯ পয়েন্ট, বেলা ১টায় সূচক ৮৩ পয়েন্ট, বেলা ২টায় সূচক ১০৪ পয়েন্ট বাড়ে এবং বেলা আড়াইটায় লেনদেন শেষে ডিএসইএক্স সূচক ১১১ পয়েন্ট বেড়ে দাঁড়ায় ৫ হাজার ৭৭ পয়েন্টে।

অন্যদিকে, ডিএসই-৩০ সূচক ৩৮ পয়েন্ট বেড়ে অবস্থান করছে এক হাজার ৮১৪ পয়েন্টে এবং ডিএসই শরিয়াহ সূচক ২৫ পয়েন্ট বেড়ে অবস্থান করছে এক হাজার ১৬৪ পয়েন্টে। এদিন ডিএসইতে লেনদেন হয়েছে ৩১৭ কোটি ৬ লাখ টাকার শেয়ার ও মিউচ্যুয়াল ফান্ড।

লেনদেন শেষে ডিএসইতে লেনদেন হওয়া প্রতিষ্ঠানগুলোর মধ্যে দাম বেড়েছে ৩২৭টির, কমেছে ১৫ এবং অপরিবর্তিত রয়েছে নয়টি কোম্পানির শেয়ারের দাম।

সোমবার দাম বৃদ্ধির ভিত্তিতে ডিএসই’র শীর্ষ দশ কোম্পানির তালিকায় আছে- ফরচুন সু, সিনোবাংলা ইন্ডাস্ট্রিজ, স্কয়ার ফার্মা, ডোরিন পাওয়ার, ইউনাইটেড পাওয়ার, বিকন ফার্মা, ন্যাশনাল পলিমার, ব্র্যাক ব্যাংক, সি পার্ল বিচ অ্যান্ড রিসোর্ট এবং মুন্নু সিরামিকস।

সিএসই

অন্যদিকে, লেনদেন শেষে চট্টগ্রাম স্টক এক্সচেঞ্জের (সিএসই) সাধারণ সূচক (সিএসইএক্স) ১৭৭ পয়েন্ট বেড়ে ৯ হাজার ৪৩৪ পয়েন্টে, সিএসই-৩০ সূচক ১৮৬ পয়েন্ট বেড়ে ১৩ হাজার ৭৭৪ পয়েন্টে এবং সিএএসপিআই সূচক ২৯৮ পয়েন্ট বেড়ে ১৫ হাজার ৫১৩ পয়েন্টে অবস্থান করে।

লেনদেন শেষে সিএসইতে লেনদেন হয়েছে ১২ কোটি ৩৭ লাখ টাকার শেয়ার ও মিউচ্যুয়াল ফান্ডের ইউনিট।

এদিন দাম বাড়ার ভিত্তিতের সিএসই’র শীর্ষ কোম্পানিগুলো হলো- কেয়া কসমেটিকস, জাহিন টেক্সটাইল, এপেক্স স্পিনিং, ফারেইস্ট ফাইন্যান্স, এমারেল্ড অয়েল, ঢাকা ডায়িং, আমরা নেটওয়ার্ক, নাভানা সিএনজি, ইমাম বাটন এবং মাইডাস ফাইন্যান্স।

এ সম্পর্কিত আরও খবর

Barta24 News

আর্কাইভ

শনি
রোব
সোম
মঙ্গল
বুধ
বৃহ
শুক্র